খাবার পানি সংকট

উপকূলীয় এলাকার জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নিন

  যুগান্তর ডেস্ক    ২২ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

খাবার পানি সংকট
পানি সংকট। ছবি: সংগৃহীত

উপকূলীয় এলাকাসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে নিরাপদ খাবার পানির সংকট রয়েছে বটে, তবে পরিস্থিতি একেবারে ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে দক্ষিণাঞ্চলের জেলা খুলনা, বাগেরহাট ও সাতক্ষীরার কয়েকটি উপজেলায়।

ওইসব অঞ্চলে বিশুদ্ধ খাবার পানির জন্য রীতিমতো হাহাকার তৈরি হয়েছে। পরিস্থিতি এমন জটিল আকার ধারণ করেছে যে, পরিবারের খাবার পানি জোগানোর জন্য খুব ভোরে বের হয়ে তা সংগ্রহ করে ফিরতে বিকাল পর্যন্ত হয়ে যাচ্ছে গৃহবধূ বা দায়িত্বশীলদের।

পানির দেশ হিসেবে পরিচিত আমাদের এ ভূখণ্ডের এমন চিত্র কোনোভাবেই কাম্য হতে পারে না।

জানা যায়, বিশুদ্ধ যাচাই-বাছাই তো দূরের কথা, কোনোমতে খাওয়া যায় এমন পানি সংগ্রহ করতেই খুলনার উপকূলীয় দাকোপ, কয়রা এবং বাগেরহাটের মোংলা, শরণখোলা ও সাতক্ষীরার শ্যামনগর এবং আশাশুনি উপজেলায় পানির দুষ্পাপ্যতার চিত্র এটি।

এসব উপজেলায় গভীর নলকূপ কার্যকর না হওয়ায় বছরের ২-৩ মাস তারা বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ করে চলতে পারলেও বাকি সময় পানির জন্য হাহাকার লেগেই থাকে।

জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব, ঘূর্ণিঝড়ে সাগরের লোনা পানি পুকুর, নদী-নালায় ঢুকে সুপেয় পানিকে লোনা করে ফেলা এবং অনিয়ন্ত্রিত হারে ভূগর্ভস্থ পানি উত্তোলনের কারণে এমন পরিস্থিতি তৈরি হলেও বিষয়টিতে মনোযোগ দেয়া হচ্ছে না।

এমন পরিস্থিতিতে ওইসব উপজেলায় গভীর নলকূপ বসিয়ে লিটারপ্রতি ৫০ পয়সা এবং খুলনা থেকে জারপ্রতি ৭০-৮০ টাকায় পানির রমরমা ব্যবসা গড়ে উঠেছে।

কিন্তু অবস্থাসম্পন্ন মানুষ এভাবে নিজেদের চাহিদা মেটাতে পারলেও দরিদ্রদের পড়তে হচ্ছে বিড়ম্বনায়। ‘পানির অপর নাম জীবন’ হওয়ায় অমূল্য এ সম্পদটিকে ফ্রি ও সহজলভ্য করে দিয়েছে প্রকৃতি।

ফলে জীবন বাঁচানোর এ উপকরণটি নিয়ে মানুষের ভোগান্তির শিকার বা জিম্মি হওয়া অগ্রহণযোগ্য। উপযুক্ত স্থানে গভীর নলকূপ স্থাপন ও সংরক্ষিত পুকুর বৃদ্ধি করে দ্রুত এ সমস্যা সমাধানের উদ্যোগ নেয়ার বিকল্প নেই বলে আমরা মনে করি।

ইউনিসেফের মতে, নিরাপদ উৎস থেকে পানি সংগ্রহের সুযোগ নেই- এমন ১০টি দেশের তালিকায় বাংলাদেশ অন্যতম। দেশে বন্যা, ঘূর্ণিঝড় ও ভূমিকম্পসহ বড় ধরনের প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময় বিষয়টি টের পাওয়া যায়।

উপকূলীয় এলাকায় সমুদ্রের নোনাপানির কারণে খাবার পানি সংকট হলেও রাজশাহীসহ উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় কিছু অঞ্চলেও গভীর নলকূপে পানি না পাওয়ার খবর পাওয়া যায়।

কৃষির সেচ, শিল্পের জন্য অপরিকল্পিতভাবে পানি উত্তোলনের কারণে ভূগর্ভস্থ পানির স্তর নিচে নেমে যাওয়া এর অন্যতম কারণ।

এ অবস্থায় ভূগর্ভস্থ পানির ওপর চাপ না দেয়া, উপকূলীয় এলাকায় বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ, গভীর নলকূপ স্থাপনসহ নিরাপদ খাবার পানি নিশ্চিত করার প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা সরকারকেই নিশ্চিত করতে হবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter