রাশি Fool-২০২৩!
jugantor
রাশি Fool-২০২৩!

  সত্যজিৎ বিশ্বাস  

০১ জানুয়ারি ২০২৩, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মেষ রাশি : এই যে মেষ, কথাবার্তায় খুব সাবধান, নাইলে কিন্তু শেষ। গ্রহ, নক্ষত্রের বিশেষ অবস্থানের কারণে বছরের মধ্যভাগে অশুভ ফল দৃষ্ট হইলেও শেষদিকে সুফলের আশা করা যায়। কর্মক্ষেত্রে শত্রু জুতার আঠার ন্যায় লাগিয়া থাকিবে। গৃহশান্তি বজায় রাখিবার জন্য সবসময় স্কচটেপ সঙ্গে রাখিতে হইবে। অশান্তি শুরু হওয়া মাত্রই নিজের মুখে কয়েক প্যাঁচ দিয়া চক্ষু বুজিয়া থাকিতে হইবে।

বৃষ রাশি : বৃষ রাশির জাতক, জাতিকারা পরোপকারী হইলেও জেদী, স্বাধীনচেতা হইয়া থাকেন। এ বৎসর চেতাচেতি কমাইয়া করিবেন। স্বাস্থ্য পূর্বাভাসের রিপোর্ট কিন্তু সুবিধার না। অর্থযোগ ক্রিটিক্যাল। সোজা পথে অর্থ লাভের আশা না থাকিলেও বক্রপথে অর্থলাভের সম্ভাবনা প্রবল। তাতে আবার ধরা খাওয়ার আশঙ্কাও প্রবল। কচি ঘাস রঙের পোশাক আর ০.০৩ ও ০.০০৭ সংখ্যা সর্বকাজে বর্জনীয়।

মিথুন রাশি : বছরের শুরুতে অনেক গিট্টু থাকিলেও মধ্যভাগে আসিয়া গিট্টু ছোটা শুরু হইবে। নিকট আত্মীয়, বন্ধুদের ব্যবহারে মানসিক আঘাত পাইতে পারেন। মাথা বাঁচাইতে হেলমেট ব্যবহার করিবেন। বিনিয়োগ করিতে হইলে খুব সাবধানে। সাবধান কী করিয়া হইবেন, জানিতে ধরা খাওয়া পরিচিতদের অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করুন। মনে রাখিবেন, একটি ভুল বিনিয়োগ সারা জীবনের আফসোস।

কর্কট রাশি : উক্ত রাশির জাতকেরা চিরকালই ভাবুক, চঞ্চল চিত্তের, কটিকটি টাইপের হয়। যেইভাবে অর্থযোগ হইবে, সেইভাবেই অর্থবিয়োগ হইবে। সঞ্চয়ের সম্ভাবনা ক্ষীণ। যাহারা পূর্ব হইতেই শিরপীড়া, রক্তচাপ, আন্ত্রিক গোলযোগ, স্নায়বিক দুর্বলতা রোগে ভুগিতেছেন, তাহাদের জন্য বছর জুড়িয়াই দুশ্চিন্তা থাকিবে। জাতকেরা চাতকের ন্যায় শারীরিক উন্নতি আশা করিতে পারেন। আশা করিতে দোষ কী? গ্রহের ফেরে কত কিছুই তো হইতে পারে।

সিংহ রাশি : অত্যন্ত ফাইটার রাশি। এই রাশির জাতকেরা চরম ফাইটার। বরাবরের ন্যায় এইবারও চক্রান্তকারীদের সমস্ত চক্রান্ত সিংহের সম্মুখে আসিয়া মুখ থুবড়াইয়া পড়িবে। তবে জাতকদের তেজের ঠেলায় একাধিকবার স্বাস্থ্যনাশের আশঙ্কা রহিয়াছে। প্রেম একাধিকবার দরজায় ঠকঠকাইলেও সিংহকে ঠকাইতে পারিবে না। সিংহ রাশির জাতক বলে কথা!

