ভাইরাল
jugantor
পাঠক বাড়ি রসের হাড়ি
ভাইরাল

  বিনোদন ডেস্ক  

২১ নভেম্বর ২০২১, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ফেসবুক-ইউটিউবের কল্যাণে (অকল্যাণেও বলতে পারেন!) ইদানীং অনেক নতুন নতুন শব্দ, বাক্য শিখছি আমরা। অনেক ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান হচ্ছে ভাইরাল। এসব ভাইরাল আইটেম নিয়ে হাজির হয়েছেন শুভ্র

টুরু লাব

ভালোবাসার কত রঙ! ইদানীং প্রচলন হয়েছে এমন এক ভালোবাসা যার নাম ‘টুরু লাব’। ‘ও মাগো! টুরু লাব’ সংলাপটি ছড়িয়ে গেছে নানা বয়সি মানুষের মুখে।

বাবু খাইছ?

যত্নবান কারও মুখের এই উক্তি এত বেশি জনপ্রিয়তা পেয়েছে যে, এ নামে গান গেয়েছেন স্বয়ং হিরো আলম। অতঃপর তিনি নায়ক থেকে গায়ক হয়েছেন!

সাজেক

ঘুরতে কার না ভালোলাগে! সাজেকের সৌন্দর্য আলাদা করে বলার নয়। নাম শুনলেই মাথায় আসে মেঘের কথা। ভ্রমণপিপাসুদের হিংসা করে অনেকেই ছাদের ওপর কিংবা উঠানে দাঁড়িয়ে সাজেক দেখার অনুভূতি জানিয়ে তৃপ্তি পান এখন।

সীমিত আকারে

স্বাস্থ্যঝুঁকির কথা চিন্তা করে সীমিত আকারে কার্যক্রম শুরু হলে এই শব্দ যুক্ত হয় নানা কাজের আগে। শপিং কিংবা বিয়ের আগেও সীমিত আকারে বলে কাজ সম্পন্ন হয়ে যেতে দেখেছি আমরা। সুতরাং ‘সীমিত আকারে’ এখন রীতিমতো ভাইরাল।

হোম অফিস

মানে হলো ঘরে বসে অফিস। করোনার কারণে এমন অফিস করেছেন অনেকে। এখনো করেন কেউ কেউ। মোদ্দাকথা ‘হোম অফিস’ এখন একটি ভাইরাল বিষয়। এর সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো স্যুট-টাইয়ের সঙ্গে অনায়াসে লুঙ্গি পরেই দিব্যি হোম অফিস করা যায়।

অনলাইন ক্লাস

পড়াশোনা তো আর থেমে নেই। অনলাইনে হলেও চলছে। আগে যারা দেয়াল টপকিয়ে স্কুল পালাত, তাদের কী কোনো ব্যবস্থা হয়েছে? অবশ্যই, তারা অনলাইন ক্লাসেও কিন্তু ক্যামেরা আর মাইক্রোফোন অফ করে নিজের মতো ক্লাস ফাঁকি দিয়েই চলছে।

প্রশ্ন

‘তিতলি কি পারবে?’ প্রশ্নটা কোনো বিষয়ের সঙ্গে যায় না! ভারতীয় সিরিয়ালে হাস্যকর ঘটনার তো অভাব নেই। কানে শুনতে না পেয়েও বিমান চালানোর মাধ্যমে তিতলির কথা ছড়িয়ে পড়ে। এরপর শুধু বিমান চালানো না, বিভিন্ন বিষয়ে হাস্যরস সৃষ্টি করতে ‘তিতলি কি পারবে’ প্রশ্নটা প্রতিনিয়ত ব্যবহার হচ্ছে। আচ্ছা, তিতলি কি পারবে, আমার এই লেখা পাঠকের কাছে পৌঁছে দিতে?

ময়মনসিংহ।

পাঠক বাড়ি রসের হাড়ি

ভাইরাল

 বিনোদন ডেস্ক 
২১ নভেম্বর ২০২১, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

ফেসবুক-ইউটিউবের কল্যাণে (অকল্যাণেও বলতে পারেন!) ইদানীং অনেক নতুন নতুন শব্দ, বাক্য শিখছি আমরা। অনেক ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান হচ্ছে ভাইরাল। এসব ভাইরাল আইটেম নিয়ে হাজির হয়েছেন শুভ্র

টুরু লাব

ভালোবাসার কত রঙ! ইদানীং প্রচলন হয়েছে এমন এক ভালোবাসা যার নাম ‘টুরু লাব’। ‘ও মাগো! টুরু লাব’ সংলাপটি ছড়িয়ে গেছে নানা বয়সি মানুষের মুখে।

বাবু খাইছ?

যত্নবান কারও মুখের এই উক্তি এত বেশি জনপ্রিয়তা পেয়েছে যে, এ নামে গান গেয়েছেন স্বয়ং হিরো আলম। অতঃপর তিনি নায়ক থেকে গায়ক হয়েছেন!

সাজেক

ঘুরতে কার না ভালোলাগে! সাজেকের সৌন্দর্য আলাদা করে বলার নয়। নাম শুনলেই মাথায় আসে মেঘের কথা। ভ্রমণপিপাসুদের হিংসা করে অনেকেই ছাদের ওপর কিংবা উঠানে দাঁড়িয়ে সাজেক দেখার অনুভূতি জানিয়ে তৃপ্তি পান এখন।

সীমিত আকারে

স্বাস্থ্যঝুঁকির কথা চিন্তা করে সীমিত আকারে কার্যক্রম শুরু হলে এই শব্দ যুক্ত হয় নানা কাজের আগে। শপিং কিংবা বিয়ের আগেও সীমিত আকারে বলে কাজ সম্পন্ন হয়ে যেতে দেখেছি আমরা। সুতরাং ‘সীমিত আকারে’ এখন রীতিমতো ভাইরাল।

হোম অফিস

মানে হলো ঘরে বসে অফিস। করোনার কারণে এমন অফিস করেছেন অনেকে। এখনো করেন কেউ কেউ। মোদ্দাকথা ‘হোম অফিস’ এখন একটি ভাইরাল বিষয়। এর সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো স্যুট-টাইয়ের সঙ্গে অনায়াসে লুঙ্গি পরেই দিব্যি হোম অফিস করা যায়।

অনলাইন ক্লাস

পড়াশোনা তো আর থেমে নেই। অনলাইনে হলেও চলছে। আগে যারা দেয়াল টপকিয়ে স্কুল পালাত, তাদের কী কোনো ব্যবস্থা হয়েছে? অবশ্যই, তারা অনলাইন ক্লাসেও কিন্তু ক্যামেরা আর মাইক্রোফোন অফ করে নিজের মতো ক্লাস ফাঁকি দিয়েই চলছে।

প্রশ্ন

‘তিতলি কি পারবে?’ প্রশ্নটা কোনো বিষয়ের সঙ্গে যায় না! ভারতীয় সিরিয়ালে হাস্যকর ঘটনার তো অভাব নেই। কানে শুনতে না পেয়েও বিমান চালানোর মাধ্যমে তিতলির কথা ছড়িয়ে পড়ে। এরপর শুধু বিমান চালানো না, বিভিন্ন বিষয়ে হাস্যরস সৃষ্টি করতে ‘তিতলি কি পারবে’ প্রশ্নটা প্রতিনিয়ত ব্যবহার হচ্ছে। আচ্ছা, তিতলি কি পারবে, আমার এই লেখা পাঠকের কাছে পৌঁছে দিতে?

ময়মনসিংহ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন