কিশোরগঞ্জ-৬ আসন

পাপনের বার্ষিক আয় ৫ কোটি টাকা শরীফুলের ৫৫ লাখ

  ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি ০৩ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

কিশোরগঞ্জ-৬ (ভৈরব-কুলিয়ারচর) আসনে ৬ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। রোববার বাছাইয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট আয়ুব হোসেন ও ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থী মো. মুছা খানের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে।

প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় তাদের আয়-ব্যয় ও সম্পদ বিবরণীতে দেখা যায়, আওয়ামী লীগ প্রার্থী নাজমুল হাসান পাপন তার বার্ষিক আয় দেখিয়েছেন ৫ কোটি ৪ লাখ ৪৮ হাজার ৯৫১ টাকা ও বার্ষিক ব্যয় দেখিয়েছেন ২ কোটি ৩৮ লাখ ৩১ হাজার ৩৩৭ টাকা। অন্যদিকে বিএনপির প্রার্থী মো. শরীফুল আলম তার বার্ষিক আয় ৫৫ লাখ টাকা ও ব্যয় ২৫ লাখ ৫২ হাজার ১৫০ টাকা দেখিয়েছেন।

স্থায়ী ও অস্থায়ী সম্পদের দিক দিয়ে নাজমুল হাসান পাপন ধনী ব্যক্তি ও তার কোনো ব্যাংক ঋণ নেই বলে তিনি সম্পদ বিবরণীতে উল্লেখ করেন। বার্ষিক আয়ও প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির প্রার্থীর চেয়ে অনেকগুণ বেশি। অপরদিকে শরীফুল আলমের তার সম্পদ বিবরণীতে বিভিন্ন ব্যাংক থেকে তার ১১ প্রতিষ্ঠানের নামে নেয়া ঋণের পরিমাণ দেখিয়েছেন ৫১ কোটি ৪৫ লাখ টাকা। স্থায়ী ও অস্থায়ী সম্পদের দিক দিয়ে নাজমুল হাসান পাপনের চেয়ে অনেকগুণ কম দেখা যায়।

জাতীয় পার্টির প্রার্থী এনকে সোহেল তার সম্পদ বিবরণীতে বার্ষিক আয় দেখিয়েছেন ২ লাখ ৮০ হাজার টাকা। তার নগদ ও অস্থাবর সম্পদের পরিমাণ ১১ লাখ ৩০ হাজার টাকা। স্বর্ণ, আসবাবপত্র ও অন্যান্য সম্পদ আছে সব মিলিয়ে ৩ লাখ ৫৫ হাজার টাকার।

বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের প্রার্থী মো. রুবেল হোসেন সম্পদ বিবরণীতে উল্লেখ করেন, তার বার্ষিক আয় ২ লাখ ৮৫ হাজার টাকা। তার স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদের পরিমাণ ১ লাখ ৫০ হাজার টাকা। তার স্ত্রীর ৫ ভরি স্বর্ণ আছে। সম্পদ বিবরণীতে তিনি উল্লেখ করেন ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে তার ১ লাখ টাকা জমা আছে। তার বার্ষিক ব্যয় ১ লাখ ৪০ হাজার টাকা।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: jugantor.ma[email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত