চর্চা না থাকলে গান গাওয়া খুব কঠিন
jugantor
হ্যালো...
চর্চা না থাকলে গান গাওয়া খুব কঠিন

  সোহেল আহসান  

০৮ জুন ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ছোটবেলা থেকেই গানের জগতে বিচরণ করছেন আঁখি আলমগীর। স্টেজ শোয়ের অন্যতম জনপ্রিয় একজন শিল্পী। জনপ্রিয়তা ধরে রেখে এখনো গান গেয়ে যাচ্ছেন নিয়মিত। করোনাকালেও নতুন গানে কণ্ঠ দিয়ে যাচ্ছেন এ শিল্পী। গান এবং অন্যান্য বিষয় নিয়ে আজকের ‘হ্যালো...’ বিভাগে কথা বলেছেন তিনি।

* এখন কী নিয়ে ব্যস্ত আছেন?

** অনেকটা অবসরে দিন কাটাচ্ছি। কারণ করোনাভাইরাসের কারণে স্টেজ অনুষ্ঠান বন্ধ। অডিওর কাজের গতিও কমে গেছে। সব মিলিয়ে বড় এক সংকট তৈরি হয়েছে সংগীতাঙ্গনে। পরিস্থিতি ভালো হলেই শ্রোতাদের সামনে আসব। গান যেহেতু আমার পেশা। তাই এ কাজটি নিয়েই এগিয়ে যেতে চাই।

* করোনার কারণে কেমন ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন?

** ক্ষতি তো দু’ভাবেই হচ্ছে। মানসিক এবং আর্থিক। কারোরই মন ভালো নেই করোনার কারণে। বিষণ্নতা গ্রাস করেছে সবাইকে। একটা মৃত্যুভয় তাড়িয়ে বেড়াচ্ছে সবাইকে। তাই মনের মধ্যে একটা শঙ্কা কাজ করছে দীর্ঘ সময় ধরেই। যেহেতু স্টেজ অনুষ্ঠান আমাদের উপার্জনের অন্যতম একটি মাধ্যম, সেটি বন্ধ থাকায় আর্থিকভাবে শুধু আমি নই, আমার মতো সংগীতাঙ্গনের অনেকেই সেটি মোকাবিলা করছেন।

* এর মধ্যে আপনার সংগীতচর্চা কেমন চলছে?

** সব সময়ের মতো বাসায় গানের চর্চা নিয়মিত করে যাচ্ছি। কারণ চর্চা না থাকলে গান গাওয়া খুব কঠিন হয়। এ কাজটিই শুধু করতে পারছি। নতুন কিছু গান নিয়ে কাজ করার চেষ্টা করছি। কিন্তু করোনার কারণে অনেক পরিকল্পনা বাতিল করতে হচ্ছে।

* আপনার ইউটিউব চ্যানেলের কর্মকাণ্ড কেমন চলছে?

** এখন পর্যন্ত অল্প কিছু গান প্রকাশ করেছি এখানে। সম্প্রতি আমার গাওয়া পুরোনো একটি গান ‘জানি আবারও’ নতুন করে কণ্ঠ দিয়েছি। এটি গত সপ্তাহে ভিডিওসহ প্রকাশ করেছি। এ চ্যানেলে শুধু আমার গাওয়া গানই প্রকাশ করব। গান ছাড়া নিজের তৈরি করা কিছু কনটেন্টও প্রকাশ করার ইচ্ছা আছে।

* নতুন কোনো গান প্রকাশ করার পরিকল্পনা আছে?

** কিছুদিন আগে তিনটি নতুন গানে কণ্ঠ দিয়েছি। সেগুলোর সব কাজ শেষ। সুন্দর একটি সময় দেখে গানগুলো প্রকাশ হবে। তবে এখনই বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করছি না। এটুকু বলতে পারি, তিনটি গানই শ্রোতাদের ভালো লাগবে।

হ্যালো...

চর্চা না থাকলে গান গাওয়া খুব কঠিন

 সোহেল আহসান 
০৮ জুন ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ছোটবেলা থেকেই গানের জগতে বিচরণ করছেন আঁখি আলমগীর। স্টেজ শোয়ের অন্যতম জনপ্রিয় একজন শিল্পী। জনপ্রিয়তা ধরে রেখে এখনো গান গেয়ে যাচ্ছেন নিয়মিত। করোনাকালেও নতুন গানে কণ্ঠ দিয়ে যাচ্ছেন এ শিল্পী। গান এবং অন্যান্য বিষয় নিয়ে আজকের ‘হ্যালো...’ বিভাগে কথা বলেছেন তিনি।

* এখন কী নিয়ে ব্যস্ত আছেন?

** অনেকটা অবসরে দিন কাটাচ্ছি। কারণ করোনাভাইরাসের কারণে স্টেজ অনুষ্ঠান বন্ধ। অডিওর কাজের গতিও কমে গেছে। সব মিলিয়ে বড় এক সংকট তৈরি হয়েছে সংগীতাঙ্গনে। পরিস্থিতি ভালো হলেই শ্রোতাদের সামনে আসব। গান যেহেতু আমার পেশা। তাই এ কাজটি নিয়েই এগিয়ে যেতে চাই।

* করোনার কারণে কেমন ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন?

** ক্ষতি তো দু’ভাবেই হচ্ছে। মানসিক এবং আর্থিক। কারোরই মন ভালো নেই করোনার কারণে। বিষণ্নতা গ্রাস করেছে সবাইকে। একটা মৃত্যুভয় তাড়িয়ে বেড়াচ্ছে সবাইকে। তাই মনের মধ্যে একটা শঙ্কা কাজ করছে দীর্ঘ সময় ধরেই। যেহেতু স্টেজ অনুষ্ঠান আমাদের উপার্জনের অন্যতম একটি মাধ্যম, সেটি বন্ধ থাকায় আর্থিকভাবে শুধু আমি নই, আমার মতো সংগীতাঙ্গনের অনেকেই সেটি মোকাবিলা করছেন।

* এর মধ্যে আপনার সংগীতচর্চা কেমন চলছে?

** সব সময়ের মতো বাসায় গানের চর্চা নিয়মিত করে যাচ্ছি। কারণ চর্চা না থাকলে গান গাওয়া খুব কঠিন হয়। এ কাজটিই শুধু করতে পারছি। নতুন কিছু গান নিয়ে কাজ করার চেষ্টা করছি। কিন্তু করোনার কারণে অনেক পরিকল্পনা বাতিল করতে হচ্ছে।

* আপনার ইউটিউব চ্যানেলের কর্মকাণ্ড কেমন চলছে?

** এখন পর্যন্ত অল্প কিছু গান প্রকাশ করেছি এখানে। সম্প্রতি আমার গাওয়া পুরোনো একটি গান ‘জানি আবারও’ নতুন করে কণ্ঠ দিয়েছি। এটি গত সপ্তাহে ভিডিওসহ প্রকাশ করেছি। এ চ্যানেলে শুধু আমার গাওয়া গানই প্রকাশ করব। গান ছাড়া নিজের তৈরি করা কিছু কনটেন্টও প্রকাশ করার ইচ্ছা আছে।

* নতুন কোনো গান প্রকাশ করার পরিকল্পনা আছে?

** কিছুদিন আগে তিনটি নতুন গানে কণ্ঠ দিয়েছি। সেগুলোর সব কাজ শেষ। সুন্দর একটি সময় দেখে গানগুলো প্রকাশ হবে। তবে এখনই বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করছি না। এটুকু বলতে পারি, তিনটি গানই শ্রোতাদের ভালো লাগবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন