মাদারীপুরে সালিশে ভিকটিমের পরিবারকে এলাকাছাড়া

পালিয়ে এসে থানায় তরুণীর ধর্ষণ মামলা

  টেকেরহাট (মাদারীপুর) প্রতিনিধি ০৪ মে ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

মাদারীপুর সদর উপজেলার উত্তর দুধখালী গ্রামে ধর্ষণের শিকার এক তরুণীকে সালিশের মাধ্যমে ২০ হাজার টাকা জরিমানা দিয়ে ধর্ষিতার পরিবারকে জোরপূর্বক এলাকাছাড়া করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনার ২ দিন পালিয়ে থাকার পর বৃহস্পতিবার বিকালে গোপনে মাদারীপুর সদর থানায় উপস্থিত হয়ে ধর্ষক রাসেল খলিফাকে আসামি করে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে ওই ধর্ষিতা। পুলিশ তাকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য মাদারীপুর হাসপাতালে প্রেরণ করেছে। এদিকে প্রভাবশালীদের ভয়ে আবার অজ্ঞাত স্থানে থাকবে বলে ধর্ষিতা জানিয়েছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, সোমবার রাতে উত্তর দুধখালী গ্রামের হাজাম পরিবারের এক পান দোকানির মেয়েকে (২২) বাড়ি ফাঁকা পেয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে একই গ্রামের জৈনদ্দিন খলিফার ছেলে রাসেল খলিফা (২৮)। ঘটনার পরদিন মঙ্গলবার সকালে ওই নির্যাতিতা তার মায়ের সঙ্গে থানায় মামলা দায়ের করতে যায়। কিন্তু এলাকার প্রভাবশালী একটি মহল থানায় এসে ওই যুবতী ও তার পরিবারকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে জোরপূর্বক এলাকায় নিয়ে যায়। পরে দুপুরে তড়িঘড়ি করে স্থানীয় এক প্রভাবশালীর বাড়িতে সালিশ বৈঠক বসে। সেখানে ধর্ষণকারী রাসেল খলিফাকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। প্রভাবশালী সালিশদাররা জরিমানার টাকা দিয়ে ওই যুবতীকে পরিবারসহ কিছুদিন এলাকা ছেড়ে অন্যত্র থাকার নির্দেশ দেয়। ঘটনার পর থেকে নির্যাতিতা যুবতী ও তার পরিবার অজ্ঞাত স্থানে থাকতে বাধ্য হয়। ২ দিন পালিয়ে থাকার পর বৃহস্পতিবার বিকালে গোপনে মাদারীপুর সদর থানায় উপস্থিত হয়ে ধর্ষক রাসেল খলিফাকে আসামি করে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে ধর্ষিতা। ধর্ষিতা ওই যুবতী বলেছে, ‘রাসেল আমার সর্বনাশ করেছে। ’

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter