আ.লীগ-বিএনপি মানুষের প্রত্যাশা পূরণে ব্যর্থ: জিএম কাদের
jugantor
আ.লীগ-বিএনপি মানুষের প্রত্যাশা পূরণে ব্যর্থ: জিএম কাদের

  যুগান্তর প্রতিবেদক  

০৩ ডিসেম্বর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদের বলেছেন, আওয়ামী লীগকে দেশের মানুষ আর চায় না। আর বিএনপির ওপরও আস্থা নেই। কিন্তু জাতীয় পার্টির ওপর থেকে আস্থা হারায়নি সাধারণ মানুষ। দেশের মানুষ আবারও জাতীয় পার্টিকেই রাষ্ট্র ক্ষমতায় দেখতে চায়। তিনি বলেন, ১৯৯১ সালের পর থেকে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি বারবার রাষ্ট্র ক্ষমতায় গিয়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ করতে ব্যর্থ হয়েছে। তাই এই দুই দলের ওপর বিরক্ত দেশের মানুষ।

বৃহস্পতিবার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয় মিলনায়তনে বাংলাদেশ জনদল (বিজেডি) নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান এ কথা বলেন। তিনি বলেন, নতুন প্রজন্ম এবং বিশিষ্ট ব্যক্তি যারা রাজনীতির মাধ্যমে দেশ ও মানুষের সেবা করতে চায় তারা ইচ্ছে করলেই আওয়ামী লীগে যোগ দিতে পারছে না। আবার বিএনপির যে অবস্থা তাতে কেউই বিএনপিতে যোগ দিতে চাইবে না। কিন্তু দীর্ঘ ৩১ বছর রাষ্ট্র ক্ষমতার বাইরে থেকেও জাতীয় পার্টি তৃণমূল পর্যায়ে সংগঠিত আছে। নতুন প্রজন্ম ও বিশিষ্টজনদের জন্য জাতীয় পার্টির দরজা খোলা আছে। দেশ ও মানুষের কল্যাণে রাজনীতি করার সর্বোত্তম প্ল্যাটফর্মের নাম জাতীয় পার্টি। প্রত্যন্ত অঞ্চলে জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও সফল রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের বিশাল ভোট ব্যাংক আছে। এখন আমাদের কাজ হচ্ছে, দলকে সংগঠিত করা। জাতীয় পার্টির মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য সাহিদুর রহমান টেপা, রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, কেন্দ্রীয় নেতা এমএ রাজ্জাক খান, সমরেশ মণ্ডল মানিক, লোকমান হোসেন ভূঁইয়া রাজু, বাংলাদেশ জনদলের (বিজেডি) চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান জয় চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মখলেছুর রহমান হাবিব, আবুল হাশেম সরকার, মহাসচিব সেলিম আহমেদ, যুগ্ম মহাসচিব এসএম হারুন অর রশীদ প্রমুখ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

জয়পুরহাটে জাতীয় ছাত্র সমাজের জেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন : জয়পুরহাট প্রতিনিধি জানন, সদর উপজেলা পরিষদের মুজিবুর রহমান ঢালী স্মৃতি মিলনায়তনে জাতীয় ছাত্র সমাজ জেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে ভার্চুয়ালি প্রধান অতিথি হিসাবে যুক্ত হয়ে বক্তব্য দেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান। জাতীয় ছাত্র সমাজ জেলা শাখার সভাপতি গোলাম কিবরিয়া জনির সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাশেদের সঞ্চালনায় সম্মেলনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া-৩ আসনের এমপি জাতীয় পার্টির নেতা নূরুল ইসলাম তালুকদার, জয়পুরহাট জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি হেলাল উদ্দিন ও জাতীয় ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইব্রাহিম খান জুয়েল। এ সময় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, ‘অনেক শিক্ষিত তরুণ আছে, যারা দেশকে এগিয়ে নিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে, তারা সঠিকভাবে সেই সুযোগ পাচ্ছে না। তরুণদের জন্য সুযোগ সৃষ্টি করতে হবে।’ বক্তব্য দেন জাতীয় ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি মারুফ ইসলাম তালুকদার প্রিন্স, তনু মোস্তফা, অর্নব চৌধুরী, শাহরিয়ার রুবেল, কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া তনু, ইব্রাহিম খলিল ও আরিফ আলী এবং কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) শাখার সভাপতি ইউসুফ আলী। সম্মেলনের দ্বিতীয় পর্বে গোলাম কিবরিয়া জনিকে ছাত্র সমাজ জয়পুরহাট জেলা শাখার নতুন কমিটির সভাপতি, শামীম ইশতিয়াক জেমকে সাধারণ সম্পাদক ও রাতুল হাসান জয়কে সাংগঠনিক সম্পাদক হিসাবে ঘোষণা করা হয়।

