সুজনের আয়োজন : ছিলেন না বিএনপি প্রার্থী

ভোলা-১: ভোলায় সন্ত্রাসমুক্ত নির্বাচনের অঙ্গীকার

  ভোলা প্রতিনিধি ২৩ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

সন্ত্রাস

ভোলা-১ আসনে সুজনের আয়োজনে শনিবার এক মঞ্চে দাঁড়িয়ে ৪ প্রার্থী সন্ত্রাস ও কালো টাকার প্রভাবমুক্ত নির্বাচনের অঙ্গীকার করেছেন।

প্রার্থীরা হলেন আওয়ামী লীগের বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, কমিউনিস্ট পার্টির প্রার্থী একেএম সোহেল আহমেদ, জাতীয় পার্টির কেফায়েত উল্লাহ নজিব ও ইসলামী আন্দোলনের ইয়াছিন নবীপুরী। শেষ পর্যন্ত বিএনপি প্রার্থী গোলাম নবী আলমগীর উপস্থিত না থাকায় বিব্রতবোধ করেন আয়োজকরা।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সুজন সভাপতি মোবাশ্বের উল্লাহ চৌধুরী। সভায় একে একে প্রার্থীরা তাদের নির্বাচনী ভাবনা তুলে ধরেন। এ সময় প্রার্থীদের উদ্দেশে প্রশ্ন করেন নাগরিক কমিটির সভাপতি মো. আবু তাহের, সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর রুহুল আমিন জাহাঙ্গীর, অধ্যক্ষ সাফিয়া খাতুন, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ আহ্বায়ক অবিনাশ নন্দী, ইসলামী আন্দোলনের সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা মিজানুর রহমান, যুগান্তর স্বজন সমাবেশের সম্পাদক বিপ্লব পাল কানাই, স্কুল শিক্ষক মোসরিন আক্তার, তরুণ ভোটার আলামিন তাওহিদ।

এক প্রশ্নের জবাবে তোফায়েল আহমেদ বলেন, ভোলায় প্রচুর গ্যাসের মজুদ রয়েছে। এখানে শিল্পায়নের সুযোগ রয়েছে। আমরা আবার ক্ষমতায় এলে ভোলা-বরিশাল ব্রিজ নির্মাণের মধ্য দিয়ে শিল্পায়ন করার পাশাপাশি গ্রামকে শহরে রূপান্তর করব। ভোলায় মেডিকেল কলেজ স্থাপন করা হবে। ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থী জানান, তারা ক্ষমতায় এলে হিন্দু জনগোষ্ঠীসহ সংখ্যালঘুদের সব ধরনের সুবিধা নিশ্চিত করবেন। কমিউনিস্ট পার্টির প্রার্থী বলেন, তিনি নির্বাচিত হলে তৃণমূল মানুষের ভাগ্যোন্নয়নসহ তাদের সব ধরনের সুবিধা দেবেন। পরে বাণিজ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, দেশে শন্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় থাকলেও বিএনপি ঐক্যজোটের স্বভাব হচ্ছে উল্টো কথা বলা। ভোলায় বিএনপি প্রার্থীরা নিজেরাই গণসংযোগ করছেন না। এটার দায় তাদেরই বহন করতে হবে। তবে মানুষ সবকিছুর জবাব দেবে ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচনে। সুজনের অনুষ্ঠানে বিএনপি প্রার্থীর না আসার সমালোচনা করে তোফায়েল আহমেদ বলেন, আমি তার বাড়ি গিয়েছি। কুশল বিনিময় করেছি। জিজ্ঞেস করেছি কোনো অসুবিধা আছে কিনা। আমরা গণসংযোগ করছি। ৪ প্রার্থীর প্রচার-প্রচারণা চলছে। অথচ তিনি শহরে দু’একদিন গণসংযোগ করেন। গ্রামে যান না। বিএনপির অপর প্রার্থী ভোলা-২ এর হাফিজ ইব্রাহিম, ভোলা-৩ এর মেজর হাফিজ, ভোলা-৪ এর নাজিম উদ্দিন আলমের মতো এখন তিনিও ঘরে বসে থেকে সংবাদ সম্মেলন করে অসত্য তথ্য দিচ্ছেন।

নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করাই বিএনপির বৈশিষ্ট্য-বাণিজ্যমন্ত্রী : বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধি জানান, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, সারা দেশে নির্বাচনের আমেজ বিরাজ করছে। বিএনপি বা ঐক্যজোটের নেতাদের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য হচ্ছে নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করা। ভোলার ভেদুরিয়া মাঝিরহাট, ভেলুমিয়া নুরু মাস্টার বাড়ির দরজা, মানিকবাজারসহ কয়েকটি পথসভায় অংশ নিয়ে সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি। ভোলা-১ আসনের প্রার্থী তোফায়েল আহমেদ ’৭০ সাল থেকে নির্বাচন করছেন উল্লেখ করে বলেন, ভোলার চারটি আসনে কোথাও কোনো গোলযোগ নেই। গ্রামে গ্রামে নির্বাচনের উৎসব শুরু হয়েছে। ঢাকায়ও সব প্রার্থীর প্রচারণা দেখা যায়। ভোলাসহ কিছু এলাকায় বিএনপির প্রার্থীরা ঘরে বসে কৌশল করছেন। এরা সাধারণ মানুষের কাছে যান না। সমাবেশগুলোতে বক্তৃতা করেন- ভোলা-২ আসনের এমপি আলী আজম মুকুল, জেলা আ’লীগের সহসভাপতি দোস্তমাহামুদ, সম্পাদক আবদুল মমিন টুলু, উপজেলা চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন, পৌর মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান, পৌর মেয়র মো. রফিকুল ইসলাম, উপজেলা আ’লীগ সভাপতি মো. জসিম উদ্দিন হায়দার, সাংগঠনিক সম্পাদক মইনুল হোসেন বিপ্লব, ইউপি চেয়ারম্যান সালাম মাস্টার, ইউপি চেয়ারম্যান তাজুল ইসলাম প্রমুখ।

ড. কামাল যুদ্ধাপরাধীদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন : ড. কামাল জামায়াত ও যুদ্ধাপরাধীদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন। দেশের মানুষ তাকে কখনও ক্ষমা করবে না। নীতিহীনকে কখনও মানুষ পছন্দ করে না। শনিবার বোরহানউদ্দিন উপজেলার মানিকার হাট আওয়ামী লীগের আয়োজনে পথসভায় প্রধান অতিথি বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ এমপি এ কথা বলেন।

উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জসিম উদ্দিন হায়দারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন ভোলা-২ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আলী আজম মুকুল এমপি। আওয়ামী লীগের কর্মী আল আমিন মেম্বার, স্বপন মাতাব্বর প্রমুখ। এর আগে উত্তর জয়নগরে আওয়ামী লীগের আয়োজনে এক পথসভায় যোগ দেন বাণিজ্যমন্ত্রী।

ঘটনাপ্রবাহ : ভোলা-১: জাতীয় সংসদ নির্বাচন

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×