পত্নীতলায় মেলার নামে অশ্লীলতার অভিযোগ

  পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি ২৫ জুন ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার আমাইড় ইউনিয়নের ত্রিমোহনীতে মেলার নামে চলছে অশ্লীল নৃত্য ও জুয়ার আসর। কোনো অনুমতি ছাড়াই স্থানীয় প্রশাসনকে ম্যানেজ করে চলছে এ অশ্লীল নৃত্য ও জুয়ার রমরমা ব্যবসা। এ ব্যাপারে প্রশাসন নীরব।

সরেজমিন রোববার রাতে মেলায় গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার ত্রি-মহোনী ব্রিজ সংলগ্ন মাঠে ১০০ থেকে ৫০০ টাকা টিকিটের বিনিময়ে দর্শকদের ভেতরে প্রবেশ করানো হচ্ছে। ভেতরে স্টেজে চলছে কয়েকজন তরুণীর অশ্লীল নৃত্য। এভাবেই প্রতিদিন রাত ১০টা থেকে শুরু হয়ে ভোর পর্যন্ত চলছে এ অশ্লীল নৃত্য। আর স্টেজের পাশেই চলছে মাদক ও জুয়ার আসর। নৃত্য পরিবেশনের মাধ্যমে সাধারণ মানুষকে প্রলুব্ধ করে পাতানো জুয়ার ফাঁদে পকেট কেটে হাতিয়ে নেয়া হচ্ছে লাখ লাখ টাকা। আর এসব অবৈধ কারবারে পাহারা দিচ্ছে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানান, জুয়া ও অশ্লীল নৃত্যের জমজমাট আসর পরিচালনা করছেন রনজিৎ কুমার, ইদ্রিস আলীসহ কয়েকজন জুয়াড়ি। তাদের কারণে এলাকার সাধারণ মানুষ সব কিছু হারিয়ে নিঃস্ব হচ্ছে। যুবক সমাজও ধ্বংসের দিকে যাচ্ছে।

এ বিষয়ে আমাইড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ঈসমাইল হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমার ইউনিয়নের ত্রি-মহোনী মাঠে নিষিদ্ধ অশ্লীল নৃত্য ও রমরমা জুয়ার আসর চালিয়ে আসছেন আয়োজকরা। যা ১৫ দিন অতিবাহিত হচ্ছে। স্থানীয়রা আমাকে একাধিক অভিযোগ দেয়ায় আয়োজকদের নৃত্য, মাদক ও জুয়ার আসর বন্ধ করতে বলেছি। এরপরও তারা শোনেনি।

এ বিষয়ে পত্নীতলা থানার ওসি পরিমল কুমার চক্রবর্তী বলেন, ১৮ জুন থেকে মেলার সব কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এরপরও মেলা চললে আয়োজকদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×