নবীগঞ্জে নদীতে আরও এক গার্মেন্ট কর্মীর লাশ

  নবীগঞ্জ প্রতিনিধি ০৪ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

নবীগঞ্জ উপজেলার দু’দিনের ব্যবধানে আমড়াখাই গ্রামের উত্তর পাশে বিবিয়ানা নদী থেকে ১০ দিন নিখোঁজ থাকার পর ভাসমান অবস্থায় জীবন দাশ (২৫) নামে আরও এক গার্মেন্ট কর্মীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রোববার সন্ধ্যায় নবীগঞ্জ থানার একদল পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। নিহত জীবন দাশ দিরাই উপজেলার কুলঞ্জ ইউপির কুলঞ্জ গ্রামের জয় কৃষ্ণ দাশের ছেলে। সন্ধ্যায় লাশ শনাক্তের পর ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ মর্গে প্রেরণ করা হয়। এর আগে শুক্রবার পিংলি নদী থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় রুহেল মিয়া (২৫) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সুনামগঞ্জ জেলার দিরাই উপজেলার কুলঞ্জ ইউপির কুলঞ্জ গ্রামের জয় কৃষ্ণ দাশের ছেলে জীবন দাশ (২৫) ঢাকার একটি গার্মেন্টে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করত। ১২ দিন আগে ছুটি নিয়ে বাড়িতে আসে। শুক্রবার বিকালে বন্ধুদের সঙ্গে বাড়ি থেকে বেরিয়ে আর ফিরে আসেনি। পরদিন জীবন দাশের বাবা দিরাই থানায় এ বিষয়ে সাধারণ ডায়েরি করেন। নিখোঁজের ১০ দিন পর নবীগঞ্জের বিবিয়ানা নদীতে জীবন দাশের মৃত দেহ ভেসে উঠলে স্থানীয় লোকজন পুলিশে খবর দেন। নবীগঞ্জ থানার একদল পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করেন।

সূত্র জানায়, ঘটনার দিন জীবন দাশের বন্ধু রাজন তাকে বাড়ি থেকে বের করে নিয়ে আসে। পরের দিন জীবন দাশের মায়ের কাছে জীবনের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ও ম্যানিবেগ দিয়ে আসে রাজন। এর পর থেকে রাজনও পলাতক রয়েছে। ওই রাজন একটি মামলার ওয়ান্টেভুক্ত আসামি বলেও জানিয়েছে পুলিশ। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম দস্তগীর আহমেদ জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা যাচ্ছে তাকে হত্যা করে লাশ নদীতে ফেলে দেয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন

'কোভিড-১৯' সর্বশেষ আপডেট

# আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ৫১ ২৫
বিশ্ব ৮,০২,৯৪১১,৭২,৩১৯৩৯,০২২
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

 
×