মন্ত্রীর কাছে ২০ সুপারিশ পৌর মেয়রদের

রোহিঙ্গারা যেন জন্মসনদ না পায় -তাজুল ইসলাম

  যুগান্তর রিপোর্ট ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলামের সঙ্গে মতবিনিময়ে পৌরসভা শক্তিশালী করতে পদমর্যাদা প্রদানসহ ২০ দফা সুপারিশ করেছেন মেয়ররা। বলেছেন, সুপারিশগুলো বাস্তবায়ন করলে দেশের পৌরসভাগুলো বিদ্যমান সংকট থেকে বেরিয়ে আসবে। রাজধানীর জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতরে স্থানীয় সরকার বিভাগ আয়োজিত মতবিনিময় সভায় রোববার এসব সুপারিশ করেন তারা।

মেয়ররা বলেন, দেশের ৩২৮টি পৌরসভায় গত ডিসেম্বর পর্যন্ত ৬৯২ কোটি টাকা বেতন-ভাতা বকেয়া পড়েছে। আর অবসরে যাওয়া ৯৭৭ কর্মকর্তা-কর্মচারীর প্রায় ১২০ কোটি অবসর সুবিধা বাকি পড়েছে। এছাড়া অর্থ সংকটে উন্নয়ন, সংস্কার ও নাগরিক সেবা কার্যক্রম পরিচালনা করা সম্ভব হচ্ছে না। স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম। সভার বিষয় ছিল ‘শক্তিশালী স্থানীয় সরকার গঠনের অংশ হিসেবে পৌরসভার সক্ষমতা ও জনগণের চাহিদামাফিক সেবা প্রদানের জন্য কতিপয় কার্যক্রম গ্রহণ’। সভায় উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো. মাহবুব হোসেন।

মন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশে আশ্রয় পাওয়া রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর কেউ যেন বাংলাদেশি নাগরিক হিসেবে জন্মসনদ না পায় সে বিষয়ে পৌর মেয়রদের সতর্ক থাকতে হবে। তিনি বলেন, প্রায় ১১ লাখ রোহিঙ্গা আশ্রয় নিয়েছে। মানবিক কারণে তাদের আশ্রয় দেয়া হযেছে। মিয়ানমারের নাগরিক হলেও রোহিঙ্গারা বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলায় মিথ্যা তথ্য দিয়ে জন্মসনদ, পাসপোর্ট করছে বলে অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে। এডিস মশা ও ডেঙ্গুজ্বর মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে উল্লেখ করে স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে পৌর মেয়রদের অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে।

সুপারিশ : পৌরসভাগুলোর কাঙ্ক্ষিত সফলতা অর্জনের আগ পর্যন্ত মঞ্জুরি ও পরিচালন খাত থেকে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ৭৫ ভাগ বেতন ও ভাতার অর্থ সহায়তা করা; অবসরে যাওয়া পৌর কর্মকর্তা- কর্মচারীদের অবসর সুবিধা পরিশোধ নিশ্চিত করতে কেন্দ্রীয় গ্র্যাচুইটি তহবিল গঠন করে সেখানে অর্থ জমা ও বিনিয়োগের মাধ্যমে অবসর সুবিধার সমস্যার সমাধান করা; ভূমি উন্নয়ন করের ২ ভাগের পরিবর্তে ১০ ভাগ, জমি রেজিস্ট্রির ২ ভাগের পরিবর্তে ৪ ভাগ এবং বিআরটিএর নিবন্ধিত গাড়ির ফি থেকে পৌরসভাকে একটি অংশ প্রদান করা; প্রত্যেক পৌর এলাকার মধ্যে সরকারের আয়ের নির্ধারিত অংশের ৪০ ভাগ পৌরসভাকে প্রদান ইত্যাদি।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×