কন্যা রাশি : কন্যা রাশির জাতক মানেই প্রিয়ভাষী, প্রশংসাপ্রিয়, নিপুণ, সহিষ্ণু, ধীমান, দাতা, মোট কথা একশতে একশ। খুব সঙ্গত কারণেই এ রাশির জাতকদের কন্যা ভাগ্য ঈর্ষণীয়। পুরো বছর জুড়িয়াই উহাদের ভাণ্ডারে সব যোগ হইতে থাকিবে। অর্থ যোগ, হিতৈষী বন্ধুযোগ, পাশের বিল্ডিয়ের বেলকুনিতে যোগাযোগ অব্যাহত থাকিবে। তবে বছরের মাঝামাঝিতে একসঙ্গে একাধিক প্রেমিকার হাতে ধরা খেয়ে জীবনে দুর্যোগ নামিয়া আসিতে পারে।

তুলা রাশি : তুলা রাশির জাতক, জাতিকাদের মন তুলার মতো নরম বলিয়া হেটার্সরা উহাদের সর্বদা অনিষ্ট করিতে নিষ্ঠ থাকে। কর্মে বাঁধা প্রচ্ছন্ন। নিকট সম্পর্কিত শত্রুর চক্রান্ত বৎসরের মধ্যভাগে প্রবল হইয়া উঠিতে পারে। আর্থিক অবস্থার উন্নতি হবে। তবে, ইহাতে খুশিতে দাঁত বের করিবার অবকাশ নাই। আপনি তখনই অর্থ সঞ্চয় করিতে সফল হইবেন, যখন পুরো মাত্রায় অর্থ বুঝিতে পারবেন। মনে রাখিবেন একই জিনিসের অনেক অর্থ হয়। সব ধরনের অর্থ বুঝিতে একখানা ভালো প্রকাশনার ডিকশনারি/অভিধান জোগাড় করা উত্তম।

বৃশ্চিক রাশি : বছরের শুরুতে গরম কফিতে চুমুক দিতে গিয়ে ঠোঁট পুড়িয়া ফেলিতে পারেন। বৃশ্চিক রাশির জাতক মিতভাষী ও পরোপকারী বলিয়া কথিত থাকিলেও প্রায়শই অপ্রাসঙ্গিক বিষয়ে অবতীর্ণ হইয়া পরিবেশ ও নিজের অবস্থান নষ্ট করেন। কেন যে করেন, নিজেও জানেন না! আয় অপেক্ষা ব্যায়াধিক্য থাকায় সঞ্চয়ের আশা এ বৎসরে না করাই উত্তম। এই রাশির জাতকদের প্রেমের ক্ষেত্রে টক, মিষ্টি ও জন্মের ঝাল-এ তিন ধরনের অভিজ্ঞতা হইবে বছর জুড়িয়া।

ধনু রাশি : এ রাশির জাতক কি ধনুকের মতোই ত্যাড়া? জানি না। নয়তো এমন নাম কেন! সে যাই হোক, এনারা পরিনামদর্শী, অতিবুদ্ধি সম্পন্ন, স্বাধীনচেতা হইয়া থাকেন। প্রবল বাধা, জটিল পরিস্থিতি সত্ত্বেও কর্মক্ষেত্রে আশানুরূপ উন্নতির ভাব থাকিবে বছরের প্রথম ভাগে। অতিরিক্ত বুদ্ধিসম্পন্ন বলিয়া বছরের শেষভাগে আসিয়া ধরা খাইবার আশঙ্কা প্রবল। শ্বশুর বাড়ির লোকজনের সহিত বছরের মাঝামাঝিতে গ্যাঞ্জাম হইতে পারে। তাই সাবধানে থাকাই উত্তম!

মকর রাশি : মকর রাশির জাতক অমিতব্যয়ী, পরোপকারী, দুঃসাহসী, ভ্রমণবিলাসী হয়। অফিসজীবীরা অফিস রাজনীতি হইতে দূরে থাকিবেন, নচেৎ অফিস আপনাকে দূরে রাখিবে। ব্যবসায়ীরা লাভবান হইবেন যদি পরিকল্পনা সঠিকভাবে কাজে লাগে। অংশীদারি ব্যবসা করিতে পারেন, তবে লাভের অংশ পার্টনারকে দেওয়ার চিন্তা মাথায় থাকলে জীবনেও উন্নতি করিতে পারিবেন না। কাউকে বিশ্বাস করিতে হইলে অন্তত এক চোখ খোলা রাখিয়া করিবেন। অন্ধভাবে বিশ্বাস করিতে গেলে দুইচোখ চিরতরে বন্ধ হইয়া যাইবার আশঙ্কা আছে।

