বাবুগঞ্জে যুবকের পা ভেঙে দেওয়ায় গ্রেফতার ১
jugantor
বাবুগঞ্জে যুবকের পা ভেঙে দেওয়ায় গ্রেফতার ১

  বাবুগঞ্জ (বরিশাল) প্রতিনিধি  

২৭ জুলাই ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরিশালের বাবুগঞ্জে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষরা সোহাগ হাওলাদার নামে এক যুবককে হত্যার উদ্দেশ্যে পিটিয়ে পা ভেঙে দিয়েছে। এ ঘটনায় বাবুগঞ্জ থানা পুলিশ আনোয়ার হোসেন নামের একজনকে গ্রেফতার করেছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার বেলা ১১টায় উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন এলাকায়। এ ঘটনায় সোহাগের ভাই মো. সজল হাওলাদার বাদী হয়ে তিনজনকে আসামি করে বাবুগঞ্জ থানায় মামলা করেছেন। জানা গেছে, উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়নের রাকুদিয়া গ্রামের সজল হাওলাদারের বাবা আ. হাই হাওলাদারের মৃত্যুর পর প্রতিপক্ষরা তার পৈত্রিক সম্পত্তি জোরপূর্বক দখল করে সীমানা পিলার দেয়। এ নিয়ে রোববার প্রতিপক্ষ সরোয়ার হোসেন, আনোয়ার হোসেন ও খোকন হাওলাদারের সঙ্গে কথা কাটাকাটির এক পর্যায় জমির সীমানা পিলার উপড়ে ফেলা হয়। সোমবার বেলা ১১টায় মো. সোহাগ হাওলাদার দেহেরগতি ইউনিয়ন পরিষদের পূর্বপাশে হানিফ হাওলাদারের ওষুধের ফার্মেসির সামনে বসা ছিলেন। এর জেরে প্রতিপক্ষরা পরিকল্পিতভাবে সোহাগকে হত্যার চেষ্টার উদ্দেশ্যে পেছন থেকে সোহাগের মাথা লক্ষ্য করে লাঠি দিয়ে আঘাত করলে সোহাগ মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এরপর প্রতিপক্ষরা তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে হাত ভেঙে ফেলে।

বাবুগঞ্জে যুবকের পা ভেঙে দেওয়ায় গ্রেফতার ১

 বাবুগঞ্জ (বরিশাল) প্রতিনিধি 
২৭ জুলাই ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

বরিশালের বাবুগঞ্জে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষরা সোহাগ হাওলাদার নামে এক যুবককে হত্যার উদ্দেশ্যে পিটিয়ে পা ভেঙে দিয়েছে। এ ঘটনায় বাবুগঞ্জ থানা পুলিশ আনোয়ার হোসেন নামের একজনকে গ্রেফতার করেছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার বেলা ১১টায় উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন এলাকায়। এ ঘটনায় সোহাগের ভাই মো. সজল হাওলাদার বাদী হয়ে তিনজনকে আসামি করে বাবুগঞ্জ থানায় মামলা করেছেন। জানা গেছে, উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়নের রাকুদিয়া গ্রামের সজল হাওলাদারের বাবা আ. হাই হাওলাদারের মৃত্যুর পর প্রতিপক্ষরা তার পৈত্রিক সম্পত্তি জোরপূর্বক দখল করে সীমানা পিলার দেয়। এ নিয়ে রোববার প্রতিপক্ষ সরোয়ার হোসেন, আনোয়ার হোসেন ও খোকন হাওলাদারের সঙ্গে কথা কাটাকাটির এক পর্যায় জমির সীমানা পিলার উপড়ে ফেলা হয়। সোমবার বেলা ১১টায় মো. সোহাগ হাওলাদার দেহেরগতি ইউনিয়ন পরিষদের পূর্বপাশে হানিফ হাওলাদারের ওষুধের ফার্মেসির সামনে বসা ছিলেন। এর জেরে প্রতিপক্ষরা পরিকল্পিতভাবে সোহাগকে হত্যার চেষ্টার উদ্দেশ্যে পেছন থেকে সোহাগের মাথা লক্ষ্য করে লাঠি দিয়ে আঘাত করলে সোহাগ মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এরপর প্রতিপক্ষরা তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে হাত ভেঙে ফেলে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন