চট্টগ্রামে চাহিদা কম সরবরাহ বেশি

৪ কারণে পাইকারি বাজারে কমছে পণ্যের দাম

  আহমেদ মুসা, চট্টগ্রাম ব্যুরো ১৩ মে ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

দেশের সবচেয়ে বড় পাইকারি বাজার চাকতাই-খাতুনগঞ্জে বেশির ভাগ নিত্যপণ্যের দাম নিুমুখী। ব্যবসায়ীরা বলছেন, মূলত চারটি কারণে এ বাজারে নিত্যপণ্যের দাম কমে এসেছে। চট্টগ্রাম বন্দরে পণ্য খালাস আগের চেয়ে বেড়েছে। ফলে বাজারে পণ্যের সরবরাহ বেড়েছে। করোনা মহামারী পরিস্থিতিতে সরকারি-বেসরকারি ত্রাণের প্রবাহ কমে এসেছে এবং রমজানের বাড়তি বিক্রির চাপও কমতির দিকে। এছাড়া পণ্যের চাহিদা কমেছে। রমজান মাস উপলক্ষে বাড়তি চাপ নেই নিত্যপণ্যে।

বাজার ঘুরে দেখা গেছে, গত কয়েকদিনে কেজিতে ২২ টাকা কমেছে খেসারি ডালের দাম। রোজার সময় বাড়তি চাহিদা থাকায় গত দেড় মাসে কয়েক দফা বেড়ে গত সপ্তাহ পর্যন্ত প্রতি কেজি খেসারি ডাল বিক্রি হয়েছে ৯৫ থেকে ১০০ টাকায়, যা বর্তমানে ৭৫ টাকা থেকে ৭৭ টাকায় নেমে এসেছে। একইভাবে কেজিতে ৫ টাকা কমে গতকাল প্রতি কেজি মটর ডাল বিক্রি হয় ৪০ টাকায়। গত সপ্তাহ পর্যন্ত পণ্যটি ৪৫ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে প্রতি কেজি ছোলার ডালের দাম ওঠে ৭৫ টাকায়। গত কয়েকদিনে ৫-৮ টাকা কমে বর্তমানে প্রতি কেজি ছোলার ডাল ৬৭ থেকে ৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এদিকে রমজানের শুরুর দিকে আদা বিক্রি হয় কেজি প্রতি ২৫০ থেকে ২৮০ টাকা পর্যন্ত। বর্তমান বিক্রি হচ্ছে ১৪০ থেকে ১৫০ টাকা কেজি দরে।

গত এক মাস ধরে পেঁয়াজের কেজি ৫০ টাকার ওপরে ছিল। গতকাল পণ্যটি কেজিপ্রতি ৪০ টাকায় বিক্রি হতে দেখা যায়। একই সময় কেজিতে ৪০ টাকা কমেছে রসুনের দাম। গতকাল পাইকারি বাজারে চীন থেকে আমদানি করা প্রতি কেজি রসুন বিক্রি হয় ১২৫-১৩০ টাকায়। গত সপ্তাহের শেষের দিকে পণ্যটির দাম কেজি ১৬০ টাকার ওপরে ছিল। কমেছে জিরার দামও। এক সপ্তাহে কেজিতে ৮০ টাকা কমে বর্তমানে প্রতি কেজি জিরার মূল্য ৩৭০ টাকায় নেমে এসেছে।

একইভাবে খাতুনগঞ্জ পাইকারি বাজারে মণে ১০০ টাকা কমেছে চিনির দাম। গত সপ্তাহ পর্যন্ত পাইকারি বাজারে বিভিন্ন কোম্পানির প্রতি মণ চিনি বিক্রি হয়েছে ২ হাজার ১৮০ থেকে ২ হাজার ২০০ টাকায়। তবে চলতি সপ্তাহে তা ২ হাজার ১০০ থেকে ২ হাজার ১৩০ টাকায় নেমেছে।

হামিদুল্লাহ মিয়া মার্কেট আড়তদার সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. ইদ্রিস বলেন, নিত্যপ্রয়োজনী প্রায় সব ভোগ্যপণ্যেও দাম নিুমুখী। প্রতিটি আইটেমের দাম কমে যাচ্ছে। মানুষের আয়-রোজগার কমে যাওয়া অন্যদিকে পণ্যের সরবরাহ বাড়ায় নিত্যপণ্যের দাম কমে যাচ্ছে। এছাড়া চাকতাই-খাতুনগঞ্জে আগের মতো ক্রেতাও নেই।

 

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত