কলসিন্দুরের মেয়েদের পদকে আগুন

দুর্বৃত্তদের উদ্দেশ্য খতিয়ে দেখতে হবে

  যুগান্তর ডেস্ক    ১৬ মে ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ফুটবল

নারী ফুটবলে আলোড়ন সৃষ্টিকারী ময়মনসিংহের ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুর মাধ্যমিক উচ্চবিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজের অফিস কক্ষে দুর্বৃত্তদের আগুন লাগানোর ঘটনা ঘটেছে। এতে শিক্ষকদের সনদ, কাগজপত্র, স্কুল-কলেজের জরুরি নথির পাশাপাশি মেয়েদের ফুটবলে অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে প্রাপ্ত নানা সনদ, পদক ও স্বীকৃতির কাগজপত্র পুড়ে গেছে।

রমজানের বন্ধের সময় দুর্বৃত্তের দেয়া আগুনে আলোচিত একটি বিদ্যালয়ের খোদ অফিসকক্ষে থাকা জরুরি নথি পুড়ে যাওয়া রহস্যজনক। এর পেছনে কলেজটি জাতীয়করণের বিরোধিতা এবং প্রবেশপত্র কেলেঙ্কারির কারণে একজন শিক্ষককে বরখাস্ত করার প্রতিক্রিয়ার পাশাপাশি মেয়েদের খেলাধুলার বিরোধিতাকারীদের কোনো ইন্ধন আছে কিনা, খতিয়ে দেখা দরকার। কারণ বিভিন্ন সময় কলসিন্দুরের কৃতী মেয়ে ফুটবলাররা অনেক হুমকি-ধমকি পেয়েছে। এমনকি নির্যাতনের শিকারও হয়েছে।

জানা যায়, ৬ মে থেকে স্কুলটিতে রমজান ও ঈদের ছুটি চলছে। পাশাপাশি দুর্বল শিক্ষার্থীদের জন্য ছুটির মধ্যেও বিশেষ ক্লাসের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। মঙ্গলবার এ ক্লাস নিতে এসে একজন শিক্ষক অফিসকক্ষে আগুন জ্বলতে দেখেন। উদ্বেগের বিষয়, ফটকে তালা মারা থাকার পরও অফিসকক্ষের ভেতরে আলমারি ভেঙে দুর্বৃত্তায়নের ঘটনাটি ঘটেছে।

এমনকি দুর্বৃত্তরা একটি পেনড্রাইভও নিয়ে গেছে। এ অবস্থায় দুর্বৃত্তদের উদ্দেশ্য যাই থাকুক, তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া এবং দোষীদের বিচারের আওতায় আনার বিকল্প নেই। মেয়েদের খেলাধুলা, বিশেষত ফুটবলে অবদান রাখা নামি একটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এ ধরনের ঘটনা চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দেয়, আমাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো, বিশেষত মেয়েদের স্কুল-কলেজগুলোতে যথার্থ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেই। দেশজুড়ে বিষয়টিতে জোর নজর দেয়া দরকার।

কলসিন্দুরের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মেয়েরা তিনবার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব গোল্ডকাপে চ্যাম্পিয়নশিপ অর্জন করে। পরে এ খুদে শিক্ষার্থীরা মাধ্যমিকে ভর্তি হয়। দেশে-বিদেশে নারীদের ফুটবলে তারা অনেক কৃতিত্বের স্বাক্ষর রেখেছে। জাতীয় দলের কৃতী খেলোয়াড় মারিয়া, মারজিয়া ও সানজিদাসহ বয়সভিত্তিক বিভিন্ন দলে অন্তত ১০ জন ফুটবলার কলসিন্দুরের শিক্ষার্থী। ফলে এতে দুর্বৃত্তদের আগুন দেয়ার বিষয়টি উদ্বেগের বৈকি।

বিভিন্ন সময় বিদ্যালয়টির নারী ফুটবলার ও তাদের অভিভাবকরা হুমকি পাওয়ায় অফিসকক্ষে আগুনের ঘটনা তাদের উদ্বেগ আরও বাড়াবে। এ কারণে দ্রুত দুর্বৃত্তদের গ্রেফতার করে আগুন দেয়ার প্রকৃত কারণ উদঘাটন করতে হবে এবং খ্যাতিমান প্রতিষ্ঠানটির নিরাপত্তায় জোর দিতে হবে।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×