একগুচ্ছ কৌতুক
jugantor
একগুচ্ছ কৌতুক

  গ্রন্থনা : রাফিয়া আক্তার  

২৪ জুলাই ২০২২, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

গভীর রাতে রনি আর বনি নামের দুই মাতাল রেল লাইনের ওপর দিয়ে হেঁটে বাড়ি ফিরছে। হাঁটতে হাঁটতে রনি বলল, ‘দেখেছিস, জীবনে এত বড় লম্বা সিঁড়ি আর কখনো টপকাইনি। শেষই হচ্ছে না!’

বনির উত্তর, ‘তুই তো কেবল সিঁড়ির কথা ভাবছিস। আমি চিন্তা করছি রেলিংগুলা এত নিচে দিল কেন? এত ঝুঁকছি তবু হাতে নাগালই পাচ্ছি না!’

১ম বন্ধু : শুনলাম তোর বউ নাকি তোর সঙ্গে মাসের ৩০ দিনই ঝগড়া করে?

২য় বন্ধু : এসব কথা কে বলে তোকে! ৩০ দিন না, যেদিন মাসের বেতন পেয়ে ওর হাতে তুলে দিই সেদিন করে না!

শিক্ষক : রিন্টু তুই বল তো দেখি-বড় হয়ে কী হতে চাস?

রিন্টু : স্যার, বড় হয়ে আমিও আমার বাবার মতো দেশের প্রেসিডেন্ট হতে চাই!

শিক্ষক: কী বললি তুই! তোর বাবা আবার দেশের প্রেসিডেন্ট ছিল কবে?

রিন্টু : না মানে তিনিও দেশের প্রেসিডেন্ট হতে চান আর কি!

একগুচ্ছ কৌতুক

 গ্রন্থনা : রাফিয়া আক্তার 
২৪ জুলাই ২০২২, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

গভীর রাতে রনি আর বনি নামের দুই মাতাল রেল লাইনের ওপর দিয়ে হেঁটে বাড়ি ফিরছে। হাঁটতে হাঁটতে রনি বলল, ‘দেখেছিস, জীবনে এত বড় লম্বা সিঁড়ি আর কখনো টপকাইনি। শেষই হচ্ছে না!’

বনির উত্তর, ‘তুই তো কেবল সিঁড়ির কথা ভাবছিস। আমি চিন্তা করছি রেলিংগুলা এত নিচে দিল কেন? এত ঝুঁকছি তবু হাতে নাগালই পাচ্ছি না!’

১ম বন্ধু : শুনলাম তোর বউ নাকি তোর সঙ্গে মাসের ৩০ দিনই ঝগড়া করে?

২য় বন্ধু : এসব কথা কে বলে তোকে! ৩০ দিন না, যেদিন মাসের বেতন পেয়ে ওর হাতে তুলে দিই সেদিন করে না!

শিক্ষক : রিন্টু তুই বল তো দেখি-বড় হয়ে কী হতে চাস?

রিন্টু : স্যার, বড় হয়ে আমিও আমার বাবার মতো দেশের প্রেসিডেন্ট হতে চাই!

শিক্ষক: কী বললি তুই! তোর বাবা আবার দেশের প্রেসিডেন্ট ছিল কবে?

রিন্টু : না মানে তিনিও দেশের প্রেসিডেন্ট হতে চান আর কি!

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন