বিবিএসের জরিপ: গ্রামে কাজের খোঁজে সাড়ে ১৫ লাখ মানুষ

সবেচেয়ে বেশি কাজ খুঁজছেন চট্টগ্রামে, কম বরিশাল বিভাগে * পল্লী এলাকায় কোনো কাজ করেন না ৬২ লাখ মানুষ

  হামিদ-উজ-জামান ০১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

মানুষ

দেশের পল্লী এলাকায় কর্মসংস্থানের সুযোগ কমছে। গ্রামের ১৫ লাখ ৪৫ হাজার ৯৩ জন মানুষ কাজ খুঁজে বেড়াচ্ছেন। এর মধ্যে বিভাগীয়পর্যায়ে সবচেয়ে বেশি কাজের খোঁজ করছেন চট্টগ্রামের মানুষ।

সবচেয়ে কমসংখ্যক লোক কাজ খুঁজছেন বরিশাল বিভাগে। অন্যদিকে জেলাভিত্তিক পর্যালোচনা করলে দেখা যায়, সবচেয়ে বেশি কাজ খুঁজছেন সিরাজগঞ্জ এবং সবচেয়ে কম কাজ খুঁজছেন ঠাকুরগাঁওয়ের মানুষ। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) ‘রিপোর্ট অন এগ্রিকালচার অ্যান্ড রুরাল স্ট্যাটেসটিকস-২০১৮’ শীর্ষক এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এ চিত্র। প্রথমবারের মতো এরকম জরিপ পরিচালনা করেছে সংস্থাটি।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে জরিপ পরিচালনার দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রকল্প পরিচালক আকতার হাসান খান যুগান্তরকে বলেন, ৬৪ জেলার এক হাজার ৯২০টি প্রাইমারি স্যাম্পল ইউনিট (পিএসইউ) থেকে তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, যেসব পরিবার থেকে তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছিল সেসব পরিবারের সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় পরিবারের কোন সদস্য কি করছেন? তখন কাজ খোঁজার এ চিত্রটি পাওয়া যায়। তিনি আরও বলেন, যারা বিভিন্ন চাকরির জন্য আবেদন করেছেন, কিংবা কাজ পেলে করবেন খোঁজখবর নিচ্ছেন, তাদের এই খোঁজার তালিকায় ধরা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিভাগীয়পর্যায়ে সবচেয়ে বেশি চট্টগ্রাম বিভাগে কাজের খোঁজ করছেন তিন লাখ ২৭ হাজার ৬৪১ জন। সবচেয়ে কম মানুষ অর্থাৎ বরিশাল বিভাগে রয়েছে এক লাখ এক হাজার ৫১৫ জন। অন্য বিভাগগুলোর মধ্যে ঢাকায় কাজ খুঁজছেন দুই লাখ ৭৭ হাজার ৯৭, রাজশাহীতে দুই লাখ ২৫ হাজার ২৩৩, খুলনায় এক লাখ ৯৯ হাজার ৩৮৮, ময়মনসিংহে এক লাখ ৩৭ হাজার ৬৭৮, রংপুরে এক লাখ ৫৪ হাজার ৯০৩ এবং সিলেটে এক লাখ ২১ হাজার ৬৪১ জন কাজ খুঁজছেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দেশের পল্লী এলাকায় ছয়ের ঊর্ধ্ববয়সী রয়েছে ১০ কোটি ৭৮ লাখ ৪ হাজার ৫৩৮ জন। এদের মধ্যে বিভিন্ন কাজে নিয়োজিত রয়েছেন চার কোটি ৭০ লাখ ৬৮ হাজার ৬৩৪ জন। এছাড়া গৃহকর্মে নিয়োজিত রয়েছেন দুই কোটি ৮ লাখ ৪৭ হাজার ৭০ জন। ছাত্র-ছাত্রী রয়েছেন তিন কোটি ২১ লাখ ৯০ হাজার ২৪২ জন এবং কিছুই করে না এ রকম ৬২ লাখ ১৫ হাজার ৭৪৭ জন। প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, ১৫ বছর ও তদূর্ধ্ব মানুষের মধ্যে পল্লী এলাকায় কৃষিকাজে নিয়োজিত রয়েছেন দুই কোটি ৪৩ লাখ ৯২ হাজার ৮৭৮ জন। এর বাইরে শিল্প খাতে ৮১ লাখ ৮৭ হাজার ৪৯৩ জন এবং সেবা খাতে এক কোটি ৪৪ লাখ ৩৯ হাজার ২৩১ জন নিয়োজিত রয়েছেন।

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার বেলগছা ইউনিয়নের বাবউল্লাহ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং ধানচাষী মির্জা মো. নিজাম উদ্দিন যুগান্তরকে বলেন, আগে গ্রামে কাজের প্রচুর সংকট থাকলেও এখন সে অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে। যেমন মৌসুমের সময় কৃষি শ্রমিকের ব্যাপক সংকট দেখা দেয়। আউশ ধানের চারা লাগানো এবং কাটার সময় কেউ দিন হাজিরাভিত্তিক কাজ করে না। তারা চুক্তিভিত্তিক কাজ করে। ফলে একেকজন কৃষি শ্রমিক দিনে ৭০০-৮০০ টাকা আয় করে। এছাড়া বছরের অন্য সময়গুলোতে কৃষি শ্রমিকের দিনমজুরি থাকে প্রায় ৩০০-৪০০ টাকা। সেইসঙ্গে আগে গৃহস্থালীর কাজের জন্য মহিলা পাওয়া যেত। এখন টাকা দিয়েও মহিলাদের পাওয়া যায় না। তবে শিক্ষিত বেকার কিছু লোক আছেন যারা মনের মতো কাজ পায় না বলে কাজ খুঁজে বেড়ান।

প্রতিবেদনটি পর্যালোচনা করলে দেখা যায়, জেলাপর্যায়ে সবচেয়ে বেশি কাজ খুঁজছেন সিরাজগঞ্জ জেলার ৫৭ হাজার ২৯৭ জন মানুষ। সবচেয়ে কম কাজ খুঁজছেন ঠাকুরগাঁও জেলার নয় হাজার ৪১৭ জন। এছাড়া অন্য কয়েকটি জেলার চিত্র হচ্ছে, কুড়িগ্রামে ৩৩ হাজার ৪৮৭ জন মানুষ কাজ খুঁজছেন। এর বাইরে বরগুনা জেলায় ১৬ হাজার ২৬৬ জন, বরিশালে ২১ হাজার ৫৩৬ জন, ভোলায় ১৬ হাজার ৮৬২ জন, ঝালকাটিতে ছয় হাজার ১৮০ জন, পটুয়াখালীতে ২২ হাজার ৭২৯ জন, পিরেজপুরে ১৭ হাজার ৯৩৮ জন, বান্দরবানে পাঁচ হাজার ২৪৫ জন, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৪৭ হাজার ৪৬০ জন, চাঁদপুরে ২৮ হাজার ৩শ’ জন, চট্টগ্রামে ৭৫ হাজার ৮০৩ জন, কুমিল্লায় ৫৬ হাজার ৭০ জন, কক্সবাজারে ২৫ হাজার ৮৮৮ জন, ফেনীতে ১৫ হাজার ৭৬৫ জন, কিশোরগঞ্জে আট হাজার ৮৯১ জন এবং লক্ষ্মীপুরে ১৮ হাজার ৬৭২ জন কাজ খুঁজছেন।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×