আ.লীগ-বিএনপি মানুষের প্রত্যাশা পূরণে ব্যর্থ: জিএম কাদের

 যুগান্তর প্রতিবেদক 
০৩ ডিসেম্বর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদের বলেছেন, আওয়ামী লীগকে দেশের মানুষ আর চায় না। আর বিএনপির ওপরও আস্থা নেই। কিন্তু জাতীয় পার্টির ওপর থেকে আস্থা হারায়নি সাধারণ মানুষ। দেশের মানুষ আবারও জাতীয় পার্টিকেই রাষ্ট্র ক্ষমতায় দেখতে চায়। তিনি বলেন, ১৯৯১ সালের পর থেকে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি বারবার রাষ্ট্র ক্ষমতায় গিয়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ করতে ব্যর্থ হয়েছে। তাই এই দুই দলের ওপর বিরক্ত দেশের মানুষ।

বৃহস্পতিবার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয় মিলনায়তনে বাংলাদেশ জনদল (বিজেডি) নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান এ কথা বলেন। তিনি বলেন, নতুন প্রজন্ম এবং বিশিষ্ট ব্যক্তি যারা রাজনীতির মাধ্যমে দেশ ও মানুষের সেবা করতে চায় তারা ইচ্ছে করলেই আওয়ামী লীগে যোগ দিতে পারছে না। আবার বিএনপির যে অবস্থা তাতে কেউই বিএনপিতে যোগ দিতে চাইবে না। কিন্তু দীর্ঘ ৩১ বছর রাষ্ট্র ক্ষমতার বাইরে থেকেও জাতীয় পার্টি তৃণমূল পর্যায়ে সংগঠিত আছে। নতুন প্রজন্ম ও বিশিষ্টজনদের জন্য জাতীয় পার্টির দরজা খোলা আছে। দেশ ও মানুষের কল্যাণে রাজনীতি করার সর্বোত্তম প্ল্যাটফর্মের নাম জাতীয় পার্টি। প্রত্যন্ত অঞ্চলে জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও সফল রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের বিশাল ভোট ব্যাংক আছে। এখন আমাদের কাজ হচ্ছে, দলকে সংগঠিত করা। জাতীয় পার্টির মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য সাহিদুর রহমান টেপা, রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, কেন্দ্রীয় নেতা এমএ রাজ্জাক খান, সমরেশ মণ্ডল মানিক, লোকমান হোসেন ভূঁইয়া রাজু, বাংলাদেশ জনদলের (বিজেডি) চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান জয় চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মখলেছুর রহমান হাবিব, আবুল হাশেম সরকার, মহাসচিব সেলিম আহমেদ, যুগ্ম মহাসচিব এসএম হারুন অর রশীদ প্রমুখ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

জয়পুরহাটে জাতীয় ছাত্র সমাজের জেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন : জয়পুরহাট প্রতিনিধি জানন, সদর উপজেলা পরিষদের মুজিবুর রহমান ঢালী স্মৃতি মিলনায়তনে জাতীয় ছাত্র সমাজ জেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে ভার্চুয়ালি প্রধান অতিথি হিসাবে যুক্ত হয়ে বক্তব্য দেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান। জাতীয় ছাত্র সমাজ জেলা শাখার সভাপতি গোলাম কিবরিয়া জনির সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাশেদের সঞ্চালনায় সম্মেলনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া-৩ আসনের এমপি জাতীয় পার্টির নেতা নূরুল ইসলাম তালুকদার, জয়পুরহাট জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি হেলাল উদ্দিন ও জাতীয় ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইব্রাহিম খান জুয়েল। এ সময় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, ‘অনেক শিক্ষিত তরুণ আছে, যারা দেশকে এগিয়ে নিতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে, তারা সঠিকভাবে সেই সুযোগ পাচ্ছে না। তরুণদের জন্য সুযোগ সৃষ্টি করতে হবে।’ বক্তব্য দেন জাতীয় ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি মারুফ ইসলাম তালুকদার প্রিন্স, তনু মোস্তফা, অর্নব চৌধুরী, শাহরিয়ার রুবেল, কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া তনু, ইব্রাহিম খলিল ও আরিফ আলী এবং কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) শাখার সভাপতি ইউসুফ আলী। সম্মেলনের দ্বিতীয় পর্বে গোলাম কিবরিয়া জনিকে ছাত্র সমাজ জয়পুরহাট জেলা শাখার নতুন কমিটির সভাপতি, শামীম ইশতিয়াক জেমকে সাধারণ সম্পাদক ও রাতুল হাসান জয়কে সাংগঠনিক সম্পাদক হিসাবে ঘোষণা করা হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন