রাঙ্গাবালী-গলাচিপা সড়কে খানাখন্দ চলাচলে ভোগান্তি

  রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ৩১ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কার্পেটিং উঠে গেছে। তাই খানাখন্দে ভরা সড়ক। একটু বৃষ্টি হলেই পানি জমে যায়। এমন অবস্থা রাঙ্গাবালী উপজেলা সদরে প্রবেশের সড়কের। পথযাত্রীরা বলছেন, দীর্ঘদিন সংস্কার না করায় সড়কটি দিয়ে চলাচলে ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন তারা। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতরের (এলজিইডি) উপজেলা কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গহিনখালী নতুন সেতু থেকে কোড়ালিয়া (রাঙ্গাবালী সদর-গলাচিপা সদর) সড়কটির দৈর্ঘ্য ৮ কিলোমিটার। ওই সড়কটির পুরো অংশ ২০১২-১৩ ও ২০১৩-১৪ অর্থবছরে কার্পেটিং করা হয়। ২০১৭ সালে সড়কটিকে সড়ক ও জনপথ অধিদফতরে হস্তান্তর করে এলজিইডি। বৃহস্পতিবার সরেজমিন দেখা গেছে, রাঙ্গাবালী সদর-গলাচিপা সদর সড়কের গহিনখালী নতুন সেতু থেকে কোড়ালিয়া অংশের অধিকাংশ জায়গায় খানাখন্দ। কার্পেটিং উঠে সড়কে অসংখ্য ছোট-বড় গর্ত হয়েছে। বৃষ্টি হলেই গর্তগুলোতে পানি জমে যায়। ফলে যানবাহন ও পথযাত্রী চলাচলে ভোগান্তি বাড়ে। ঈদুল আজহা উপলক্ষে ঢাকা থেকে বৃহস্পতিবার গ্রামের বাড়িতে আসা তিল্লা গ্রামের তাইমুন ইসলাম রায়হান বলেন, ‘তিন-চার বছর আগেও এই সড়কটির বেহাল অবস্থা দেখেছি। এখন এসেও তেমনি দেখছি।’ ওই সড়কের মোটরসাইকেল চালক নাসির উদ্দিন বলেন, ‘বর্ষার মধ্যে এই রাস্তা কাদাপানিতে নাজেহাল হয়ে থাকে। যাত্রী নিয়ে গাড়ি চালাতে খুব কষ্ট হয়।’

ইউএনও মো. মাশফাকুর রহমান বলেন, গুরুত্বপূর্ণ এই সড়কটি সংস্কার প্রয়োজন। পটুয়াখালী-৪ (কলাপাড়া-রাঙ্গাবালী) আসনের এমপি মহিব্বুর রহমান মহিব বলেন, ‘জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কটি সংস্কারের জন্য সড়ক ও জনপথ বিভাগে কথা হয়েছে। দ্রুত মেরামতের জন্য ডিও লেটার দেব।’

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত