প্রতীক বরাদ্দের আগেই পোস্টার ছাপানোর ধুম লিটন-বুলবুলের

  আনু মোস্তফা, রাজশাহী ব্যুরো ০৯ জুলাই ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন
রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। ফাইল ছবি

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে প্রতীক বরাদ্দের আগেই প্রধান দুই দলের মেয়র প্রার্থীদের পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপানোর ধুম পড়েছে। এরমধ্যে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের পোস্টার, প্রচারপত্র, হ্যান্ডবিল ও ব্যাজ ছাপানোর কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে।

আর বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলও পোস্টার-প্রচারপত্র ছাপাতে শুরু করেছেন। এদিকে প্রতীক বরাদ্দের আগে প্রচারপত্রসহ ভোট প্রার্থনার কোনো উপকরণ ছাপানো নির্বাচনী আচরণবিধির লঙ্ঘন বলছেন সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা। তবে প্রার্থীরা বলছেন এতে আচরণবিধি লঙ্ঘন হচ্ছে না।

রাজশাহী আঞ্চলিক নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা গেছে, আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী লিটন কমিশনে দাখিল করা ঢ-ফরমে দেয়া তথ্যানুযায়ী তার পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপাবেন নিউমার্কেটের বিকল্প প্রেসে।

হিসাব অনুযায়ী লিটন ১ লাখ ৫০ হাজার পোস্টার, ১ লাখ লিফলেট এবং ১৫ লাখ হ্যান্ডবিল ছাপাবেন। অন্যদিকে বিএনপির প্রার্থী বুলবুল প্রভাত প্রিন্টিং প্রেস থেকে ৬০ হাজার পোস্টার, ১০ লাখ লিফলেট ও ৩ লাখ হ্যান্ডবিল ছাপাবেন।

শনি ও রোববার নিউমার্কেটের বিকল্প প্রেসে গিয়ে দেখা যায়, অন্যসব কাজ ফেলে প্রেসের কর্মচারীরা লিটনের পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপাতে ব্যস্ত। এসব পোস্টার কবে থেকে এবং কতসংখ্যক ছাপানো হচ্ছে এ ব্যাপারে কথা বলতে রাজি হননি প্রেসের ব্যবস্থাপক ইউসুফ আলী। তবে কর্মচারীরা জানিয়েছেন, এক সপ্তাহ ধরে লিটনের পোস্টার, প্রচারপত্র, হ্যান্ডবিল ও ব্যাজ ছাপছেন তারা।

তবে শুধু পোস্টার ছাপানোই নয়, বর্ষাকাল বিবেচনায় ছাপানো পোস্টারগুলো যত্নসহকারে লেমিনেটিংও করা হচ্ছে উপহার সিনেমা হল এলাকার মতিন লেমিনেশনে। প্রতিষ্ঠানের মালিক আবদুল মতিন জানান, মেয়র প্রার্থী লিটনের ৪০ হাজার পোস্টার লেমিনেশনের অর্ডার পেয়েছেন। এক সপ্তাহ ধরেই কাজ চলছে। বিএনপি প্রার্থী বুলবুলও ১০ হাজার পোস্টার লেমিনেশনের জন্য পাঠিয়েছেন।

এদিকে গোরহাঙ্গা নগর ভবনসংলগ্ন প্রভাত প্রিন্টিং প্রেসে দিনরাত চলছে ধানের শীষের পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপার কাজ। প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপক আমিনুল ইসলাম বলেন, তিন দিন ধরে বুলবুলের পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপাচ্ছেন তারা। এরমধ্যে ৪০ হাজার পোস্টার এবং ৫০ হাজার হ্যান্ডবিল ছাপা শেষ হয়েছে। কাউন্সিলর প্রার্থীরাও তাদের প্রেসে পোস্টার ছাপাবেন বলে জানান তিনি।

নির্বাচনী তফসিল অনুযায়ী, ১০ জুলাই মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা প্রতীক বরাদ্দ পাবেন। আচরণবিধি অনুযায়ী প্রতীক পাওয়ার আগে কোনো প্রার্থী পোস্টারসহ নির্বাচনী প্রচারমূলক কোনো উপকরণই ছাপাতে পারবে না। কিন্তু এ বিধি মানছেন না আওয়ামী লীগ ও বিএনপির দুই মেয়র প্রার্থী।

এ সম্পর্কে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, পোস্টার বা প্রচারপত্র ছাপার কাজ চললেও তা প্রেসেই থাকছে। সেগুলো বাইরে প্রচার করা হচ্ছে না। ফলে এতে আচরণবিধি লঙ্ঘনের কিছু নেই। একই মত দেন বিএনপির মেয়র প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলও।

তবে আওয়ামী লীগের নগর সম্পাদক ডাবলু সরকার বলেন, পোস্টার ও প্রচারপত্র ছাপানোর কাজ এগিয়ে রাখা হচ্ছে। ১০ জুলাই প্রতীক পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে যাতে নগরীর সর্বত্র তা দ্রুত ছড়িয়ে দেয়া যায়। এতে আচরণবিধি লঙ্ঘনের কিছু নেই।

অন্যদিকে নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন বলেন, পোস্টার প্রেসে ছাপানো হচ্ছে। সেগুলো অন্য কোথাও দেয়া হচ্ছে না। এতে দোষের কিছু নেই।

এ বিষয়ে সিনিয়র জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান বলেন, প্রতীক বরাদ্দের আগে কোনো প্রার্থীই প্রচারপত্র প্রকাশ করতে পারবেন না। দুই মেয়র প্রার্থী প্রচারপত্র ছাপালেও তা কমিশনের নজরে পড়েনি বলে জানান তিনি।

মেয়র পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট মুরাদ মোরশেদ বলেন, দলীয় প্রতীক পাওয়া রাজনীতিক দলের প্রার্থীরা আগাম পোস্টার ছাপাচ্ছেন। অন্যদিকে যারা স্বতন্ত্র প্রার্থী তারা সেই সুযোগ পাচ্ছেন না। এতে নির্বাচনী প্রচারে বৈষম্য সৃষ্টি হচ্ছে। সুশাসনের জন্য নাগরিকের (সুজন) আঞ্চলিক সমম্বয়কারী সুব্রত পাল বলেন, নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় সব প্রার্থীর সমান সুযোগ থাকা উচিত।

ঘটনাপ্রবাহ : রাজশাহী-বরিশাল-সিলেট সিটি নির্বাচন ২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter