এইচএসসি পরীক্ষা সুষ্ঠু হোক

সবাইকে দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে হবে

  সম্পাদকীয় ০৪ এপ্রিল ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

এইচএসসি

কয়েকটি বিশেষ পদক্ষেপ নেয়ার ফলে ২ এপ্রিল শুরু হওয়া এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার প্রথম দিনে প্রশ্ন ফাঁস ঠেকানো সম্ভব হয়েছে। এটি একটি স্বস্তির খবর। দেশবাসীর প্রত্যাশা, আগামীতে আর কোনো প্রশ্নপত্র ফাঁস হবে না। তবে দুঃখজনক হল, প্রথম দিনের পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হলেও দেশের বিভিন্ন স্থানে বেশকিছু অনিয়মের খবর পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার যুগান্তরে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, দিনাজপুরের গোয়ালডিহি টেকনিক্যাল অ্যান্ড বিজনেস ম্যানেজমেন্ট কলেজের সাত শিক্ষার্থীকে জিম্মি করে প্রবেশপত্রের জন্য ছাত্রপ্রতি অতিরিক্ত ৫০০ টাকা আদায় করেছেন কলেজের অধ্যক্ষ, আর ওই প্রতিষ্ঠানের এক প্রভাষক তাকে এ কাজে সহযোগিতা করেছেন। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, অধ্যক্ষের দাবিকৃত অতিরিক্ত অর্থ পরিশোধ করতে তাদের বাধ্য করা হয়।

ওই সাত শিক্ষার্থী অধ্যক্ষের দাবি পূরণ করে যখন পরীক্ষার হলে প্রবেশ করেছে ততক্ষণে পরীক্ষার ৪০ মিনিট পেরিয়ে গেছে, অর্থাৎ অধ্যক্ষের দাবি পূরণ করতে গিয়ে ওই সাত শিক্ষার্থীর জীবনের অতি গুরুত্বপূর্ণ ৪০ মিনিট হারিয়ে গেল। একজন অধ্যক্ষের এমন দুর্নীতির খবরে সবাই মর্মাহত হবে, এটাই স্বাভাবিক। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষ শিক্ষার্থীদের জিম্মি করে টাকা আদায়ের বিষয়টিকে হালকাভাবে দেখানোর চেষ্টা করলেও বিষয়টি মোটেও হালকা নয়।

প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে গাজীপুরের একটি কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধেও। গাজীপুর কিংস স্কুল অ্যান্ড কলেজের কয়েকজন এইচএসসি পরীক্ষার্থীকে প্রবেশপত্র দেয়ার আশ্বাস দিয়ে মোটা অংকের টাকা নিয়ে গা-ঢাকা দিয়েছেন কলেজের অধ্যক্ষ। ২ এপ্রিল ওই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা গিয়ে ক্লাস রুম ও অফিস রুম বন্ধ দেখে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন। বিনা নোটিশে এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার নজিরবিহীন ঘটনায় সংশ্লিষ্ট সবাই বিস্মিত হয়েছেন। যেসব শিক্ষক এ ধরনের দুর্নীতির দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন, তারা আরও কত রকম দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত রয়েছেন, সেসবও খতিয়ে দেখা দরকার।

এইচএসসি পরীক্ষার প্রথম দিনে টঙ্গী পাইলট স্কুল অ্যান্ড গার্লস কলেজ কেন্দ্রে ভুল প্রশ্নপত্র বিতরণের ঘটনায় কেন্দ্র সচিবসহ দু’জনকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এছাড়া গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার পিয়ার আলী কলেজ কেন্দ্রে ১৫ মিনিট দেরিতে প্রশ্নপত্র সরবরাহের অভিযোগ করেছেন পরীক্ষার্থীরা। এসব ঘটনায় যাদের অবহেলা ছিল, তাদের চিহ্নিত করে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া দরকার।

চলমান এইচএসসির সব পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হওয়ার ক্ষেত্রে কোনো সমস্যা সৃষ্টি হলে কর্তৃপক্ষ দ্রুত সে সমস্যার সমাধান করবে, এটাই সবার প্রত্যাশা।

ঘটনাপ্রবাহ : এইচএসসি-২০১৮

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter