সংলাপের নানা চিত্র

সেই ব্রিটিশ আমলের কথা। সংলাপের প্রয়োজনীয়তা তখনও ছিল। এখনও আগামী নির্বাচন নিয়ে সংলাপের কথা হচ্ছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত কোনো ধরনের সংলাপের লক্ষণ দেখা যাচ্ছে না। রাজনৈতিক দলগুলো সংলাপে বসুক বা না বসুক বিচ্ছু কিন্তু বসে পড়েছে। মানে সংলাপ নিয়ে। সংলাপের নানা চিত্র নিয়ে লিখেছেন মাসুদ রানা আশিক এবং এঁকেছেন মাঝহার কচি

প্রকাশ : ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক   

অতীত ইতিহাস আপনাদের পক্ষে নয়। আপনাদের আমলে দেশে কোনো উন্নয়ন হয়নি। জনগণ হাতে হারিকেন নিয়ে বসে ছিল।

হারিকেন দেশের ঐতিহ্য। যারা ঐতিহ্যের কথা ভাবে না তাদের দেশ শাসনের অধিকার নেই। আপনাদের উচিত রাজনীতি ছেড়ে দিয়ে পাড়ায় মুদি দোকান দেয়া।

আমরা চাই গোলটেবিল। কিন্তু এখানে তো লম্বা টেবিল দেখা যাচ্ছে। এ টেবিলে আমরা সংলাপ করতে পারি না।

আমরা কোনাকুনি টেবিল চাই। সুতরাং লম্বা টেবিল বা গোল টেবিল কোনোটাই আমাদের পছন্দ না। সুতরাং সংলাপ হবে না।

আমি শপিংয়ে যাব আজ। প্রচুর কেনাকাটা আছে। অফিসে যাওয়ার সময় মনে করে তোমার ক্রেডিট কার্ডটা রেখে যাবে।

এর জন্য আমাদের জরুরি সংলাপে বসতে হবে। একপক্ষ দাবি করলেই অন্য পক্ষ মেনে নেবে এটা গণতান্ত্রিক সংস্কৃতির জন্য ক্ষতিকর!

স্যার, আমারে কি চালান করে দেবেন? নাকি হাজতে রাখবেন? আমারে নিয়া কোনো টেনশন করবেন না। আমারে নিয়া কী করা যায় এটা নিয়া থানায় গিয়া আমি আর আপনে সংলাপে বসুমনে।

তুই সন্ত্রাসী হইলেও কথা রাইট কইছস। রাজনীতিতেও অনেক দল সংলাপের কথা বলে। আমি আর তুই সংলাপ করলে সমস্যা কী? তাছাড়া লেনদেনেরও একটা ব্যাপার আছে। সংলাপ কইরা সব ঠিক কইরা ফালামু।