রাজশাহীতে অপ্রতিরোধ্য কালাম মোল্লা

নিজস্ব ডেরা থেকে মাদক নেটওয়ার্ক নিয়ন্ত্রণ

  রাজশাহী ব্যুরো ১৪ জানুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

অপ্রতিরোধ্য হয়ে উঠেছেন মাদক ব্যবসায়ী কালাম মোল্লা। রাজশাহীর বাঘা এবং চারঘাটের মাদক ব্যবসার ডন নামে খ্যাত কালামের রয়েছে শক্তিশালী সিন্ডিকেট। দুই ভাইকে সঙ্গে নিয়ে গড়ে তুলেছেন প্রাইভেট বাহিনী। কালামের বিরুদ্ধে বাঘা এবং চারঘাটসহ দেশের বিভিন্ন থানায় রয়েছে ডজনখানেক মামলা। কিন্তু দিব্যি এলাকায় নিজস্ব ডেরায় অবস্থান নিয়ে মাদকের নেটওয়ার্ক নিয়ন্ত্রণ করছেন। অভিযোগ রয়েছে, দেড়যুগ মাদক ব্যবসা করে তিনি এখন অঢেল টাকার মালিক। শুধু তাই নয়, অন্য মাদক ব্যবসায়ীদের কাছে তিনি সুদে টাকা লগ্নি করছেন। আর এ টাকা দিয়েই তিনি ‘ম্যানেজ’ করছেন পুলিশ। বাঘার হেলালপুর গ্রামের আকছেদ মোল্লার ছেলে মোস্ট ওয়ানটেড মাদক ব্যবসায়ী কালাম মোল্লাকে খুঁজে পাচ্ছে না পুলিশ।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কালাম মোল্লার বিরুদ্ধে বাঘা এবং চারঘাট ছাড়াও রাজধানীর কয়েকটি থানায় ডজনখানেক মামলা রয়েছে। এসব মামলায় তিনিসহ তার দুই ভাই সামাদ মোল্লা এবং ইদ্রিস মোল্লা আসামি। ঢাকার তুরাগ থানার মামলায় তাদের বিরুদ্ধে ফেনসিডিলসহ মাইক্রোবাস ফেলে পালানোর অভিযোগ আনা হয়েছে। এ ছাড়া চারঘাট থানার মামলায় ইয়াবাসহ আটক একজন আসামি কালাম মোল্লার কাছ থেকে ইয়াবা কিনেছিলেন বলে আদালতে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন। বাঘা থানার মামলায় ফেনসিডিলসহ ব্যক্তিগত গাড়ি ফেলে পালিয়ে যাওয়ার পর পুলিশ তদন্ত করে কালাম মোল্লার নামে অভিযোগপত্র দিয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, কালাম মোল্লার নামে এসব মামলায় অভিযোগ দেয়া হলেও পুলিশ তাকে গ্রেফতার করছে না। সর্বশেষ গত বছরের ৩০ ডিসেম্বর কালাম মোল্লার বিরুদ্ধে বাঘা থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা করা হয়েছে। এ মামলায় একশ’ বোতল ফেনসিডিলসহ গ্রেফতার হাবিবুর রহমান হাবিব কালামের বিরুদ্ধে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন। স্বীকারোক্তিতে হাবিব পাবনার কুমারগাড়ি গ্রামের রতন সেখের ছেলে খোকনের নির্দেশে কালাম মোল্লার কাছ থেকে ফেনসিডিলগুলো কিনেছিলেন বলে জানিয়েছেন।

এ মামলার বাদী বাঘা থানার এসআই সাইফুল ইসলাম। তিনি এজাহারে উল্লেখ করেছেন, মামলার আসামি কালাম মোল্লা অবৈধ মাদক ব্যবসা করে স্বল্পদিনে প্রচুর অর্থ সম্পদের মালিক হয়েছেন। তার এবং তার পরিবারের সদস্যদের ব্যাংকে সংরক্ষিত অর্থ ও পর্যাপ্ত সম্পদ অর্জন অবৈধ মাদক ব্যবসার ইঙ্গিত বহন করে। এছাড়াও এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের অর্থের জোগান দিয়ে সহায়তা করে লভ্যাংশ গ্রহণসহ নিজে ব্যবসা করে বাড়ি, গাড়ি ও প্রচুর অর্থ-সম্পদের মালিক হয়েছেন। কালাম মোল্লার বৈধ আয়ের উৎস খুঁজে পাওয়া যায়নি। তার বিপুল পরিমাণ অর্থ-সম্পদ অর্জন তার আয়ের উৎসের সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়। এ কারণে বিষয়টি গভীরভাবে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন এসআই সাইফুল ইসলাম।

শক্তিশালী মাদক নেটওয়ার্ক পরিচালনা, অঢেল অর্থ অর্জন এবং প্রাইভেট বাহিনী গঠনের অভিযোগের ব্যাপারে কালাম মোল্লার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়। কিন্তু তার অবস্থান নিশ্চিত না হওয়ার কারণে তার বক্তব্য পাওয়া সম্ভব হয়নি। অভিযোগের ব্যাপারে বাঘা থানার ওসি রেজাউল হাসান রেজা বলেন, কালাম মোল্লার সিন্ডিকেটের কাছ থেকে পুলিশের অর্থগ্রহণের বিষয়টি সঠিক না। এ বিষয়ে চারঘাট থানার ওসির সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি ফোন না ধরায় বক্তব্য পাওয়া সম্ভব হয়নি।

 
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

 

gpstar

 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

E-mail: [email protected], [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter