হলি আর্টিজান মামলা: পরবর্তী সাক্ষ্য গ্রহণ ১০ জানুয়ারি

  যুগান্তর রিপোর্ট ০৭ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

হলি আর্টিজান মামলা: পরবর্তী সাক্ষ্য গ্রহণ ১০ জানুয়ারি

গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য ১০ জানুয়ারি দিন ধার্য করেছেন আদালত। রোববার মামলায় হলি আর্টিজানের ওয়েটার আশরাফুজ্জামান ও খণ্ডকালীন ইলেকট্রিশিয়ান লাজারুশ সরেন আদালতে সাক্ষ্য দেন।

ঢাকার সন্ত্রাসবিরোধী বিশেষ ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. মজিবুর রহমান তাদের সাক্ষ্য গ্রহণ করেন। ওই দু’জনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আদালত পরবর্তী সাক্ষ্য গ্রহণের জন্য ওই দিন ধার্য করেন। এ নিয়ে মামলায় আটজনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ হল।

হলি আর্টিজানের ওয়েটার আশরাফুজ্জামান জবানবন্দিতে বলেন, ২০১৬ সালের ১ জুলাই হলি আর্টিজান রেস্টুরেস্টে ওয়েটার পদে কর্মরত ছিলাম। রাত সাড়ে ৮টা থেকে পৌনে ৯টার দিকে একটা বিকট শব্দ শুনতে পাই। শব্দটা কিসের জানার চেষ্টা করি। দেখি মেইন গেটের ভিতরে অস্ত্রধারী দুই যুবক দাঁড়িয়ে আছে।

এরপর আরও দু’একটা শব্দ শুনতে পাই। শব্দ শুনে দৌড়ে পিজা রুমের পাশ দিয়ে পকেট গেট দিয়ে বের হয়ে লেকভিউতে আশ্রয় নিই। রাত ১২টার দিকে র‌্যাবের সদস্য পরিচয় দিয়ে এক ব্যক্তি ভিতরে প্রবেশ করে। এরপর আমাদের স্টাফ ও লেকভিউ স্টাফদের একটা কক্ষে আটকে রাখা হয়।

সেখান থেকে আমরা সারারাত গুলির শব্দ শুনতে পাই। পরদিন সকাল ১০টার দিকে পুলিশ এসে আমাদের রুম খুলে দেয়। আমাকে পুলিশ হলি আর্টিজানের ভেতর দিয়ে নিয়ে যায়।

সেখানে অনেক লাশ ও রক্ত দেখতে পাই। আদালত সূত্র জানায়, এর আগে ৩ ডিসেম্বর এ মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। ২০১৬ সালের ১ জুলাই গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে দুই পুলিশসহ দেশি-বিদেশি ২২ জনকে হত্যা করে জঙ্গিরা। এ সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর যৌথ অভিযান ‘অপারেশন থান্ডারবোল্ডে’ পাঁচ জঙ্গি নিহত হয়। অভিযানে এক জাপানি ও দু’জন শ্রীলঙ্কানসহ ১৩ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়। ওই ঘটনায় ৪ জুলাই গুলশান থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনে মামলাটি দায়ের করে পুলিশ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×