ঘুম ও চাকরি বিষয়ক জটিলতা

  লেখা ও আঁকা : শফিক হীরা ১৭ মার্চ ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

আগামিকাল থেকে আপনি যদি প্রতিদিনের মতে লেট করে আসেন তাহলে আপনাকে চাকরি থেকে বের করে দেয়া হবে।

ধ্যাত! কী যে করি! সকালে ঘুম থেকে উঠতে পারি না বলে চাকরি চলে যাবে! যে করেই হোক, একটা উপায় বের করে চাকরিটা বাঁচাতে হবে।

দোস্ত, তুই তো জানিস, আমি সকালে ঘুম থেকে উঠতে পারি না। এদিকে বস হুমকি দিয়েছেন, কাল থেকে আর লেট হলে চাকরি থাকবে না। কী করি বল তো?

আমার কাছে একজন কবিরাজের ওষুধ আছে। এটার মেয়াদ হলো ছয়-সাত ঘণ্টা। ছয়-সাত ঘন্টা পর তোর ঘুম ভেঙে যাবে। কিছুতেই আর ঘুম আসবে না।

বাহ্। ওষুধটা তো দারুন কাজ করেছে। একদম সময়মতো

ঘুম ভেঙে গেছে।

অফিসেও একদম সময়মতো পৌঁছে গেছি। যাই, বসকে

সংবাদটা দিয়ে আসি।

বস, আমি আজকে একদম টাইমলি চলে এসেছি।

ফাইজলামি করেন আমার সঙ্গে! আজ একদম সময়মতো চলে এসেছেন, কিন্তু গতকাল সারাদিন কই ছিলেন? এক্ষুনি আপনি আমার অফিস ছেড়ে বেরিয়ে যান!

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×