সৈয়দপুরের মেয়র আমজাদ প্রাণ হারালেন করোনায়
jugantor
সৈয়দপুরের মেয়র আমজাদ প্রাণ হারালেন করোনায়

  সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি  

১৫ জানুয়ারি ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সৈয়দপুর পৌরসভার নির্বাচনের ভোটগ্রহণ কাল। এর আগে বৃহস্পতিবার ভোরে প্রাণ হারালেন এর মেয়র অধ্যক্ষ মো. আমজাদ হোসেন সরকার ভজে (৬৩)। করোনায় আক্রান্ত হয়ে ঢাকার বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভোর ৬টায় তিনি ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তিনি স্ত্রী ও আমেরিকা প্রবাসী একমাত্র ছেলেকে রেখে গেছেন।

রাজনৈতিক জীবনে ভজে একবার সংসদ সদস্য (নীলফামারী-৪ আসন : সৈয়দপুর-কিশোরগঞ্জ), একবার সৈয়দপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং চারবার সৈয়দপুর পৌরসভার চেয়ারম্যান/মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন। সৈয়দপুর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ছিলেন তিনি। গণমানুষের নেতা হিসেবে পরিচিত এ মানুষটি চলমান নির্বাচনেও মেয়র প্রার্থী ছিলেন। তার মৃত্যুতে এ পৌরসভার নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে। সহকারী রিটার্নিং ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. রবিউল আলম বলেন, খুব শিগগিরই নতুন করে তফসিল ঘোষণা করা হবে।

স্বজনরা জানান, ডায়াবেটিস ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ১৫ দিন আগে হাসপাতালে ভর্তি হন ভজে। সেখানে ৩ দফা নমুনা পরীক্ষার সবটিতে করোনা পজিটিভ আসে। এক সপ্তাহ ধরে তিনি নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে ও লাইফসাপোর্টে ছিলেন। ভজের মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। শোক জানিয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য আজ সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত তার লাশ পৌরভবন প্রাঙ্গণে রাখা হবে। এর পর ১২টা পর্যন্ত রাখা হবে বিএনপি কার্যালয়ের সামনে। বাদ জুমা তার প্রতিষ্ঠিত মকবুল হোসেন কলেজ মাঠে জানাজা শেষে পাটওয়ারীপাড়ায় পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

উপাধ্যক্ষ মনসুর রহমানের ইন্তেকাল : সৈয়দপুর কলেজের সাবেক উপাধ্যক্ষ, ম্যারিগোল্ড স্কুলের রসায়নের শিক্ষক মো. মনসুর রহমান শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা নিয়ে বৃহস্পতিবার রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তিনি স্ত্রী, দুই মেয়ে ও এক ছেলে রেখে গেছেন। নতুন বাবুপাড়া হাজি কলোনি ঈদগাহ মাঠে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তার লাশ দাফন করা হয়।

সৈয়দপুরের মেয়র আমজাদ প্রাণ হারালেন করোনায়

 সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি 
১৫ জানুয়ারি ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সৈয়দপুর পৌরসভার নির্বাচনের ভোটগ্রহণ কাল। এর আগে বৃহস্পতিবার ভোরে প্রাণ হারালেন এর মেয়র অধ্যক্ষ মো. আমজাদ হোসেন সরকার ভজে (৬৩)। করোনায় আক্রান্ত হয়ে ঢাকার বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভোর ৬টায় তিনি ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তিনি স্ত্রী ও আমেরিকা প্রবাসী একমাত্র ছেলেকে রেখে গেছেন।

রাজনৈতিক জীবনে ভজে একবার সংসদ সদস্য (নীলফামারী-৪ আসন : সৈয়দপুর-কিশোরগঞ্জ), একবার সৈয়দপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং চারবার সৈয়দপুর পৌরসভার চেয়ারম্যান/মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন। সৈয়দপুর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ছিলেন তিনি। গণমানুষের নেতা হিসেবে পরিচিত এ মানুষটি চলমান নির্বাচনেও মেয়র প্রার্থী ছিলেন। তার মৃত্যুতে এ পৌরসভার নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে। সহকারী রিটার্নিং ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. রবিউল আলম বলেন, খুব শিগগিরই নতুন করে তফসিল ঘোষণা করা হবে।

স্বজনরা জানান, ডায়াবেটিস ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ১৫ দিন আগে হাসপাতালে ভর্তি হন ভজে। সেখানে ৩ দফা নমুনা পরীক্ষার সবটিতে করোনা পজিটিভ আসে। এক সপ্তাহ ধরে তিনি নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে ও লাইফসাপোর্টে ছিলেন। ভজের মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। শোক জানিয়েছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য আজ সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত তার লাশ পৌরভবন প্রাঙ্গণে রাখা হবে। এর পর ১২টা পর্যন্ত রাখা হবে বিএনপি কার্যালয়ের সামনে। বাদ জুমা তার প্রতিষ্ঠিত মকবুল হোসেন কলেজ মাঠে জানাজা শেষে পাটওয়ারীপাড়ায় পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

উপাধ্যক্ষ মনসুর রহমানের ইন্তেকাল : সৈয়দপুর কলেজের সাবেক উপাধ্যক্ষ, ম্যারিগোল্ড স্কুলের রসায়নের শিক্ষক মো. মনসুর রহমান শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা নিয়ে বৃহস্পতিবার রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। তিনি স্ত্রী, দুই মেয়ে ও এক ছেলে রেখে গেছেন। নতুন বাবুপাড়া হাজি কলোনি ঈদগাহ মাঠে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তার লাশ দাফন করা হয়।