সিলেট ছাত্রলীগের পদবঞ্চিতদের বিক্ষোভ
jugantor
কমিটি বাতিল দাবি
সিলেট ছাত্রলীগের পদবঞ্চিতদের বিক্ষোভ

  সিলেট ব্যুরো  

১৫ অক্টোবর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের নবঘোষিত আংশিক কমিটি বাতিলের দাবিতে বৃহস্পতিবারও নগরীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সভা করেছেন দুই শাখার পদবঞ্চিত নেতা ও তাদের অনুসারীরা। বেলা সাড়ে ৩টার দিকে নগরীর তেলিহাওর থেকে জেলা শাখার সাবেক সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদের নেতৃত্বে বিদ্রোহীরা বিক্ষোভ মিছিল করেন।

অপরদিকে, মহানগর শাখার বিদ্রোহীরা চৌহাট্টার সড়ক ও জনপথ বিভাগ ভবনের সামনে থেকে মিছিল শুরু করে সিটি করপোরেশনের সামনে এসে জেলার নেতাকর্মীদের সঙ্গে মিলিত হন। পরে চৌহাট্টা পয়েন্টে এসে মিছিল শেষ হয়। এ সময় কমিটিবিরোধী বিভিন্ন স্লোগান দেন তারা। মিছিল শেষে চৌহাট্টা পয়েন্টে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভা থেকে তারা অবিলম্বে কমিটি বাতিলের দাবি জানান। অন্যথায় তারা লাগাতার আন্দোলন চালিয়ে যাবেন বলে হুঁশিয়ারি দেন।

বিভিন্ন কারণে ৪ বছর পর মঙ্গলবার সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের কমিটির অনুমোদন দেয় কেন্দ্রীয় কমিটি। জেলা ছাত্রলীগের নতুন সভাপতি করা হয় মো. নাজমুল ইসলামকে ও সাধারণ সম্পাদক হন রাহেল সিরাজ। অপরদিকে, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি করা হয় কিশোয়ার জাহান সৌরভকে ও সাধারণ সম্পাদক হন নাঈম হাসান। কমিটির দায়িত্বশীলদের নাম ঘোষণার পর সভাপতির পদ পাওয়া দুটি বলয়ে উচ্ছ্বাস দেখা দিলেও ক্ষোভ দেখা দেয় সিলেট ছাত্রলীগের অন্য বলয়গুলোতে। ফলে দ্রোহের আগুন ছড়িয়ে পড়ে সিলেট ছাত্রলীগে। টাকার বিনিময়ে এই কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেন জেলা ছাত্রলীগের সর্বশেষ কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ। অপরদিকে, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মহানগর কমিটিকেও প্রত্যাখ্যান করে বিক্ষোভ মিছিল ও সভা করেন নেতাকর্মীদের একাংশ। পরবর্তীতে বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে রাজপথে টানা আন্দোলন কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেন জেলা ছাত্রলীগের বিদ্রোহী অংশের নেতৃত্ব দানকারী সাবেক সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ।

কমিটি বাতিল দাবি

সিলেট ছাত্রলীগের পদবঞ্চিতদের বিক্ষোভ

 সিলেট ব্যুরো 
১৫ অক্টোবর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের নবঘোষিত আংশিক কমিটি বাতিলের দাবিতে বৃহস্পতিবারও নগরীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সভা করেছেন দুই শাখার পদবঞ্চিত নেতা ও তাদের অনুসারীরা। বেলা সাড়ে ৩টার দিকে নগরীর তেলিহাওর থেকে জেলা শাখার সাবেক সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদের নেতৃত্বে বিদ্রোহীরা বিক্ষোভ মিছিল করেন।

অপরদিকে, মহানগর শাখার বিদ্রোহীরা চৌহাট্টার সড়ক ও জনপথ বিভাগ ভবনের সামনে থেকে মিছিল শুরু করে সিটি করপোরেশনের সামনে এসে জেলার নেতাকর্মীদের সঙ্গে মিলিত হন। পরে চৌহাট্টা পয়েন্টে এসে মিছিল শেষ হয়। এ সময় কমিটিবিরোধী বিভিন্ন স্লোগান দেন তারা। মিছিল শেষে চৌহাট্টা পয়েন্টে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভা থেকে তারা অবিলম্বে কমিটি বাতিলের দাবি জানান। অন্যথায় তারা লাগাতার আন্দোলন চালিয়ে যাবেন বলে হুঁশিয়ারি দেন।

বিভিন্ন কারণে ৪ বছর পর মঙ্গলবার সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের কমিটির অনুমোদন দেয় কেন্দ্রীয় কমিটি। জেলা ছাত্রলীগের নতুন সভাপতি করা হয় মো. নাজমুল ইসলামকে ও সাধারণ সম্পাদক হন রাহেল সিরাজ। অপরদিকে, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি করা হয় কিশোয়ার জাহান সৌরভকে ও সাধারণ সম্পাদক হন নাঈম হাসান। কমিটির দায়িত্বশীলদের নাম ঘোষণার পর সভাপতির পদ পাওয়া দুটি বলয়ে উচ্ছ্বাস দেখা দিলেও ক্ষোভ দেখা দেয় সিলেট ছাত্রলীগের অন্য বলয়গুলোতে। ফলে দ্রোহের আগুন ছড়িয়ে পড়ে সিলেট ছাত্রলীগে। টাকার বিনিময়ে এই কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেন জেলা ছাত্রলীগের সর্বশেষ কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ। অপরদিকে, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মহানগর কমিটিকেও প্রত্যাখ্যান করে বিক্ষোভ মিছিল ও সভা করেন নেতাকর্মীদের একাংশ। পরবর্তীতে বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে রাজপথে টানা আন্দোলন কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেন জেলা ছাত্রলীগের বিদ্রোহী অংশের নেতৃত্ব দানকারী সাবেক সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন