কিশোরগঞ্জের হাওরে ডুবে তিন পর্যটকের মৃত্যু দুই লাশ উদ্ধার

  কিশোরগঞ্জ ব্যুরো ১৩ জুলাই ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

করোনা মহামারীর সময়েও কিশোরগঞ্জের হাওর এলাকায় ভ্রমণবিলাসীদের ঢল নেমেছে। ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়েও ঠেকাতে হিমশিম খাচ্ছে প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এর ফলে তিনদিনে এই জেলার মিঠামইন, নিকলী ও বাজিতপুর উপজেলার হাওরে জলকেলিতে ডুবে দুই পর্যটকের মৃত্যু এবং বাজিতপুরের হাওরে নৌ-দুর্ঘটনায় আরেকজনের সলিল সমাধি ঘটেছে।

স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল এদের মধ্যে মিঠামইনের ‘অল ওয়েদার’ হাসানপুর ব্রিজ এলাকার হাওর থেকে মো. হাসান এবং নিকলীর বেড়িবাঁধ পর্যটন এলাকার হাওর থেকে মেহেদী হাসান (১৭) নামে দুই পর্যটকের লাশ উদ্ধার করতে সমর্থ হয়েছে। তবে বাজিতপুর হাওরে নৌ-দুর্ঘটনায় নিখোঁজ হাসান আহমেদের লাশ উদ্ধারকাজ ১৮ ঘণ্টা পর শনিবার বিকালে পরিত্যক্ত ঘোষণা করেছে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল। তার স্বজনরা ঘোড়াউত্রা ও মেঘনা নদীর ঢালে লাশের সন্ধানে বিনিদ্র রজনী পার করছেন।

শুক্রবার বিকালে মিঠামইন উপজেলার হাসানপুর ‘অল ওয়েদার’ সড়ক-সেতুর হাওর, শনিবার বিকালে নিকলী বেড়িবাঁধ এলাকা এবং শুক্রবার রাতে বাজিতপুর উপজেলার পাটুলীঘাট হাওরে নৌ-দুর্ঘটনায় নিখোঁজ হন এই তিন পর্যটক। এরপর শনিবার বিকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য হাওর পর্যটন এলাকা ও অল ওয়েদার সড়কপথে বহিরাগত এবং মোটরবাইক চলাচল কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণের হুশিয়ারি দিয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রচার করেছে সংশ্লিষ্ট উপজেলা প্রশাসন।

নিকলী থানা পুলিশসূত্রে জানা গেছে, শনিবার বিকালে নরসিংদীর ১০ তরুণ বাইকার কিশোরগঞ্জের নিকলী বেড়িবাঁধ পর্যটন এলাকায় আসেন। তাদের তিনজন টায়ারটিউব নিয়ে জলকেলিতে নেমে বেড়িবাঁধ এলাকায় ডুবে নিখোঁজ হন। স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল এদের দু’জনকে জীবিত উদ্ধারে সমর্থ হলেও দুই ঘণ্টা তল্লাশির পর মেহেদী হাসান নামের অপর তরুণকে মুমূর্ষু অবস্থায় নিকলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। সে নরসিংদীর শিবপুর উপজেলার ধানুয়া গ্রামের অধিবাসী বলে জানান নিকলী থানার ওসি শামছুল আলম সিদ্দিকী।

মিঠামইন থানা পুলিশ জানায়, শুক্রবার বিকালে মিঠামইনের অলওয়েদার সড়কপথের হাসানপুর ব্রিজ এলাকায় বন্ধুদের সঙ্গে জলকেলিতে নেমে ডুবে নিখোঁজ হয় জেলার তাড়াইল উপজেলার রাউতি ইউনিয়নের কৌলিগাঁতি গ্রামের ছফির উদ্দিনের ছেলে মো. হাসান। শনিবার হাসানপুর পর্যটন এলাকার উজানে তার লাশ পাওয়া যায় বলে জানান মিঠামইন থানার ওসি মো. জাকির রাব্বানী।

বাজিতপুর থানা পুলিশ জানায়, ঢাকা, নরসিংদী, গাজীপুর ও সাভারসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের ফেসবুক গ্রুপের বেশকিছু সদস্য মোটরসাইকেল নিয়ে শুক্রবার দুপুরে বাজিতপুর উপজেলার দীঘিরপাড় ইউনিয়নের পাটুলী ঘাটে আসেন। এখান থেকে ইটনা, মিঠামইন ও অষ্টগ্রাম উপজেলার হাওর পরিভ্রমণের জন্য বিশাল পাথরবাহী বাল্কহেড স্টিল বডি নৌকা ভাড়া নিয়ে মোটরসাইকেলসহ ওঠেন। রাত ১২টার দিকে ফিরে আসছিলেন তারা। পাটুলীঘাটের কাছাকাছি মেঘনার শাখা ঘোড়াউত্রা নদী অতিক্রমকালে তাদের নৌকাটি বিদ্যুতের খুঁটিতে প্রচণ্ড গতিতে ধাক্কা খায়। এ সময় অনেক পর্যটক ও মোটরবাইক সিটকে গভীর পানিতে পড়ে যায়। সবাই সাঁতরে তীরে উঠে এলেও হাসান আহমেদ (৩২) নিখোঁজ থাকে। ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল স্থানীয় লোকজনকে নিয়ে উদ্ধার কাজ শুরু করে এবং শনিবার বিকাল পর্যন্ত সন্ধান না পাওয়ায় উদ্ধারকাজ পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়। হাসান আহমেদ লক্ষ্মীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার কুটাকিয়া গ্রামের নূরুল আমিনের ছেলে।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত