হবিগঞ্জে বোরোর বাম্পার ফলন শ্রমিক সংকটে হতাশ কৃষক

  হবিগঞ্জ প্রতিনিধি ২৬ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বাম্পার ফলন হওয়ায় হবিগঞ্জ জেলার হাওরগুলোতে বোরো ধানের সোনালি ঝিলিক। বোরো ধানের জমিতে শুধু পাকা ধান আর আধা পাকা ধান। ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে নতুন ধান কাটা। তবে ধান ঘরে তুলতে বাধ সাধছে শ্রমিক সংকট। জমিগুলোর বেশ ক্ষতি করেছে কিছুদিন আগে জেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টি। শ্রমিক সংকটের কারণে কৃষকদের ধান ঘরে তোলার স্বপ্ন পরিণত হতে পারে দুঃস্বপ্নে। যে ক’জন শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছে তাদের শ্রমের মূল্যও ধানের দামের চেয়ে বেশি দিতে হচ্ছে। সরকার মূল্য নির্ধারণ করে দিলেও বাস্তবে ধানের দাম তার অর্ধেক। হবিগঞ্জের বিভিন্ন হাওর সরেজমিন দেখা যায়, এবার প্রকৃতি যেন অকৃপণভাবে দু’হাত ভরে দান করেছে কৃষকদের। বাতাসে দোল খাচ্ছে সোনালি রাঙা পাকা ধান আর ধান। ধানের মৌ মৌ গন্ধে কষ্টের সেই দিনগুলোর কথা ভুলে আবারও নতুন স্বপ্ন দেখছেন কৃষকরা। ধান কাটার উৎসবে মেতে উঠেছেন তারা। সরকারিভাবে প্রণোদনা সহায়তা প্রদান, মৌসুমের শুরুতেই বৃষ্টি ও ধানের মূল্য কৃষকদের মনের মতো থাকায় আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে গেছে বলে দাবি কৃষি বিভাগের।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর সূত্রে জানা যায়, জেলার ৮ উপজেলায় এ বছর এক লাখ ১৮ হাজার ১৯৭ হেক্টর জমিতে হাইব্রিড, উফশী ও স্থানীয় জাতের বোরো ধান চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়। কিন্তু তা ছাড়িয়ে এক লাখ ২১ হাজার ৫শ’ হেক্টর জমিতে বোরো চাষ করা হয়। লক্ষ্যমাত্রা থেকে তিন হাজার ৩০৩ হেক্টর বেশি জমিতে এবার আবাদ হয়েছে। ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে চার লাখ ৬৬ হাজার ৬৭৮ টন। কিন্তু চার লাখ ৮৮ হাজার ৪৩০ টন ধান উৎপাদন হবে ধারণা করা হচ্ছে, যা লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ২১ হাজার ৭৫২ টন বেশি।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ মোহাম্মদ আলী বলেন, চলতি বোরো মৌসুমে ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। তিনি আরও বলেন, জেলায় ধান কাটার শ্রমিক সংকট রয়েছে। তবু আশা করছি কোনো বড় ধরনের প্রাকৃতিক দুর্যোগের আগেই কৃষকরা ফসল ঘরে তুলতে পারবে। ধান ঘরে তোলার আগ পর্যন্ত ৮ উপজেলার কৃষকদের সঙ্গে থাকবেন তারা।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×