দাওয়াইয়ের নাম হাসি

  যুগান্তর ডেস্ক    ০৪ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

বিচারক : খুন করার সময় তোমার স্বামী শেষ কী বলেছিলেন?

স্ত্রী : আমার চশমা কোথায় লাবনী?

বিচারক : শুধু এ কথা বলাতে আপনি আপনার স্বামীকে খুন করলেন?

স্ত্রী : আমার নাম তানিয়া!

*

জুতা পছন্দ করতে গিয়ে দোকানের প্রায় সব ডিজাইন উল্টেপাল্টে দেখছেন লীনা। এতে জুতার শো-রুম একেবারে তছনছ হয়ে গেল। কিন্তু পছন্দ হল না একটিও। এ সময় তার নজর পড়ল অন্যরকম একটি বাক্সের ওপর-

লীনা : ওই বক্সটা একটু দেখান, প্লিজ। ওটার ভেতরে যে ডিজাইনটা আছে, তা দেখব।

দোকানদার : দয়া করেন আপা, ওইটা আর দেখতে চাইবেন না!

লীনা : এটা কেমন কথা! কাস্টমার দেখতে চাচ্ছে।

দোকানদার : আপা, ওইটা আমার লাঞ্চ বক্স!

*

অনেকদিন পর দুই বন্ধুর দেখা। মতিন স্মার্ট-শিক্ষিত আর বাতেন অশিক্ষিত, বোকা ধরনের। কিছুক্ষণের মধ্যেই সুখ-দুঃখের কথায় মেতে উঠল তারা-

মতিন : দোস্ত, বিয়া করছি বিউটি কুইন। কিন্তু আন্ডার মেট্রিক। তবে আমি নিজে তারে মেট্রিক পাস করাইছি। এরপর আইএ, বিএ এবং শেষ পর্যন্ত মাস্টার্সও পাস করাইছি। অহন কী করি ক তো?

বাতেন : তুই তো দেখতেছি তার লাইগা বাপের চাইতেও বেশি কইরা ফালাইছস। ভালা করছস। এইবার একটা ফার্স্টকেলাস পাত্র দেইখা হেরে বিয়া দিয়া দে!

*

কৃপণ মতি মিয়া কলা কিনতে গিয়ে দরদাম করছেন-

মতি : কী ভাই, এই ছোট্ট কলাটার দাম কত?

বিক্রেতা : তিন টাকা।

মতি : দুই টাকায় দেবে কিনা বল?

বিক্রেতা : বলেন কী! কলার খোসার দামই তো দুই টাকা।

মতি : এই নাও এক টাকা। খোসা রাইখা আমারে কলা দাও!

*

নতুন জামাই শ্বশুরবাড়ি যাবে! যাওয়ার সময় একটি দামি পারফিউম নিয়ে গেল! গিয়ে শালার হাতে দিতেই সে হাতের তালুতে নিয়ে খেতে শুরু করল! তা দেখে নতুন জামাই শ্বশুরকে অভিযোগ করল! শ্বশুর জামাইয়ের কথা শুনে বললেন, ‘বাবা, তুমি কিছু মনে করো না। ও আস্ত একটা গাধা! এত দামি জিনিস কেউ এভাবে নষ্ট করে! ঘরে মুড়ি ছিল, মুড়ি দিয়ে মেখে খেতে পারত!’

*

পিয়ন ফারুক হঠাৎ এসে জেদের ভঙ্গিতে তার বসকে বলল-

ফারুক : স্যার, আপনি কিন্তু আগামীকাল থেকে আমারে এক ঘণ্টা আগে ছুটি দেবেন।

বস : কেন বল তো? এমন কী ঘটনা ঘটল যে তোমাকে এক ঘণ্টা আগে ছুটি দিতে হবে?

ফারুক : স্যার, এই বাজারে এখন আর এক চাকরিতে সংসার চলে না। তাই আমি সিদ্ধান্ত নিছি রাতে রিকশা চালামু।

বস : যাক, ভালোই হল। আমিও তো সংসারের খরচ সামলাতে রাতে অন্য ধান্ধা করি। গাড়ির চাকার লিক সারাই আর হাওয়া দেয়ার ছোট্ট একটা দোকান খুলেছি ধোলাইখালে। তোমার চাকা লিক হলে বা হাওয়া দিতে হলে চলে এসো আমার দোকানে, তোমার জন্য হাফ রেট।

গ্রন্থনা : সাইফুল আরেফিন

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×