কুম্ভ রাশি : কুম্ভ রাশির জাতক দক্ষ, আত্ম নির্ভরশীল, বন্ধু বৎসল, স্পষ্টবক্তা হইয়া থাকেন। রাহু ও কেতু উহাদের নাড়ায় চাড়ায় কম। নিজ হইতে কোনো ঝামেলায় না জড়াইলে কুম্ভ রাশির জাতক, জাতিকার জন্য এ বৎসর ভালো যাইবে। দাম্পত্য জীবনে দাম পেতে চাইলে অযথা তর্ক এড়িয়ে চলুন। সবসময় বিশ্বাস করিবেন, বিপরীত পক্ষ থেকে আপনাকে যা বলা হইতেছে আপনি আসলে তাই। তাহা হইলে অশান্তি আপনার ত্রি-সীমানায় প্রবেশ করিতে পারিবে না।

মীন রাশি : মিনমিনা, আত্মবিলাসী, মৌলিক চিন্তার অধিকারী জাতকদের জন্য এ বৎসর চ্যালেঞ্জপূর্ণ। স্বীয় বুদ্ধির দোষে সুবর্ণ সুযোগ যেমন হস্তচ্যুত হইতে পারে, তদ্রূপ বুদ্ধির গুণে সফলতা মুঠিবদ্ধও হইতে পারে। এ রাশির জাতক, জাতিকারা খুব সাবধান। আপনার সঙ্গীকে সবসময় চোখে চোখে রাখিবেন। ধোঁকা খাইয়া বোকা হইবার কোনো মানে নাই। রাস্তাঘাটে সাবধানে হাঁটিবেন। বছরের শেষে ঢাকনা খোলা ম্যানহোলে পড়িয়া উপরের পাটির দুইখানা দাঁত এ বছর চিরতরে বিদায় নিতে পারে!

বিঃদ্রঃ রাহু, কেতুর লাফালাফির কারণে ভাগ্যের হেরফের হইলে সেই দায় গণকের উপর বর্তায় না।

রাশি Fool-২০২৩!

 সত্যজিৎ বিশ্বাস 
০১ জানুয়ারি ২০২৩, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

মেষ রাশি : এই যে মেষ, কথাবার্তায় খুব সাবধান, নাইলে কিন্তু শেষ। গ্রহ, নক্ষত্রের বিশেষ অবস্থানের কারণে বছরের মধ্যভাগে অশুভ ফল দৃষ্ট হইলেও শেষদিকে সুফলের আশা করা যায়। কর্মক্ষেত্রে শত্রু জুতার আঠার ন্যায় লাগিয়া থাকিবে। গৃহশান্তি বজায় রাখিবার জন্য সবসময় স্কচটেপ সঙ্গে রাখিতে হইবে। অশান্তি শুরু হওয়া মাত্রই নিজের মুখে কয়েক প্যাঁচ দিয়া চক্ষু বুজিয়া থাকিতে হইবে।

বৃষ রাশি : বৃষ রাশির জাতক, জাতিকারা পরোপকারী হইলেও জেদী, স্বাধীনচেতা হইয়া থাকেন। এ বৎসর চেতাচেতি কমাইয়া করিবেন। স্বাস্থ্য পূর্বাভাসের রিপোর্ট কিন্তু সুবিধার না। অর্থযোগ ক্রিটিক্যাল। সোজা পথে অর্থ লাভের আশা না থাকিলেও বক্রপথে অর্থলাভের সম্ভাবনা প্রবল। তাতে আবার ধরা খাওয়ার আশঙ্কাও প্রবল। কচি ঘাস রঙের পোশাক আর ০.০৩ ও ০.০০৭ সংখ্যা সর্বকাজে বর্জনীয়।

মিথুন রাশি : বছরের শুরুতে অনেক গিট্টু থাকিলেও মধ্যভাগে আসিয়া গিট্টু ছোটা শুরু হইবে। নিকট আত্মীয়, বন্ধুদের ব্যবহারে মানসিক আঘাত পাইতে পারেন। মাথা বাঁচাইতে হেলমেট ব্যবহার করিবেন। বিনিয়োগ করিতে হইলে খুব সাবধানে। সাবধান কী করিয়া হইবেন, জানিতে ধরা খাওয়া পরিচিতদের অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করুন। মনে রাখিবেন, একটি ভুল বিনিয়োগ সারা জীবনের আফসোস।

