ভৈরবে বাল্যবিয়ে ভেঙে দিলেন ইউএনও

  ভৈরব প্রতিনিধি ১৩ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ভৈরবে বাল্যবিয়ে ভেঙে দিলেন ইউএনও। স্থানীয় একটি হাইস্কুলে অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী। তার বাবার নাম বিল্লাল মিয়া। বরের নাম লিমন মিয়া (১৪) এবং বাবার নাম জজ মিয়া। বর-কনে দু’জনের বাড়ি ভৈরব উপজেলার শ্রীনগর গ্রামে। বুধবার দুপুরে এই বাল্যবিবাহ হওয়ার কথা ছিল। সকালে খবর পেয়ে ভৈরব উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইসরাত সাদমীন পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে বাল্যবিয়ে ভেঙে দিলেন।

গতকাল থেকে দু’জনের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা চলছিল দু’জনের বাড়িতে। মঙ্গলবার রাতে বর-কনের হলুদ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়। বুধবার সকাল থেকে বাড়িতে বিয়ের ধূমধাম চলাকালে হঠাৎ পুলিশ নিয়ে কনের বাড়িতে উপস্থিত হন ইউএনও। এ সময় ডাকা হয় বরের অভিভাবককে। খবর শুনে শ্রীনগর ইউপি চেয়ারম্যান সার্জেন্ট আবু তাহের ঘটনাস্থলে আসেন। এরপর ইউএনও উভয় পরিবারের অভিভাবককে বাল্যবিয়ের কুফল সম্পর্কে অবহিত করেন এবং বলেন বাল্যবিয়ে দণ্ডনীয় অপরাধ। পরে দুই পরিবারের অভিভাবকরা তাদের ভুল স্বীকার করে এই বিয়ে হবে না বলে অঙ্গীকার করেন।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×