সিলেট যুবলীগ নেতার অভিযোগ

মামলা দিয়ে মানুষকে হয়রানি করেন আ’লীগ নেতা সেলিম

  সিলেট ব্যুরো ২৪ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

মামলা দিয়ে নেতাকর্মীদের হয়রানি, চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অভিযোগ উঠেছে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও মহানগর আওয়ামী লীগের সদস্য সালেহ আহমদ সেলিমের বিরুদ্ধে। বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে অভিযোগ আনেন মহানগর যুবলীগের সদস্য জাকিরুল আলম জাকির।

জেলা প্রেসক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে জাকির বলেন, কাউন্সিলর সেলিম একজন বিতর্কিত রাজনীতিক। রাজনীতির নামে গ্রুপবাজির কূটকৌশলে নিরীহ উদীয়মান রাজনীতিক কর্মী সমর্থকদের কোণঠাসা করে নিজের অবৈধ-কর্মে জড়াতে বাধ্য করার চেষ্টা করেন তিনি। যুবলীগ নেতা জাকির বলেন, কয়েক মাস আগে বিভিন্ন ঘটনায় আমাকে ও আমার সহকর্মীদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা করিয়েছেন সেলিম। এর মধ্যে একটির বাদী ব্যবসায়ী মার্জিয়া বেগম রুমা (৪২)। তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ওয়ান টু হান্ড্রেড-এ ভাংচুর, লুটপাট ও চাঁদাবাজি ঘটনায় মামলা হয়। এ মামলায় আমাকেসহ ১৬ জনকে আসামি করা হয়েছে। এজাহারের বর্ণিত ঘটনার সঙ্গে আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। এ নিয়ে মামলার বাদী রুমা বেগমের সঙ্গে যোগাযোগ করে জানতে পারি ২ লাখ টাকার প্রলোভনে পড়ে তিনি মামলায় আমাকে আসামি করেছেন। যদিও মাত্র ৪৭ হাজার টাকা তাকে দিয়েছেন কাউন্সিলর সেলিম। আমার কাছে রুমা বর্ণিত স্বীকারোক্তির ভিডিও রেকর্ড সংরক্ষিত আছে। এক মারামারির ঘটনায় ২০১৭ সালের ৩০ অক্টোবর মামলা করেন জনৈক রায়হান আহমদ (২২)। সুনামগঞ্জের দিরাইয়ের বাসিন্দা রায়হান ওই মামলায় আমাকে প্রধান আসামি করে ১০ জনের মামলা দায়ের করেন। সম্প্রতি রায়হান আহমদ আমাকে ফোন করে জানান, সালেহ আহমদ সেলিম মামলা করিয়েছেন। এছাড়া তেররতন বাজারে কথিত প্রেমের ঘটনাকে কেন্দ্র করে এক মামলায় আমাকে প্রধান করে ১৩ জনকে আসামি করা হয়েছে। এই মামলার বাদী নিজেই স্বীকার করেছেন যে সে নিজে কিছু জানে না। এভাবেই সেলিম প্রতিপক্ষকে মামলার জালে জড়িয়ে হয়রানি ও আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেন। অভিযোগের বিষয়ে জানাতে চাইলে কাউন্সিলর অ্যাডভোকেট সালেহ আহমদ সেলিম বলেন, আমি বা আমার কোনো আত্মীয়স্বজন এসব মামলার বাদী নয়। জাকির সাহেব অনুমাননির্ভর এসব অভিযোগ করছেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×