কর্কট রাশি : উক্ত রাশির জাতকেরা চিরকালই ভাবুক, চঞ্চল চিত্তের, কটিকটি টাইপের হয়। যেইভাবে অর্থযোগ হইবে, সেইভাবেই অর্থবিয়োগ হইবে। সঞ্চয়ের সম্ভাবনা ক্ষীণ। যাহারা পূর্ব হইতেই শিরপীড়া, রক্তচাপ, আন্ত্রিক গোলযোগ, স্নায়বিক দুর্বলতা রোগে ভুগিতেছেন, তাহাদের জন্য বছর জুড়িয়াই দুশ্চিন্তা থাকিবে। জাতকেরা চাতকের ন্যায় শারীরিক উন্নতি আশা করিতে পারেন। আশা করিতে দোষ কী? গ্রহের ফেরে কত কিছুই তো হইতে পারে।

সিংহ রাশি : অত্যন্ত ফাইটার রাশি। এই রাশির জাতকেরা চরম ফাইটার। বরাবরের ন্যায় এইবারও চক্রান্তকারীদের সমস্ত চক্রান্ত সিংহের সম্মুখে আসিয়া মুখ থুবড়াইয়া পড়িবে। তবে জাতকদের তেজের ঠেলায় একাধিকবার স্বাস্থ্যনাশের আশঙ্কা রহিয়াছে। প্রেম একাধিকবার দরজায় ঠকঠকাইলেও সিংহকে ঠকাইতে পারিবে না। সিংহ রাশির জাতক বলে কথা!

কন্যা রাশি : কন্যা রাশির জাতক মানেই প্রিয়ভাষী, প্রশংসাপ্রিয়, নিপুণ, সহিষ্ণু, ধীমান, দাতা, মোট কথা একশতে একশ। খুব সঙ্গত কারণেই এ রাশির জাতকদের কন্যা ভাগ্য ঈর্ষণীয়। পুরো বছর জুড়িয়াই উহাদের ভাণ্ডারে সব যোগ হইতে থাকিবে। অর্থ যোগ, হিতৈষী বন্ধুযোগ, পাশের বিল্ডিয়ের বেলকুনিতে যোগাযোগ অব্যাহত থাকিবে। তবে বছরের মাঝামাঝিতে একসঙ্গে একাধিক প্রেমিকার হাতে ধরা খেয়ে জীবনে দুর্যোগ নামিয়া আসিতে পারে।

তুলা রাশি : তুলা রাশির জাতক, জাতিকাদের মন তুলার মতো নরম বলিয়া হেটার্সরা উহাদের সর্বদা অনিষ্ট করিতে নিষ্ঠ থাকে। কর্মে বাঁধা প্রচ্ছন্ন। নিকট সম্পর্কিত শত্রুর চক্রান্ত বৎসরের মধ্যভাগে প্রবল হইয়া উঠিতে পারে। আর্থিক অবস্থার উন্নতি হবে। তবে, ইহাতে খুশিতে দাঁত বের করিবার অবকাশ নাই। আপনি তখনই অর্থ সঞ্চয় করিতে সফল হইবেন, যখন পুরো মাত্রায় অর্থ বুঝিতে পারবেন। মনে রাখিবেন একই জিনিসের অনেক অর্থ হয়। সব ধরনের অর্থ বুঝিতে একখানা ভালো প্রকাশনার ডিকশনারি/অভিধান জোগাড় করা উত্তম।

বৃশ্চিক রাশি : বছরের শুরুতে গরম কফিতে চুমুক দিতে গিয়ে ঠোঁট পুড়িয়া ফেলিতে পারেন। বৃশ্চিক রাশির জাতক মিতভাষী ও পরোপকারী বলিয়া কথিত থাকিলেও প্রায়শই অপ্রাসঙ্গিক বিষয়ে অবতীর্ণ হইয়া পরিবেশ ও নিজের অবস্থান নষ্ট করেন। কেন যে করেন, নিজেও জানেন না! আয় অপেক্ষা ব্যায়াধিক্য থাকায় সঞ্চয়ের আশা এ বৎসরে না করাই উত্তম। এই রাশির জাতকদের প্রেমের ক্ষেত্রে টক, মিষ্টি ও জন্মের ঝাল-এ তিন ধরনের অভিজ্ঞতা হইবে বছর জুড়িয়া।

