করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢামেক হাসপাতালে ৬৬ জনের মৃত্যু
jugantor
করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢামেক হাসপাতালে ৬৬ জনের মৃত্যু
সাত জেলায় আরও মৃত্যু ৭

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৯ মে ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ৬৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া সাত জেলায় আরও সাতজনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে শরীয়তপুর ও মেহেরপুরে এক জন করে, মানিকগঞ্জের সিংগাইরে মুদি ব্যবসায়ী, নাটোরের নলডাঙ্গা ও রাজশাহীর বাঘায় দুই গার্মেন্টকর্মী, মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে কৃষক এবং বাগেরহাটের মোংলায় এক যুবক রয়েছেন। যুগান্তর ব্যুরো, স্টাফ রিপোর্টার ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-
ঢামেক হাসপাতাল : ২৩ মে বিকাল থেকে বৃহস্পতিবার বিকাল পর্যন্ত ঢামেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটে করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ৬৬ জন। এদের মধ্যে আটজনের কোভিড-১৯ পজিটিভ পাওয়া যায়। এ ছাড়াও অনেকের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। তাদের রিপোর্ট এখনও পাওয়া যায়নি। হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, মৃতদের মধ্যে একজন ডাক্তার রয়েছেন। এছাড়া মৃতদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ, ঢাকার কেরানীগঞ্জ, মিরপুর, হাজারীবাগ, সাভার, কদমতলী, গেণ্ডারিয়া, খিলগাঁও, যাত্রাবাড়ীর বাসিন্দা রয়েছেন। আরও রয়েছেন গাজীপুর, পঞ্চগড়, চাঁদপুর, মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া ও টঙ্গীবাড়ী, বরিশাল, পটুয়াখালী, কুমিল্লা, জামালপুর ও কক্সবাজারের টেকনাফের বাসিন্দা।
শরীয়তপুর : নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর এলাকায় বৃহস্পতিবার এক ব্যক্তি শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে মারা গেছেন। শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মুনির আহম্মেদ খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
সিংগাইর (মানিকগঞ্জ) : মানিকগঞ্জের সিংগাইরের জয়মন্টপ (হাটখোল) গ্রামের মুদি ব্যবসায়ী বুধবার নিজ বাড়িতে মারা যান। তাদের বাড়ি লকডাউন করে রাখা হয়েছে।
মেহেরপুর : মেহেরপুর ঈদগাহ পাড়ার এক ব্যক্তি মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মারা গেছেন। তাকে মেহেরপুর শহরের শেখপাড়া কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।
নাটোর : নলডাঙ্গা উপজেলায় এক গার্মেন্টসকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে জন্ডিস, জ্বর, সর্দি-কাশি শ্বাসকষ্ট নিয়ে তার মৃত্যু হয়।
বাঘা (রাজশাহী) : রাজশাহীর বাঘায় ঈদের দিন ঢাকা থেকে বাড়িতে আসা এক গার্মেন্টস কর্মীর মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে উপজেলার গোকুলপুর গ্রামে তার মৃত্যু হয়।
কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) : মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের উজিরপুর গ্রামে ৬০ বছর বয়সী এক বৃদ্ধ মারা যান। তার পরিবারের সদস্যদের হোম কোয়ারেন্টিনে থাকতে বলা হয়েছে।
মোংলা (বাগেরহাট) : মোংলায় হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার ৬ ঘণ্টা পর মারা গেছেন এক যুবক। তিনি উপজেলার মিঠাখালী ইউনিয়নের ধনখালী গ্রামের বাসিন্দা। বুধবার রাতে শ্বাসকষ্ট নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলে রাতে তার মৃত্যু হয়।

করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢামেক হাসপাতালে ৬৬ জনের মৃত্যু

সাত জেলায় আরও মৃত্যু ৭
 যুগান্তর ডেস্ক 
২৯ মে ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ৬৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া সাত জেলায় আরও সাতজনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে শরীয়তপুর ও মেহেরপুরে এক জন করে, মানিকগঞ্জের সিংগাইরে মুদি ব্যবসায়ী, নাটোরের নলডাঙ্গা ও রাজশাহীর বাঘায় দুই গার্মেন্টকর্মী, মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে কৃষক এবং বাগেরহাটের মোংলায় এক যুবক রয়েছেন। যুগান্তর ব্যুরো, স্টাফ রিপোর্টার ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-
ঢামেক হাসপাতাল : ২৩ মে বিকাল থেকে বৃহস্পতিবার বিকাল পর্যন্ত ঢামেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটে করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ৬৬ জন। এদের মধ্যে আটজনের কোভিড-১৯ পজিটিভ পাওয়া যায়। এ ছাড়াও অনেকের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। তাদের রিপোর্ট এখনও পাওয়া যায়নি। হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, মৃতদের মধ্যে একজন ডাক্তার রয়েছেন। এছাড়া মৃতদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ, ঢাকার কেরানীগঞ্জ, মিরপুর, হাজারীবাগ, সাভার, কদমতলী, গেণ্ডারিয়া, খিলগাঁও, যাত্রাবাড়ীর বাসিন্দা রয়েছেন। আরও রয়েছেন গাজীপুর, পঞ্চগড়, চাঁদপুর, মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া ও টঙ্গীবাড়ী, বরিশাল, পটুয়াখালী, কুমিল্লা, জামালপুর ও কক্সবাজারের টেকনাফের বাসিন্দা। 
শরীয়তপুর : নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর এলাকায় বৃহস্পতিবার এক ব্যক্তি শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে মারা গেছেন। শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মুনির আহম্মেদ খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 
সিংগাইর (মানিকগঞ্জ) : মানিকগঞ্জের সিংগাইরের জয়মন্টপ (হাটখোল) গ্রামের মুদি ব্যবসায়ী বুধবার নিজ বাড়িতে মারা যান। তাদের বাড়ি লকডাউন করে রাখা হয়েছে।
মেহেরপুর : মেহেরপুর ঈদগাহ পাড়ার এক ব্যক্তি মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মারা গেছেন। তাকে মেহেরপুর শহরের শেখপাড়া কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। 
নাটোর : নলডাঙ্গা উপজেলায় এক গার্মেন্টসকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে জন্ডিস, জ্বর, সর্দি-কাশি শ্বাসকষ্ট নিয়ে তার মৃত্যু হয়। 
বাঘা (রাজশাহী) : রাজশাহীর বাঘায় ঈদের দিন ঢাকা থেকে বাড়িতে আসা এক গার্মেন্টস কর্মীর মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে উপজেলার গোকুলপুর গ্রামে তার মৃত্যু হয়।
কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) : মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের উজিরপুর গ্রামে ৬০ বছর বয়সী এক বৃদ্ধ মারা যান। তার পরিবারের সদস্যদের হোম কোয়ারেন্টিনে থাকতে বলা হয়েছে। 
মোংলা (বাগেরহাট) : মোংলায় হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার ৬ ঘণ্টা পর মারা গেছেন এক যুবক। তিনি উপজেলার মিঠাখালী ইউনিয়নের ধনখালী গ্রামের বাসিন্দা। বুধবার রাতে শ্বাসকষ্ট নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলে রাতে তার মৃত্যু হয়।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন