বিদ্যুৎস্পৃষ্টে চাচা-ভাতিজাসহ দুই স্থানে ৩ জনের মৃত্যু

প্রকাশ : ২২ মে ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  গাইবান্ধা ও হাটহাজারী প্রতিনিধি

গাইবান্ধা সদর উপজেলার বল্লমঝাড় ইউনিয়নের খামার বল্লমঝাড় গ্রামে সোমবার দুপুরে বৈদ্যুতিক ফ্যান লাগাতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে বেলাল হোসেন নবম শ্রেণীর এক স্কুলছাত্র ও আইজল মিয়া নামের এক কাঠমিস্ত্রি মারা গেছে। বেলাল হোসেন ওই গ্রামের শফিউল ইসলামের ও প্রতিবেশী আইজল মিয়া মৃত আজিম উদ্দিনের ছেলে। আইজল মিয়া ও বেলাল হোসেন সম্পর্কে চাচা-ভাতিজা। বেলাল হোসেন ধানঘড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্র। সে বর্তমানে একটি ইলেকট্রিশিয়ানের দোকানে বিদ্যুতের কাজ শিখছিল। গাইবান্ধা সদর থানার ওসি খান মো. শাহরিয়ার জানান, কয়েকদিন আগে আইজল মিয়া তার বাড়িতে বিদ্যুৎ সংযোগ নেন। সোমবার তিনি বাড়িতে বৈদ্যুতিক ফ্যান লাগানোর জন্য বেলাল হোসেনকে ডেকে নেন। সে ঘরে ফ্যান লাগানোর সময় সেটি বিদ্যুতায়িত হয়ে গেলে বেলাল বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা যায়।

হাটহাজারী : হাটহাজারীতে নির্মাণাধীন ভবনে কাজ করার সময় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে মো. হালিম নামে এক নির্মাণশ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার উপজেলার কুয়াইশ শেখ আমদ সিটি কর্পোরেশন কলেজের পাশে একটি নির্মাণাধীন ভবনে কাজ করার বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন তিনি। নিহত হালিমের গ্রামের বাড়ি পার্শ্ববর্তী ফটিকছড়ি উপজেলায়।