ধনু রাশি : এ রাশির জাতক কি ধনুকের মতোই ত্যাড়া? জানি না। নয়তো এমন নাম কেন! সে যাই হোক, এনারা পরিনামদর্শী, অতিবুদ্ধি সম্পন্ন, স্বাধীনচেতা হইয়া থাকেন। প্রবল বাধা, জটিল পরিস্থিতি সত্ত্বেও কর্মক্ষেত্রে আশানুরূপ উন্নতির ভাব থাকিবে বছরের প্রথম ভাগে। অতিরিক্ত বুদ্ধিসম্পন্ন বলিয়া বছরের শেষভাগে আসিয়া ধরা খাইবার আশঙ্কা প্রবল। শ্বশুর বাড়ির লোকজনের সহিত বছরের মাঝামাঝিতে গ্যাঞ্জাম হইতে পারে। তাই সাবধানে থাকাই উত্তম!

মকর রাশি : মকর রাশির জাতক অমিতব্যয়ী, পরোপকারী, দুঃসাহসী, ভ্রমণবিলাসী হয়। অফিসজীবীরা অফিস রাজনীতি হইতে দূরে থাকিবেন, নচেৎ অফিস আপনাকে দূরে রাখিবে। ব্যবসায়ীরা লাভবান হইবেন যদি পরিকল্পনা সঠিকভাবে কাজে লাগে। অংশীদারি ব্যবসা করিতে পারেন, তবে লাভের অংশ পার্টনারকে দেওয়ার চিন্তা মাথায় থাকলে জীবনেও উন্নতি করিতে পারিবেন না। কাউকে বিশ্বাস করিতে হইলে অন্তত এক চোখ খোলা রাখিয়া করিবেন। অন্ধভাবে বিশ্বাস করিতে গেলে দুইচোখ চিরতরে বন্ধ হইয়া যাইবার আশঙ্কা আছে।

কুম্ভ রাশি : কুম্ভ রাশির জাতক দক্ষ, আত্ম নির্ভরশীল, বন্ধু বৎসল, স্পষ্টবক্তা হইয়া থাকেন। রাহু ও কেতু উহাদের নাড়ায় চাড়ায় কম। নিজ হইতে কোনো ঝামেলায় না জড়াইলে কুম্ভ রাশির জাতক, জাতিকার জন্য এ বৎসর ভালো যাইবে। দাম্পত্য জীবনে দাম পেতে চাইলে অযথা তর্ক এড়িয়ে চলুন। সবসময় বিশ্বাস করিবেন, বিপরীত পক্ষ থেকে আপনাকে যা বলা হইতেছে আপনি আসলে তাই। তাহা হইলে অশান্তি আপনার ত্রি-সীমানায় প্রবেশ করিতে পারিবে না।

মীন রাশি : মিনমিনা, আত্মবিলাসী, মৌলিক চিন্তার অধিকারী জাতকদের জন্য এ বৎসর চ্যালেঞ্জপূর্ণ। স্বীয় বুদ্ধির দোষে সুবর্ণ সুযোগ যেমন হস্তচ্যুত হইতে পারে, তদ্রূপ বুদ্ধির গুণে সফলতা মুঠিবদ্ধও হইতে পারে। এ রাশির জাতক, জাতিকারা খুব সাবধান। আপনার সঙ্গীকে সবসময় চোখে চোখে রাখিবেন। ধোঁকা খাইয়া বোকা হইবার কোনো মানে নাই। রাস্তাঘাটে সাবধানে হাঁটিবেন। বছরের শেষে ঢাকনা খোলা ম্যানহোলে পড়িয়া উপরের পাটির দুইখানা দাঁত এ বছর চিরতরে বিদায় নিতে পারে!

বিঃদ্রঃ রাহু, কেতুর লাফালাফির কারণে ভাগ্যের হেরফের হইলে সেই দায় গণকের উপর বর্তায় না।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন