পারভেজকে চাপা দিয়ে হত্যা: বাসচালকের আসনে ছিল সুপারভাইজার

  যুগান্তর রিপোর্ট ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পারভেজকে চাপা দিয়ে হত্যা: বাসচালকের আসনে ছিল সুপারভাইজার
ছবি: যুগান্তর

উত্তরার তুরাগ থানায় ভিক্টর ক্ল্যাসিক পরিবহনের একটি বাসকে থামার সংকেত দেন সঙ্গীতশিল্পী পারভেজ রব। কিন্তু বাসটি থামেনি। উল্টো তাকে চাপা দিয়ে চলে যায়। আর তখন বাসটি চালাচ্ছিলেন সুপারভাইজার আকতার হোসেন।

তার পাশের আসনে বসা ছিলেন চালক মো. সুমন। ৫ সেপ্টেম্বর দুপুর ১১টায় তুরাগ থানা এলাকার ইস্টওয়েস্ট মেডিকেল কলেজের সামনের প্রধান সড়কে বাসচাপায় মৃত্যু হয় সঙ্গীতশিল্পী পারভেজ রবের।

এ ঘটনায় ভিক্টর ক্ল্যাসিক পরিবহনের চালক মোহাম্মদ সুমন (২৮) ও সুপারভাইজার আকতার হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। শুক্রবার এ দু’জনকে গ্রেফতার করে ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)। সুমন ও আকতার কারও ড্রাইভিং লাইসেন্স ছিল না।

ডিবি উত্তর বিভাগের উত্তরা জোনাল টিম নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা থেকে সুমন ও শরীয়তপুরের নড়িয়া থেকে আকতারকে গ্রেফতার করে ঢাকায় নিয়ে আসে।

ডিবি উত্তর বিভাগের উপকমিশনার মশিউর রহমান বলেন, সুমন জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন- ঘটনার দিন সকাল ১০টার দিকে তিনি ও আকতার বাসটি নিয়ে বের হন। তখন বাসটি চালাচ্ছিলেন সুপারভাইজার আকতার।

আর চালকের পাশের আসনে বসা ছিলেন চালক সুমন। ধউর এলাকায় ইস্টওয়েস্ট মেডিকেল কলেজের সামনে পারভেজ রব তাদের বাসকে থামার সংকেত দেন। কিন্তু আকতার বাসটি না থামিয়ে তাকে চাপা দিয়ে চলে যান। পরে নিরাপদ জায়গায় বাসটি থামিয়ে তারা পালিয়ে যান।

তিনি বলেন, সঙ্গীতশিল্পী পারভেজ রব মারা যাওয়ার দু’দিন পর ভিক্টর ক্ল্যাসিক পরিবহনের আরেকটি বাসের চাপায় তার ছেলে ইয়াসির আলভী মারাত্মক আহত হন। ৭ সেপ্টেম্বরের এ ঘটনায় মারা যান আলভীর বন্ধু মেহেদী।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×