ডাকাতের কাছ থেকে ওসির ‘অনুদান’ গ্রহণে তোলপাড়

১৬৪ ধারায় জবানবন্দি

  চট্টগ্রাম ব্যুরো ০৩ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

চট্টগ্রামে দুর্ধর্ষ ডাকাতদলের এক সদস্যের কাছ থেকে কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীনের অনুদান নেয়াকে কেন্দ্র করে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশে (সিএমপি) তোলপাড় চলছে। সৃষ্টি হয়েছে ব্যাপক চাঞ্চল্যের। ২৩ জুন ডাকাতদলের নেতা মাসুদ কোতোয়ালি থানায় ওসি মহসিনের কক্ষে গিয়ে তার হাতে নগদ ১০ হাজার টাকা ‘অনুদান’ তুলে দেন। অথচ এর মাত্র এক সপ্তাহ আগে নগরীতে দিনদুপুরে ফিল্মি স্টাইলে সিএনজি অটোরিকশার গতিরোধ করে পাঁচ লাখ টাকা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনায় নেতৃত্ব দেয় এই মাসুদ। ডাকাতি করার তিন দিন পর ওসির হাতে মাসুদ ১০ হাজার টাকা অনুদান তুলে দেয়। যার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে। তবে অনুদান প্রদানের তিন দিনের মাথায় এই মাসুদ ৬ সহযোগীসহ গ্রেফতার হয়।

করোনা রোগীদের জন্য ‘আমার ফার্মেসি’ নামে একটি কর্মসূচি চালু করেন ওসি মহসীন। ওই কর্মসূচির আওতায় ১৫ শতাংশ কম মূল্যে ওষুধ সরবরাহ শুরু হয়।

জানা গেছে, ১৬ জুন নগরীর জমিয়তুল ফালাহ জামে মসজিদের সামনে দুটি মোটরসাইকেলে থাকা ৬ জনসহ মোট ৭ ডাকাত এক সিঅ্যান্ডএফ কর্মচারীর সিএনজি অটোরিকশার গতি রোধ করে তার কাছ থেকে ৫ লাখ টাকা ভর্তি ব্যাগ লুট করে। পুলিশ আশপাশের সিসিটিভির ফুটেজ সংগ্রহ করে ৬ ডাকাত সদস্যকে চিহ্নিত করে।

কোতোয়ালি থানার ওসি মো. মহসীন যুগান্তরকে বলেন, মুন্না নামে এক সৌদি প্রবাসী ‘আমার ফার্মেসি’ প্রোগ্রামের জন্য তার ভাগ্নে মোরশেদকে বিকাশে ১০ হাজার টাকা দেন। ওই টাকা নিয়ে মোরশেদ তার দুই বন্ধু মাসুদ ও দস্তগীরকে নিয়ে থানায় আসে। এর মধ্যে মাসুদ যে ডাকাতির সঙ্গে জড়িত তা আমার জানা ছিল না।

১৬৪ ধারায় জবানবন্দি : এদিকে বুধবার আদালতে গ্রেফতার মাসুদ ও এরশাদ চট্টগ্রামের একটি আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করেছে। পুলিশ জানায়, তারা জবানবন্দিতে বলেছে, প্রয়োজনের কথা বলে দস্তগীরের মোটরসাইকেলটি ধার নিয়েছিল বন্ধু মাসুদ। লুণ্ঠিত পাঁচ লাখ টাকার মধ্যে মাসুদ নিজেই ২ লাখ ২০ হাজার টাকা বাগিয়ে নেয়। এ ঘটনার তথ্যদাতা শের আলীকে দেয়া হয় মাত্র ১০ হাজার টাকা। বাকি পাঁচজনকে দেয়া হয় ৫০ হাজার টাকা করে।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত