ব্যাটসম্যানদের দুষলেন সাকিব

  স্পোর্টস ডেস্ক ০১ আগস্ট ২০১৮, ১২:৪৯ | অনলাইন সংস্করণ

সাকিব,

একে ব্যাটিংসহায়ক উইকেট, তার ওপর আবার সেন্ট কিটসের বাউন্ডারি ছোট। তবু কাজটি ঠিকভাবে করতে পারেননি সাকিব-তামিমরা। ফলে লড়াইয়ের পুঁজি পাননি বোলাররা; অধিকন্তু বৃষ্টিবাধা। স্বাভাবিকভাবেই বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ৭ উইকেটে হেরে গেছে বাংলাদেশ।

এ জয়ে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে ১-০তে এগিয়ে গেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এজন্য ব্যাটসম্যানদেরই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন টাইগার দলপতি সাকিব আল হাসান। তার মতে, এ মাঠে লড়তে হলে কমপক্ষে ১৮০ রান করতে হতো। তা করতে না পারায় হারের দায়টা ব্যাটসম্যানদেরই নিতে হবে।

ম্যাচশেষে সাকিব বলেন, শুরুতে আমরা আত্মঘাতী শট খেলেছি। গুরুত্বপূর্ণ সময়ে মূল্যবান দুই (তামিম-সৌম্য) উইকেট হারিয়েছি। এর পর আমি ও লিটন খেলাটা টেনে নিয়ে যাচ্ছিলাম। তবে পাওয়ার প্লের শেষ ওভারে পরপর দুই বলে আউট হয়ে যাই। এটি বড় ধাক্কা ছিল।

তিনি যোগ করেন, পরে মুশফিক ও মাহমুদউল্লাহ ভাইয়ের মধ্যে একটা জুটি গড়ে ওঠে। তবে মুশফিক ভাই আউট হয়ে গেলে ফের চাপে পড়ি আমরা। ফলে মোমেন্টামটা পাইনি। তাই বড় স্কোর হয়নি। এ ধরনের উইকেট ও মাঠে অন্তত ১৮০ রান হওয়া উচিত ছিল।

প্রথমে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারালেও রান উঠছিল ঝড়োগতিতে। সেই তুলনায় শেষ দিকে রানই ওঠেনি। এটিকে বড় চিন্তার বিষয় ভাবছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক- হ্যাঁ, শেষ ১০ ওভারে কম রান হয়েছে। পরের ম্যাচে ভালো করতে হলে তা কাটিয়ে উঠতে হবে। এখন আমাদের এ নিয়েই ভাবতে হবে।

বৃষ্টি বাগড়ায় অনেকক্ষণ খেলা বন্ধ থাকে। পরে বৃষ্টি থামলে খেলা শুরু হয়। এতে ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের লক্ষ্য দাঁড়ায় ১১ ওভারে ৯১ রান। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১১ বল হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে নোঙর করে বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।

সাকিব বলেন, এ ধরনের উইকেটে ৯১ রান যৎসামান্য। ওয়েস্ট ইন্ডিজের কয়েকজন টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট রয়েছে। জিততে হলে তাদের আউট করতেই হবে।

সিরিজের শেষ দুটি ম্যাচ হবে যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডায়। এ নিয়ে প্রথমবারের মতো মার্কিন দেশে খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। নতুন ভেন্যুতে শুভসূচনার আশায় লাল-সবুজ জার্সিধারীদের অধিনায়ক, সিরিজে ঘুরে দাঁড়াতে আমাদের সেরা খেলাটা খেলতে হবে। পরের দুটি ম্যাচ নতুন ভেন্যুতে। আশা করি, সেখানকার উইকেটে আমাদের মানানসই হবে। এখন আগামীতেই মনোযোগ দিতে হবে।

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশ ট্যুর অব ওয়েস্ট ইন্ডিজ-২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter