৭ ফেব্রুয়ারি মাল্টিপ্লানে আইসিটি ফেয়ার
jugantor
৭ ফেব্রুয়ারি মাল্টিপ্লানে আইসিটি ফেয়ার

   

২২ জানুয়ারি ২০১৮, ১৭:৩৮:৪৫  |  অনলাইন সংস্করণ

আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে পাঁচ দিন ব্যাপী ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ শুরু হচ্ছে ঢাকার এলিফ্যান্ট রোডের কম্পিউটার সিটি সেন্টারে (মাল্টিপ্ল্যান সেন্টার)। নবমবারের মতো আয়োজিত এ কম্পিউটার মেলার স্লোগান হচ্ছে ‘ডিজিটাল লিটারেসি ফর এভরিওয়ান’।

এ উপলক্ষে আজ সোমবার কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির কার্যালয়ে মেলার লোগো উন্মোচন ও সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে বক্তব্য রাখেন এ সমিতির সভাপতি ও ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ এর আহবায়ক তৌফিক এহেসান।

সংবাদ সম্মেলন শেষে সদস্যদের সঙ্গে নিয়ে মেলার লোগো উন্মোচন করা হয়। এবারে মেলায় প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। তবে স্কুল শিক্ষার্থীরা বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ করতে পারবেন। সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির অন্যান্য কর্মকর্তারা। এ ছাড়াও সংবাদ সম্মেলনে মেলার আয়োজক কমিটির সকল সদস্য ও দেশের খ্যাতিমান আইসিটি ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে তৌফিক এহেসান বলেন, ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ারের মাধ্যমে মানুষের কাছে সহজে ডিভাইস তুলে দেওয়ার পাশাপাশি নানা ছাড় ও উপহার রাখা হয়েছে।  প্রতিবারের চেয়ে এবার আরও বড় পরিসরে ও জাঁকজমকভাবে মেলা আয়োজন করা হচ্ছে। দেশের সর্বস্তরের মানুষের মাঝে কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তির ব্যাপক ব্যবহার এবং এর সুফল ছড়িয়ে দিয়ে, বহুল প্রত্যাশিত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যেই নিয়মিত এ মেলার আয়োজন করা হয়।

তিনি আরও বলেন, দেশে ডিজিটাল লিটারেসির কোনো বিকল্প নেই। তাই সবার হাতে ডিভাইস পৌঁছাতে হবে। এ লক্ষেই ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার আয়োজন করা হয়। এ বছর তাই সেøাগান রাখা হয়েছে ডিজিটাল লিটারেসি ফর এভরিওয়ান। তৌফিক এহেসান জানান, এ মেলায় বাংলাদেশের শীর্য আইসিটি পণ আমদানিকারক ও ব্যবসায়ীদের বিশ্বের মানসম্পন্ন ব্র্যান্ডের লেটেস্ট প্রযুক্তি প্রদর্শন করা হবে।  মেলায় আসা বিভিন্ন প্রযুক্তি পণ্যে থাকবে বিশেষ ছাড় ও আকর্যনীয় উপহার। আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি শুরু হয়ে মেলা চলবে ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত।

পাঁচ দিন ব্যাপী এ মেলায় অংশগ্রহণ করবে দেশের আইসিটি মার্কেটের ৬৫০টি আইটি প্রতিষ্ঠান। মেলায় বিশেষ আয়োজন হিসেবে থাকছে শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, সেলিব্রিটিদের মেলা পরিদর্শন, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ ও মেলা পরিদর্শনের ব্যবস্থাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এ ছাড়াও মেলা চলাকালীন প্রবেশ টিকেটের উপর র‌্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে।

৭ ফেব্রুয়ারি মাল্টিপ্লানে আইসিটি ফেয়ার

  
২২ জানুয়ারি ২০১৮, ০৫:৩৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে পাঁচ দিন ব্যাপী ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ শুরু হচ্ছে ঢাকার এলিফ্যান্ট রোডের কম্পিউটার সিটি সেন্টারে (মাল্টিপ্ল্যান সেন্টার)। নবমবারের মতো আয়োজিত এ কম্পিউটার মেলার স্লোগান হচ্ছে ‘ডিজিটাল লিটারেসি ফর এভরিওয়ান’।

এ উপলক্ষে আজ সোমবার কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির কার্যালয়ে মেলার লোগো উন্মোচন ও সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে বক্তব্য রাখেন এ সমিতির সভাপতি ও ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ এর আহবায়ক তৌফিক এহেসান।

সংবাদ সম্মেলন শেষে সদস্যদের সঙ্গে নিয়ে মেলার লোগো উন্মোচন করা হয়। এবারে মেলায় প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। তবে স্কুল শিক্ষার্থীরা বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ করতে পারবেন। সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির অন্যান্য কর্মকর্তারা। এ ছাড়াও সংবাদ সম্মেলনে মেলার আয়োজক কমিটির সকল সদস্য ও দেশের খ্যাতিমান আইসিটি ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে তৌফিক এহেসান বলেন, ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ারের মাধ্যমে মানুষের কাছে সহজে ডিভাইস তুলে দেওয়ার পাশাপাশি নানা ছাড় ও উপহার রাখা হয়েছে। প্রতিবারের চেয়ে এবার আরও বড় পরিসরে ও জাঁকজমকভাবে মেলা আয়োজন করা হচ্ছে। দেশের সর্বস্তরের মানুষের মাঝে কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তির ব্যাপক ব্যবহার এবং এর সুফল ছড়িয়ে দিয়ে, বহুল প্রত্যাশিত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যেই নিয়মিত এ মেলার আয়োজন করা হয়।

তিনি আরও বলেন, দেশে ডিজিটাল লিটারেসির কোনো বিকল্প নেই। তাই সবার হাতে ডিভাইস পৌঁছাতে হবে। এ লক্ষেই ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার আয়োজন করা হয়। এ বছর তাই সেøাগান রাখা হয়েছে ডিজিটাল লিটারেসি ফর এভরিওয়ান।তৌফিক এহেসান জানান, এ মেলায় বাংলাদেশের শীর্য আইসিটি পণ আমদানিকারক ও ব্যবসায়ীদের বিশ্বের মানসম্পন্ন ব্র্যান্ডের লেটেস্ট প্রযুক্তি প্রদর্শন করা হবে। মেলায় আসা বিভিন্ন প্রযুক্তি পণ্যে থাকবে বিশেষ ছাড় ও আকর্যনীয় উপহার। আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি শুরু হয়ে মেলা চলবে ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত।

পাঁচ দিন ব্যাপী এ মেলায় অংশগ্রহণ করবে দেশের আইসিটি মার্কেটের ৬৫০টি আইটি প্রতিষ্ঠান। মেলায় বিশেষ আয়োজন হিসেবে থাকছে শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, সেলিব্রিটিদের মেলা পরিদর্শন, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে মেলায় প্রবেশ ও মেলা পরিদর্শনের ব্যবস্থাসহ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এ ছাড়াও মেলা চলাকালীন প্রবেশ টিকেটের উপর র‌্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে।