সিরাজগঞ্জে একদিনে সাত বাল্যবিয়ে বন্ধ

প্রকাশ : ০৯ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি

একই দিনে ৭টি বাল্যবিয়ে বন্ধ করে রেকর্ড গড়লেন সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আনিসুর রহমান। শুক্রবার দুপুর থেকে গভীর রাত পর্যন্ত ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান চালিয়ে উপজেলার পোটল ছোনগাছা, ফুলবয়ড়া, রূপের বেড়, পদমপাল, ধুকুরিয়া, কড্ডা কৃষ্ণপুর ও কুড়িপাড়া গ্রামে এসব বাল্যবিয়ে বন্ধ করেন তিনি।

জানা যায়, শুক্রবার দুপুরে ছোনগাছা ইউনিয়নের পোটল ছোনগাছা গ্রামের আবদুল জলিলের মেয়ে ও স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্রী শারমিন সুলতানার (১৪) সঙ্গে কামারখন্দ উপজেলার চালা গ্রামের আছাব উদ্দিনের ছেলে রিপন হোসেনের বিয়ের আয়োজন চলছিল।

সেখানে অভিযান চালিয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ এবং বর রিপন হোসেনকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। বিকাল ৫টার দিকে রতনকান্দি ইউনিয়নের ফুলবয়ড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোখলেছুর রহমানের মেয়ে ও দশম শ্রেণীর ছাত্রী মহুয়া খাতুনের (১৪) সঙ্গে শ্যামপুর গ্রামের আবদুল গণির ছেলে রায়হান আলীর (২৭) বিয়ে বন্ধ করা হয়। এ সময় বর রায়হান আলীকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। সন্ধ্যা ৬টার দিকে একই ইউনিয়নের রূপের বেড় গ্রামে অভিযান চালিয়ে গোলাম রব্বানীর মেয়ে সুবর্ণা খাতুন মীমের (১৪) সঙ্গে কাজিপুর উপজেলার বাঐখোলা গ্রামের শামসুল হকের ছেলে আলমগীর হোসেনের (২৪) বিয়ে বন্ধ করা হয়।

এ সময় কনের বাবা ও বরকে পাঁচ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। রাত ৮টার দিকে বহুলী ইউনিয়নের পদমপাল এলাকায় অভিযান চালিয়ে মফিজ উদ্দিনের মেয়ে তামান্না খাতুনের (১৫) সঙ্গে পৌর এলাকার সয়াধানগড়া মহল্লার জাহাঙ্গীর হোসেনের ছেলে জাহিদুল ইসলামের (২২) বিয়ে বন্ধ করে কনের বাবাকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। রাত সাড়ে ৯টার দিকে শিয়ালকোল ইউনিয়নের ধুকুরিয়া দক্ষিণপাড়ায় অভিযান চালিয়ে ফেরদৌস শেখের মেয়ে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী ফারজানা খাতুনের (১৩) সঙ্গে কামারখন্দ উপজেলার মধ্যভদ্রঘাটের সুরুজ্জামানের ছেলে শামছুল আলমের (২২) বিয়ে বন্ধ করে কনের বাবাকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

রাত ১০টার দিকে সয়দাবাদ ইউনিয়নের কড্ডা কৃষ্ণপুর ভূইয়াপাড়ায় অভিযান চালিয়ে মৃত নায়েব আলী শেখের মেয়ে হোসনেয়ারা খাতুনের (১৭) সঙ্গে একই গ্রামের মৃত মোস্তফার ছেলে হাসান আলীর (১৬) বাল্যবিয়ে বন্ধ করা হয়। এ সময় বরের ভাই ফিরোজ আহমেদ ও কনের ভাই ফুলার হোসেনকে পাঁচ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। সবশেষে রাত সাড়ে ১১টার দিকে রতনকান্দি ইউনিয়নের কুড়িপাড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে বাবলু মণ্ডলের মেয়ে ও স্থানীয় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী মিম খাতুনের (১১) সঙ্গে মহিষামুড়া গ্রামের বিশা মিয়ার ছেলে আনিছুর রহমানের (২৫) বিয়ে বন্ধ করা হয়।