করোনায় ‘ইমিউনিটি পিঠা’

  যশোর ব্যুরো ০৩ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

করোনাকালে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতে এক ধরনের পিঠা তৈরি করেছে যশোরে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আইডিয়া। পুষ্টিবিদদের পরামর্শ আর নিজেদের গবেষণার মাধ্যমে এ পিঠা তৈরি করেছে সংগঠনটির কর্মীরা। এই পিঠার নাম দেয়া হয়েছে ‘ইমিউনিটি পিঠা’। এতে ডুমুর, কালোজিরা, আদা, অলিভ অয়েল, চিকেন মিটসহ ১২টি ঔষুধি মসলার সমন্বয় রয়েছে। পুষ্টিবিদরাও এটিকে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতে সহায়ক হিসেবে উল্লেখ করেছেন।

আইডিয়া সমাজকল্যাণ সংস্থার প্রধান উপদেষ্টা যশোর সরকারি এমএম কলেজের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক হামিদুল হক শাহীন জানান, সারা বিশ্বে করোনাভাইরাস মহামারী রূপ নিয়েছে। বর্তমান বাস্তবতা হচ্ছে, এর কোনো ওষুধ বা ভ্যাকসিন নেই। কাজেই ইমিউনিটি বা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো ছাড়া অন্য কোনো বিকল্প নেই। এ কারণেই আইডিয়ার কর্মীরা পুষ্টি বিশেষজ্ঞদের পরামর্শে এই পিঠা তৈরি করেছেন। ইমিউনিটি পিঠার উপাদানগুলোর মধ্যে রয়েছে- ডুমুর, কালোজিরা, আদা, রসুন, এলাচ, মেথি, লবঙ্গ, গোলমরিচ, দারুচিনি, আমলকী, তুলসীপাতা ও সজিনার পাতা এবং এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল- যার সবগুলোই আমাদের শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধির পাশাপাশি বহুবিধ উপকার সাধন করে।

আইডিয়া পিঠা পার্কের সমন্বয়ক সোমা খান বলেন, পিঠা পার্ক উদ্ভাবিত ইমিউনিটি পিঠায় ব্যবহৃত উপাদানগুলো শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতে যে বিস্ময়কর ভূমিকা রাখে তা অতীতেও বিভিন্ন গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে। সুতরাং আমরা বিশ্বাস করি আইডিয়া ইমিউনিটি পিঠা খাদ্য হিসেবে গ্রহণে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা অনেক বৃদ্ধি পাবে যা করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) মোকাবেলায় সহায়ক হবে। আইডিয়া পিঠা পার্কের পেজে (https://www.facebook.com/ideapithapark/) এ সম্পর্কে আরও জানা যাবে।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত