গেণ্ডারিয়ায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে দোকান দখলের অভিযোগ
jugantor
গেণ্ডারিয়ায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে দোকান দখলের অভিযোগ

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

গেণ্ডারিয়া এলাকায় স্থানীয় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীর দোকান দখলের অভিযোগ উঠেছে। দোকান ফিরে পেতে ভুক্তভোগী ওই ব্যবসায়ী সংবাদ সম্মেলন করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন মিলনায়তনে মঙ্গলবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী হাজী মো. সাইফুল ইসলাম লিখিত বক্তব্যে বলেন, ২০১৮ সালে গেণ্ডারিয়া ডিস্ট্রিলারি রোডের ২০/এ নম্বর হোল্ডিংয়ে ৬৫ স্কয়ারফিটের একটি দোকান কেনেন তিনি। এর পরপরই জাতীয় নির্বাচন এলে স্থানীয় যুবলীগের নেতাকর্মীরা দোকানটি নির্বাচনী প্রচারণার কাজে ব্যবহার করেন। নির্বাচন শেষ হলেও দোকানটি না ছাড়ায় বিপাকে পড়েন ব্যবসায়ী সাইফুল। পরে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের মধ্যস্থতায় বিষয়টি মীমাংসার উদ্যোগ নেয়া হয়। কিন্তু স্থানীয় যুবলীগ নেতা জাকারিয়া আলামিন ওরফে জাক্কু ও তার ভাই আমিনুল ইসলাম বাবু দোকানটির দখল ছাড়ছেন না। পাল্টা তারা তাকে (সাইফুল) হুমকি দিচ্ছেন। এতে নিরাপত্তাহীনতার বিষয় উল্লেখ করে ১৭ নভেম্বর গেণ্ডারিয়া থানায় একটি জিডি (৩৫৮) করেন তিনি। কিন্তু এতেও কোনো প্রতিকার না পাওয়ায় তিনি দোকান ফিরে পেতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করছেন। এদিকে যোগাযোগ করা হলে জাকারিয়া আলামিন ওরফে জাক্কু বলেন, তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সঠিক নয়। এছাড়া আর কোনো মন্তব্য করতে চাননি তিনি।

গেণ্ডারিয়ায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে দোকান দখলের অভিযোগ

 যুগান্তর রিপোর্ট  
১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

গেণ্ডারিয়া এলাকায় স্থানীয় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীর দোকান দখলের অভিযোগ উঠেছে। দোকান ফিরে পেতে ভুক্তভোগী ওই ব্যবসায়ী সংবাদ সম্মেলন করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন মিলনায়তনে মঙ্গলবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী হাজী মো. সাইফুল ইসলাম লিখিত বক্তব্যে বলেন, ২০১৮ সালে গেণ্ডারিয়া ডিস্ট্রিলারি রোডের ২০/এ নম্বর হোল্ডিংয়ে ৬৫ স্কয়ারফিটের একটি দোকান কেনেন তিনি। এর পরপরই জাতীয় নির্বাচন এলে স্থানীয় যুবলীগের নেতাকর্মীরা দোকানটি নির্বাচনী প্রচারণার কাজে ব্যবহার করেন। নির্বাচন শেষ হলেও দোকানটি না ছাড়ায় বিপাকে পড়েন ব্যবসায়ী সাইফুল। পরে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের মধ্যস্থতায় বিষয়টি মীমাংসার উদ্যোগ নেয়া হয়। কিন্তু স্থানীয় যুবলীগ নেতা জাকারিয়া আলামিন ওরফে জাক্কু ও তার ভাই আমিনুল ইসলাম বাবু দোকানটির দখল ছাড়ছেন না। পাল্টা তারা তাকে (সাইফুল) হুমকি দিচ্ছেন। এতে নিরাপত্তাহীনতার বিষয় উল্লেখ করে ১৭ নভেম্বর গেণ্ডারিয়া থানায় একটি জিডি (৩৫৮) করেন তিনি। কিন্তু এতেও কোনো প্রতিকার না পাওয়ায় তিনি দোকান ফিরে পেতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করছেন। এদিকে যোগাযোগ করা হলে জাকারিয়া আলামিন ওরফে জাক্কু বলেন, তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সঠিক নয়। এছাড়া আর কোনো মন্তব্য করতে চাননি তিনি।