অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কা
jugantor
কোনো প্রতিষ্ঠান মাইকিং করেনি
অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কা

  বান্দরবান প্রতিনিধি  

১৮ জুন ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কা

পাহাড়ে ভারী বৃষ্টিপাত মানেই অজানা আতঙ্ক। অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কায় ঝুঁকিপূর্ণ বসতিগুলোর শতশত পরিবার।

পাহাড় ধসে প্রাণহানি বন্ধে পাহাড়ের পাদদেশে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে বসবাসকারী লোকজনদের নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যেতে বলা হচ্ছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

তবে বুধবার বিকাল পাঁচটায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সরকারি-বেসরকারি কোনো প্রতিষ্ঠান, সংস্থার পক্ষ থেকে মাইকিং করা হয়নি।

মৃত্তিকা সংরক্ষণ কেন্দ্র ও স্থানীয়দের তথ্যমতে, মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে অবিরাম ভারী বর্ষণ অব্যাহত রয়েছে বান্দরবান জেলায়। বুধবার সকাল ৯টা পর্যন্ত চব্বিশ ঘণ্টায় জেলায় ৩৮ মি. মিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

তবে সকালের পর থেকে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ আরও বৃদ্ধি পেয়েছে। অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে সাঙ্গু ও মাতামুহুরী নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

নদী তীরবর্তী ভ্রাম্যমাণ মানুষগুলো নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যাচ্ছে। বৃষ্টিতে সদরের বনরূপা, কালাঘাটা, ইসলামপুর, কাসেমপাড়া, বালাঘাটা, লেমুঝিরি, হাফেজঘোনা এবং বান্দরবান-চট্টগ্রাম, রাঙ্গামাটি ও রুমা, থানচি, রোয়াংছড়ি অভ্যন্তরীণ সড়কগুলোর অনেকস্থানে পাহাড় ধসের ঘটনা ঘটেছে। তবে কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

সদর থানার ওসি শহীদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, টানা বৃষ্টিপাতের কারণে পাহাড় ধসের আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ বসতিগুলো থেকে বসবাসকারীদের নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যেতে বলা হচ্ছে।

কোনো প্রতিষ্ঠান মাইকিং করেনি

অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কা

 বান্দরবান প্রতিনিধি 
১৮ জুন ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ
অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কা
ফাইল ছবি

পাহাড়ে ভারী বৃষ্টিপাত মানেই অজানা আতঙ্ক। অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে পাহাড় ধসের শঙ্কায় ঝুঁকিপূর্ণ বসতিগুলোর শতশত পরিবার।

পাহাড় ধসে প্রাণহানি বন্ধে পাহাড়ের পাদদেশে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে বসবাসকারী লোকজনদের নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যেতে বলা হচ্ছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

তবে বুধবার বিকাল পাঁচটায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সরকারি-বেসরকারি কোনো প্রতিষ্ঠান, সংস্থার পক্ষ থেকে মাইকিং করা হয়নি।

মৃত্তিকা সংরক্ষণ কেন্দ্র ও স্থানীয়দের তথ্যমতে, মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে অবিরাম ভারী বর্ষণ অব্যাহত রয়েছে বান্দরবান জেলায়। বুধবার সকাল ৯টা পর্যন্ত চব্বিশ ঘণ্টায় জেলায় ৩৮ মি. মিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

তবে সকালের পর থেকে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ আরও বৃদ্ধি পেয়েছে। অবিরাম বর্ষণে বান্দরবানে সাঙ্গু ও মাতামুহুরী নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

নদী তীরবর্তী ভ্রাম্যমাণ মানুষগুলো নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যাচ্ছে। বৃষ্টিতে সদরের বনরূপা, কালাঘাটা, ইসলামপুর, কাসেমপাড়া, বালাঘাটা, লেমুঝিরি, হাফেজঘোনা এবং বান্দরবান-চট্টগ্রাম, রাঙ্গামাটি ও রুমা, থানচি, রোয়াংছড়ি অভ্যন্তরীণ সড়কগুলোর অনেকস্থানে পাহাড় ধসের ঘটনা ঘটেছে। তবে কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

সদর থানার ওসি শহীদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, টানা বৃষ্টিপাতের কারণে পাহাড় ধসের আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ বসতিগুলো থেকে বসবাসকারীদের নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যেতে বলা হচ্ছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন