নাটোরে বাড়ছে হত্যাকাণ্ড জনমনে উদ্বেগ

  যুগান্তর রিপোর্ট, নাটোর ও বড়াইগ্রাম প্রতিনিধি ২৫ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পারিবারিক বিরোধ, রাজনৈতিক কোন্দল, আধিপত্য বিস্তার, মাদকের আগ্রাসন, ছিনতাইসহ নানা কারণে নাটোরে হত্যাকাণ্ডের ঘটনা দিন দিন বেড়েই চলছে। চলতি বছরে জেলায় ২৫টি খুনের ঘটনা ঘটেছে। যার মধ্যে শুধু জুন মাসেই সাতটি খুনের ঘটনা ঘটে। এছাড়া সম্প্রতি তিনদিনের ব্যবধানে চারটি খুনের ঘটনায় চরম উদ্বেগ আর উৎকণ্ঠায় রয়েছে নাটোরবাসী। হত্যাকাণ্ড রোধে সামাজিক সচেতনতা বাড়ানোর ওপর তাগিদ দিচ্ছেন সচেতনমহল।

জানা যায়, নাটোরের বড়াইগ্রামসহ সাতটি উপজেলায় প্রায় প্রতি মাসেই নানা কারণে হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আর বেশির ভাগ হত্যাকাণ্ডগুলো সংগঠিত হয় প্রকাশ্যেই।

১২ জুন লালপুরে আলোক বাগচি নামের একজনকে গুলি করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। এরপর ১৩ জুন গুরুদাসপুরে হত্যা মামলার প্রধান আসামি জালাল উদ্দিনকে কুপিয়ে এবং হাত-পা কেটে হত্যা করে প্রতিপক্ষ। আর ১৪ জুন নলডাঙ্গায় আমেনা খাতুন নামে স্বামী পরিত্যক্ত এক নারীকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয় এবং একই দিনে সিংড়ায় ১২ বছর বয়সী হেদায়েত আলীকে কুপিয়ে হত্যা করে তার সৎভাই। এছাড়া চলতি বছরের ছয় মাসে ২৫টি হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

জেলা পুলিশের তথ্য মতে, জেলায় ২০১৬ সালে ১৮টি হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হয়। আর ২০১৭ সালে জেলায় একই ঘটনায় মামলা হয়েছে ৪২টি। ২০১৮ সালে হত্যার সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫২ তে।

নাটোরের দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আবদুর রাজ্জাক জানান, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির যে অবনতি তা এখনই রোধ করা দরকার। সেই সঙ্গে সামাজিক যে অবক্ষয় সৃষ্টি হয়েছে তা সম্মিলিতভাবে মোকাবেলা করা প্রয়োজন।

নাটোর জজকোর্টের আইনজীবী রত্না আহমেদ জানান, অপরাধীরা আইনের আওতায় এলে পুনরায় তারা অপরাধ করতে সাহস পাবে না।

খুনের মামলাগুলোর অগ্রগতি ভালো উল্লেখ করে নাটোরের পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন বলেন, নাটোরের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি বেশ চমৎকার। আর যে দুটো-তিনটা খুনের কথা বলা হচ্ছে, তা একেকটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা। আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর আছে। তিনি আরও বলেন, খুনের মাত্রা যেটা বলা হচ্ছে তা গত বছরের প্রথম ছয় মাসে যতগুলো খুন হয়েছে, এ বছরের প্রথম ছয়মাসেও ততগুলো খুন হয়েছে। এটা নিয়ে কোনোভাবেই বলা যাবে না আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×