বেসরকারি হাইস্কুল

অতিরিক্ত ভর্তি বন্ধে নীতিমালার খসড়া চূড়ান্ত

শূন্য আসনের তালিকা পাঠাতে হবে মাউশিতে

  যুগান্তর রিপোর্ট ০৮ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অতিরিক্ত শিক্ষার্থী ভর্তি ও অর্থ আদায় বন্ধের ব্যবস্থা রেখে বেসরকারি হাইস্কুলে ভর্তি নীতিমালার চূড়ান্ত খসড়া তৈরি হয়েছে। আসন্ন শিক্ষাবর্ষে ভর্তি প্রক্রিয়া শুরুর আগে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোকে শূন্য আসনের তালিকা পাঠাতে হবে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরে (মাউশি)। সরকার নির্ধারিত হারের অতিরিক্ত অর্থ আদায় করা যাবে না। এসব অপরাধ প্রমাণিত হলে আইনানুগ ব্যবস্থার মুখোমুখি হতে হবে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানকে।

নীতিমালা চূড়ান্ত করার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মাউশি পরিচালক (মাধ্যমিক) অধ্যাপক আবদুল মান্নান। তিনি বলেন, চলতি সপ্তাহে এই নীতিমালা শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে জারি করা হতে পারে।

খসড়ায় বলা হয়েছে, ২০২০ শিক্ষাবর্ষের সরকারি-বেসরকারি উভয় ধরনের হাইস্কুলে প্রথম শ্রেণিতে লটারির মাধ্যমে ভর্তির আয়োজন করা হবে। ৬ষ্ঠ ও ৯ম শ্রেণিতে যথাক্রমে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী ও জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট বা সমমানের পরীক্ষার ফল অনুযায়ী ভর্তি করতে হবে। অন্যসব ক্লাসে পরীক্ষা নেয়া যাবে। এক্ষেত্রে দ্বিতীয়-তৃতীয় শ্রেণিতে তিনটি বিষয়ে ৫০ নম্বরের পরীক্ষা হবে। চতুর্থ, পঞ্চম, সপ্তম ও অষ্টম শ্রেণিতে তিন বিষয়ে (বাংলা, ইংরেজি, গণিত) ১০০ নম্বরের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ভর্তি পরীক্ষায় পাঠ্যপুস্তকের বাইরে থেকে কোনো প্রশ্ন করা যাবে না। এক্ষেত্রে শিক্ষার্থী যে শ্রেণিতে লেখাপড়া করেছে, সেই ক্লাসের বই থেকে পরবর্তী ক্লাসে ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্ন হবে।

নীতিমালা বলা হয়েছে, ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের আগে মোট শূন্য আসন সংখ্যা মাউশিতে পাঠাতে হবে। ভর্তি কার্যক্রম শেষে তা যাচাই-বাছাই করা হবে। অনুমোদিত আসনের অতিরিক্ত ভর্তি বন্ধ করতে এই বিধান রাখা হয়েছে। গলাকাটা টিউশন ফি’র লাগাম টেনে ধরতে সরকারের ঘোষিত নির্ধারিত ফি’র অতিরিক্ত আদায় করা যাবে না। এটা রোধে উপজেলা, জেলা ও বিভাগীয় পর্যায়ে এ কমিটি গঠন করা হবে। এদের মধ্যে আবার উপকমিটি গঠন করা হবে। তারা বিষয়গুলো মনিটর করবে।

এছাড়াও সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বদলির ক্ষেত্রে আন্তঃউপজেলা বদলির বিষয়টি নতুনভাবে যুক্ত করা হয়েছে। যেটি আগে জেলা পর্যায়ে বদলির বিধান ছিল। বর্তমানে সেটি উপজেলা পর্যায়ে স্কুল বদলি নীতিমালায় যুক্ত করা হয়েছে। ভর্তিতে আগের মতো মুক্তিযোদ্ধা, প্রতিবন্ধী, এলাকা, শিক্ষা বিভাগের কোটা থাকবে। পাশাপাশি সরকারি হাইস্কুলের ১০ শতাংশ আসন সরকারি প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষার্থীদের জন্য বরাদ্দ থাকবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×