ঈদ শপিংয়ে ই-কমার্স

  যুগান্তর ডেস্ক    ৩১ মে ২০১৯, ২১:১৪ | অনলাইন সংস্করণ

দারাজ

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ই-কমার্স শপিং ট্রেন্ডের ইতিহাসে একটি নতুন যুগের সূচনা করেছে বাংলাদেশ। এটি উভয় ভোক্তা এবং ব্যবসায়ীদের জন্য একটি বিশাল সুযোগ তৈরি করেছে।

আমরা সবসময়ই দেখি ঈদের বাজার মানেই ভিড়-ভাট্টা, এর মাঝে খুব সহজেই ক্রেতাদের স্বস্তির ব্যবস্থা করছে অনলাইন শপিং।

আজকাল সময় ও শক্তি বাঁচাতে সবচেয়ে সহজ উপায় হিসেবে ক্রেতারা অনলাইন শপিংকেই বেশি প্রাধান্য দিচ্ছে।

সর্বোপরি বলা চলে যে অনলাইন শপিং ডিজিটাল ব্যবস্থার সুবিধাগ্রহণে মানুষকে আগ্রহী করে তুলছে এবং ডিজিটাল বাংলাদেশ গঠনেও কার্যকর ভূমিকা রাখছে।

দেশের অন্যতম বড় অনলাইন মার্কেট প্লেস দারাজ গত ৫ বছর ধরে বাংলাদেশে বিশ্বস্ততার সঙ্গে ক্রেতাদের সেবা প্রদান করে যাচ্ছে।

প্রতিটি ক্যাম্পেইনের মতো ঈদ ক্যাম্পেইন উপলক্ষে দারাজ ক্রেতাদের জন্য নিয়ে এসেছে আকর্ষণীয় সব অফার, যার মাধ্যমে তারা স্মার্টফোন, এয়ার কন্ডিশনার, টেলিভিশন, ফ্যাশন আইটেমসহ নানা ধরনের আইটেম কিনতে পারছেন খুব সহজেই।

ঝামেলামুক্ত কেনাকাটার পাশাপাশি ক্রেতারা বিভিন্ন ধরনের ভাউচার এবং ব্যাংক ডিসকাউন্টের মাধ্যমেও আকর্ষণীয় মূল্যে পণ্য ক্রয় করতে পারছেন, যা তাদের মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে।

এ ছাড়াও এই ক্যাম্পেইনে থাকছে মজাদার গেমস, যার মাধ্যমে সর্বোচ্চ স্কোর করে ক্রেতারা জিতে নিতে পারেন আকর্ষণীয় পুরস্কার। পাশাপাশি থাকছে বিভিন্ন পণ্যের ওপর ফ্রি ডেলিভারি ও শেইক শেইকের অভিনব ফিচার উপভোগ করার সুযোগ।

এই বিষয়ে দারাজের হেড অফ মার্কেটিং সৈয়দ আহমদ আবরার হাসনাইন বলেন, দারাজের পক্ষ থেকে আমি আমাদের সব গ্রাহকদের জানাচ্ছি পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা। দারাজের সঙ্গে যারা এতদিন দিন ধরে রয়েছেন, তাদের প্রতি আমরা আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞ। আপনাদের অবাধ ভালোবাসা ও সমর্থনের কারণেই আমাদের ঈদের ক্যাম্পেইনটি বিশাল সাফল্য লাভ করেছে।

তিনি বলেন, দারাজের সব কর্মচারী, রাইডার ও সেলাররা এই প্রচারণায় অক্লান্তভাবে কাজ করেছে যাতে আমাদের পণ্যগুলো সময়মতো পৌঁছে যেতে পারে। যারা ঈদের আগে তাদের পণ্যগ্রহণ করেননি তাদের কাছে আমরা ক্ষমাপ্রার্থী। আশা করছি ঈদের পরপরই আপনারা আপনাদের ডেলিভারি পেয়ে যাবেন। দারাজের সঙ্গে কেনাকাটা করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×