পটুয়াখালী-৩ (গলাচিপা-দশমিনা)

আ’লীগ মাঠে : বিএনপিতে কোন্দল

  মশিউর রহমান বাবুল, গলাচিপা ০৫ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

পটুয়াখালী-৩ (গলাচিপা-দশমিনা)
আ খ ম জাহাঙ্গীর হোসেইন, গোলাম মোস্তফা, হাসান মামুন, গোলাম মোস্তফা, কামরান শাহীদ প্রিন্স, ফোরকান মিয়া (বাম থেকে)

পটুয়াখালী-৩ আসনে মনোনয়ন পেতে সম্ভাব্য প্রার্থীরা একদিকে ঢাকায় লবিং করছেন অন্যদিকে মাঠেও জোর জনসংযোগ করছেন।

ঈদুল আজহার আগ থেকে শুরু করে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির প্রার্থীরা এখন পর্যন্ত ম্যারাথন গণসংযোগ ও কর্মিসভা করে ব্যস্ত সময় পার করছেন।

নির্বাচনে অংশ নেয়া না নেয়া নিয়ে বিএনপি দোলাচলে দোলায় এ আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশীরাও তাদের গণসংযোগসহ নির্বাচনী কর্মকাণ্ড সীমিত আকারে চালিয়েছেন। এদিকে প্রচার-প্রচারণায় আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা অনেক এগিয়ে রয়েছেন।

মনোনয়ন প্রত্যাশীর সংখ্যার আধিক্যও রয়েছে আওয়ামী লীগে। বিএনপিতে এখন পর্যন্ত মনোনয়ন প্রত্যাশী রয়েছেন ৪ জন। দৃশ্যত জামায়াতে ইসলামীর কোনো কার্যক্রম না থাকলেও তারা বেশ সংগঠিত রয়েছে।

এর প্রমাণ পাওয়া গেছে ঢাকায় গত মাসের ১৬ তারিখ জামায়াত ঘরানার এক নেতার মেয়ের বিয়ের অনুষ্ঠানে গলাচিপার জামায়াত নেতাদের ব্যাপক উপস্থিতি। এদিকে ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থী মাঠে তেমন তৎপরত না থাকলেও তাদের ভোটব্যাংক রয়েছে। এবারও এ দলটির প্রার্থী নির্বাচনে লড়বেন এটা নিশ্চিত করেছেন স্থানীয় নেতারা।

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে বর্তমান এমপি আখম জাহাঙ্গীর হোসাইন ২০০৯ সালের নির্বাচনের পর থেকেই দৃঢ়ভাবে সাংগঠনিক শৃঙ্খলা ফিরিয়ে এনেছেন। সাবেক এমপি গোলাম মাওলা রনি সাংগঠনিক অবস্থা একেবারে তলানিতে নিয়ে গিয়েছেন। সে অবস্থা বদলে সংগঠন এখন কঠিন দৃঢ়তার সঙ্গে চলমান রয়েছে। হাতে গোনা কিছু সুযোগসন্ধানী লোক এ অবস্থায় ভোল পাল্টে নতুন মনোনয়ন প্রত্যাশী নিয়ে ঢাকায় দেন দরবার করছেন।

মনোনয়ন প্রত্যাশী অন্যরা হলেন, আওয়ামী লীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের আইনবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট ফোরকান মিয়া, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক কামরান শাহীদ প্রিন্স মহাব্বাত, স্বেচ্ছাসেবক লীগের ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সম্পাদক আরিফুর রহমান টিটু, জেলা কৃষক লীগের সভাপতি তসলিম সিকদার, রাজু আহমেদ, দশমিনা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. আজিজ মিয়া, উপজেলা চেয়ারম্যান শওকত হোসেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনারের ভাগ্নে এসএম শাহজাদা, দশমিনা ইউপি চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন, ব্যবসায়ী এসএম ইকবাল হোসেন জোমাদ্দার।

বিএনপির সম্ভাব্য মনোনয়ন প্রত্যাশীরা হলেন, সাবেক এমপি শাহজাহান খান, উপজেলা সভাপতি শিল্পপতি গোলাম মোস্তফা, কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য সাবেক ছাত্রনেতা হাসান মামুন। প্রকাশ্যে না হলেও ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতা অ্যাডভোকেট গোলাম মোস্তফা মনোনয়ন পেতে কেন্দ্রে সক্রিয় রয়েছেন বলে পারিবারিক সূত্র জানায়।

১৯৯১ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারির নির্বাচন ছাড়া এ আসনটি আওয়ামী লীগের কব্জায় রয়েছে। এ আসন থেকে আখম জাহাঙ্গীর হোসাইন ৪ বার এমপি নির্বাচিত হন। ’৯৬-এর নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে ’৯৮ সালে তাকে প্রতিমন্ত্রী করা হয়।

এ আসনে ২০০৮ সালে দলীয় টানাপোড়েনে তাকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি। ২০১৪ সালে জানুয়ারির নির্বাচনে দলের মনোনয়ন পেয়ে তিনি ফের এমপি নির্বাচিত হন। বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ফল অনুযায়ী বরিশাল বিভাগে এ আসনটি আওয়ামী লীগের দুর্গ হিসেবে পরিচিত।

এদিকে গলাচিপা উপজেলা বিএনপিতে সাংগঠনিকভাবেই ত্রিশংকু অবস্থা বিরাজ করছে। মনোনয়ন ও দলের পদ-পদবি কেন্দ্র করে উপজেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি শাহজাহান খান ও বর্তমান সভাপতি গোলাম মোস্তফার বিরোধের সূত্রপাত ’৯৬ সাল থেকে।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক সরদার মো. শাহআলম যুগান্তরকে জানান, বড় দলে মনোনয়ন নিয়ে এক আধটু বিরোধ হতেই পারে। ঢাকা মহানগর দক্ষিণের আইনবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট ফোরকান মিয়া বলেন, আমার মনোনয়ন পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক কামরান শাহীদ প্রিন্স মহাব্বাত জানান, এলাকার গরিব মানুষসহ জনগণের জন্য কাজ করেছি।

শিল্পপতি গোলাম মোস্তফা জানান, আমি মনোনয়ন পেলে আসনের অন্যান্য এলাকা ছাড়াও চরবিশ্বাস ও চরকাজল এ ২ ইউনিয়নের ভোটাররা ঐক্যবদ্ধ হয়ে তাকে ভোট দেবেন বলে তিনি আশা করেন।

ব্যবসায়ী সংগঠন ও বিএনপি নেতা গোলাম মোস্তফা তার মনোনয়ন পাওয়ার সম্ভাবনার কথা জানিয়ে বলেন, দীর্ঘদিন দলের জন্য কাজ করেছি। তার প্রতিদান অবশ্যই দল দেবে। মনোনয়নের ব্যাপারে বিএনপি নেতা হাসান মামুন বলেন, দলের জন্য কাজ করছি, বিএনপি সরকারের সময়ে গলাচিপা ও দশমিনার উল্লেখযোগ্য সংখ্যক শিক্ষিত যুবকের কর্মসংস্থানে বেশ অবদান রাখায় এর প্রভাব একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রভাব ফেলবে বলে তিনি আশা করছেন।

ঘটনাপ্রবাহ : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter