ইনস্টাগ্রামে রতন টাটার ফলোয়ার সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়েছে
jugantor
ইনস্টাগ্রামে রতন টাটার ফলোয়ার সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়েছে

  যুগান্তর ডেস্ক  

১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:২০:২৯  |  অনলাইন সংস্করণ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে মঙ্গলবার ভারতের বিখ্যাত প্রতিষ্ঠান টাটা সন্সের চেয়ারম্যান রতন টাটার ফলোয়ার সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়েছে।

শিশুদের মতো ফ্লোরে বসে পোস্ট করা একটি ছবিতে তিনি লেখেন– বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে থাকা এই সামাজিক পরিবারের একজন আমি।  আপনারা আমাকে সাদরে বরণ করেছেন। আমি খুশি। সবাইকে ধন্যবাদ। খবর এনডিটিভির।

রতন টাটার এই পোস্ট ইনস্টাগ্রাম লাইক পেয়েছে ৩ লাখ ৭০ হাজার। তার এই ছবি দেখে এক নারী তাকে ‘ছোটু' নামে আখ্যায়িত করেছেন।

‘ছোটু' নামেই খুশি টাটা সন্সের চেয়ারম্যান ৮২ বছরের রতন টাটা।  তবে অনেকেই এ রকম নাম দেয়ার ফলে বিরূপ প্রতিক্রিয়াও ব্যক্ত করেন।

এক ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারী লেখেন– মন্তব্যটি অত্যন্ত 'অসম্মানজনক' এবং 'লজ্জাজনক'।  প্রত্যেকেরই সম্মান রয়েছে। প্রত্যেককে তার প্রাপ্য সম্মান দেয়া অবশ্যই উচিত।

যদিও রতন টাটা নিজেই বলেন, তিনি এই বিশেষ নামে একটুও আহত বা অপমানিত হননি। বরং মজা পেয়েছেন। ভালো লেগেছে সবার আন্তরিকতায়। এই বয়সেও তিনি সবার ছোটু।

টাটা সন্সের কর্ণধার আরও বলেন, আমাদের সবার মধ্যেই একজন করে শিশু লুকিয়ে রয়েছে। দয়া করে এই নারীর সঙ্গে সম্মানজনক আচরণ করুন। লেখার শেষে তিনি একটি স্মাইলিও দেন।

ইনস্টাগ্রামে রতন টাটার ফলোয়ার সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়েছে

 যুগান্তর ডেস্ক 
১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:২০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে মঙ্গলবার ভারতের বিখ্যাত প্রতিষ্ঠান টাটা সন্সের চেয়ারম্যান রতন টাটার ফলোয়ার সংখ্যা ১০ লাখ ছাড়িয়েছে।

শিশুদের মতো ফ্লোরে বসে পোস্ট করা একটি ছবিতে তিনি লেখেন– বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে থাকা এই সামাজিক পরিবারের একজন আমি। আপনারা আমাকে সাদরে বরণ করেছেন। আমি খুশি। সবাইকে ধন্যবাদ। খবর এনডিটিভির।

রতন টাটার এই পোস্ট ইনস্টাগ্রাম লাইক পেয়েছে ৩ লাখ ৭০ হাজার। তার এই ছবি দেখে এক নারী তাকে ‘ছোটু' নামে আখ্যায়িত করেছেন।

‘ছোটু' নামেই খুশি টাটা সন্সের চেয়ারম্যান ৮২ বছরের রতন টাটা। তবে অনেকেই এ রকম নাম দেয়ার ফলে বিরূপ প্রতিক্রিয়াও ব্যক্ত করেন।

এক ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারী লেখেন– মন্তব্যটি অত্যন্ত 'অসম্মানজনক' এবং 'লজ্জাজনক'। প্রত্যেকেরই সম্মান রয়েছে। প্রত্যেককে তার প্রাপ্য সম্মান দেয়া অবশ্যই উচিত।

যদিও রতন টাটা নিজেই বলেন, তিনি এই বিশেষ নামে একটুও আহত বা অপমানিত হননি। বরং মজা পেয়েছেন। ভালো লেগেছে সবার আন্তরিকতায়। এই বয়সেও তিনি সবার ছোটু।

টাটা সন্সের কর্ণধার আরও বলেন, আমাদের সবার মধ্যেই একজন করে শিশু লুকিয়ে রয়েছে। দয়া করে এই নারীর সঙ্গে সম্মানজনক আচরণ করুন। লেখার শেষে তিনি একটি স্মাইলিও দেন।