পুরান ঢাকায় অবাধে চলছে লেগুনা

কিশোর চালকরা বেপরোয়া

  কাওসার মাহমুদ ২৩ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পুরান ঢাকার অলিগলিতে অবৈধ হিউম্যান হলারের (লেগুনা) দৌরাত্ম্যে সাধারণ মানুষ অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে। তার ওপর কিশোর চালকদের বেপরোয়া প্রতিযোগিতায় প্রায়ই দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে সাধারণ মানুষ। তাদের মধ্যে অনেকে পঙ্গু হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, স্থানীয় কিছু রাজনৈতিক নেতা ও ট্রাফিক পুলিশের কতিপয় অসাধু সদস্যকে মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময়ে ফিটনেসবিহীন এসব গাড়ি চালানো হচ্ছে।

জানা গেছে, নগরীর গুলিস্তান থেকে পুরান ঢাকার চকবাজার, পোস্তা, লালবাগ, নিউমার্কেট, হাজারীবাগ ও কামরাঙ্গীরচর বেড়িবাঁধ হয়ে খোলা মোড়া পর্যন্ত প্রতিদিন কয়েকশ’ লেগুনা চলাচল করছে। পুরান ঢাকার সরু ও সংকীর্ণ রাস্তাগুলোতে এসব গাড়ি বেপরোয়া গতিতে চলাচল করায় প্রায়ই রিকশা আরোহী ও পথচারীরা দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন। এসব গাড়ির অধিকাংশই ফিটনেসবিহীন ও রুট পারমিট ছাড়াই চলাচল করছে। এগুলোর অধিকাংশই অপ্রাপ্তবয়স্ক কিশোর চালক চালায়। স্থানীয় কিছু রাজনৈতিক নেতা ও ট্রাফিক পুলিশের কতিপয় অসাধু সদস্যকে মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময়ে ফিটনেসবিহীন এসব গাড়ি চালানো হচ্ছে।

লালবাগের ব্যবসায়ী আরিফুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, কয়েকদিন আগে সপরিবারে পোস্তায় বোনের বাসায় যাওয়ার সময় একটি বেপরোয়া গতির লেগুনা আমাদের বহন করা রিকশাকে চাপা দেয়। এতে রিকশাটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে ড্রেনে পড়ে যায়। আমার ছোট বাচ্চার হাত ভেঙে যায় ও আমি গুরুতর আহত হই। লেগুনার বেপরোয়া চলাচলে এমন দুর্ঘটনা ঘটছে বলে জানান তিনি।

শরিফ হোসেন নামে এক লেগুনা চালক যুগান্তরকে বলেন, এ রুটে লেগুনা চালাতে ড্রাইভিং লাইসেন্স দরকার হয় না। প্রতিদিন নির্ধারিত জিপির টাকা পরিশোধ করলেই হয়। এছাড়া জমার টাকা ওঠাতে দ্রুতগতিতে গাড়ি চালাতে হয় বলে জানান তিনি।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) ২৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাসিবুর রহমান মানিক যুগান্তরকে বলেন, আমরা অসংখ্যবার মালিক সমিতি ও পুলিশকে লেগুনার বেপরোয়া চলাচল নিয়ন্ত্রণ করতে অনুরোধ করেছি। কিন্তু কোনো কাজ হচ্ছে না। এছাড়া সরকার ঘোষিত অবৈধ ব্যাটারিচালিত যানবাহন যেন চলাচল করতে না পারে, সে বিষয়ে এলাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

ট্রাফিক পুলিশের (ঢাকা দক্ষিণ) উপপুলিশ কমিশনার জয়দেব চৌধুরী অভিযোগের সত্যতা স্বীকার করে যুগান্তরকে বলেন, আমি রাস্তায় শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে যথাসাধ্য চেষ্টা করব। কোনো ট্রাফিক পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

পুলিশ সদর দফতরের সহকারী মহাপরিদর্শক (এআইজি) সোহেল রানা যুগান্তরকে বলেন, কিশোর বা লাইসেন্সবিহীন চালকদের বিরুদ্ধে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সর্বদা তৎপর রয়েছে। এসব চালককে গাড়ি না দিতে বিভিন্ন সময় মালিক সমিতি ও পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সঙ্গে বৈঠক করা হয়েছে। এছাড়া তাদের পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। তারপরও কিশোর চালকদের ঠেকানো যাচ্ছে না। তবে পুলিশ এসব চালকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে বলে জানান তিনি।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×