মঠবাড়িয়ায় মুচলেকা দিয়েও ছাত্রীর বিয়ে!
jugantor
মঠবাড়িয়ায় মুচলেকা দিয়েও ছাত্রীর বিয়ে!

  মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) প্রতিনিধি  

২৩ অক্টোবর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মঠবাড়িয়ায় প্রশাসনের কাছে মুচলেকা দিয়েও অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীকে বিয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পশ্চিম রাজপাড়া গ্রামের আবদুল খালেক হাওলাদারের ছেলে দেলোয়ার হোসেন লিমনের সঙ্গে বৃহস্পতিবার রাতে ওই ছাত্রীর বিয়ে দেওয়া হয়েছে। এর আগে ওই বাড়িতে প্রশাসনের লোকজন উপস্থিত হলে মুচলেকা দেন বর। পরে প্রশাসনের লোকজন চলে গেলে ওই ছাত্রীকে বিয়ে দেন তার পরিবারের সদস্যরা। জানা গেছে বৃহস্পতিবার জেলা প্রশাসকের নির্দেশে ইউএনও (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মো. বশির আহমেদ উপজেলা মহিলাবিষয়ক কর্মকর্তা মনিকা আক্তারের নেতৃত্বে পুলিশ কনের বাড়িতে উপস্থিত হয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেন।

মঠবাড়িয়ায় মুচলেকা দিয়েও ছাত্রীর বিয়ে!

 মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) প্রতিনিধি 
২৩ অক্টোবর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মঠবাড়িয়ায় প্রশাসনের কাছে মুচলেকা দিয়েও অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীকে বিয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পশ্চিম রাজপাড়া গ্রামের আবদুল খালেক হাওলাদারের ছেলে দেলোয়ার হোসেন লিমনের সঙ্গে বৃহস্পতিবার রাতে ওই ছাত্রীর বিয়ে দেওয়া হয়েছে। এর আগে ওই বাড়িতে প্রশাসনের লোকজন উপস্থিত হলে মুচলেকা দেন বর। পরে প্রশাসনের লোকজন চলে গেলে ওই ছাত্রীকে বিয়ে দেন তার পরিবারের সদস্যরা। জানা গেছে বৃহস্পতিবার জেলা প্রশাসকের নির্দেশে ইউএনও (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মো. বশির আহমেদ উপজেলা মহিলাবিষয়ক কর্মকর্তা মনিকা আক্তারের নেতৃত্বে পুলিশ কনের বাড়িতে উপস্থিত হয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন