মোহনীয় অঞ্জন

  মোকারম হোসেন ২১ মার্চ ২০২০, ০০:০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

স্থানীয় অন্যান্য নাম : নেই

বৈজ্ঞানিক নাম :

Memecylon edule.

ফুল ফোটার মৌসুম :

বসন্ত-গ্রীষ্ম

পরিবার :

Melastomaceae.

জন্মস্থান : ভারত ও মিয়ানমার

বিস্তৃতি : ঢাকায় রমনা পার্ক, বলধা গার্ডেন ও বোটানিক্যাল গার্ডেন

অঞ্জন ফুলটি প্রথম দেখি রমনা পার্কে। বেশ কয়েকবছর আগের কথা। ছোট ফুল হলেও অদ্ভুত ছিল তার দ্যুতি। ভেবেছিলাম অনেক দূরের কোনো দেশ তার আদিবাস। যদি এ অঞ্চলেরই ফুল হবে তবে এত অচেনা মনে হচ্ছে কেন! পরে অবশ্য ভুল ভাঙে। কারণ গাছটির জন্মস্থান আমাদের প্রতিবেশী দেশ ভারতের দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চল ও মিয়ানমার। ছবি তুলতে গিয়ে দেখি ফুলটি বারবারই রং লুকিয়ে ফেলছে। আসলে এই ফুলের রং অতি সূক্ষ্ম ধরনের। ঢাকায় রমনা পার্কের কয়েকটি গাছ ছাড়াও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বোটানিক্যাল গার্ডেন ও বলধা গার্ডেনে দেখা যায়। তবে তুলনামূলকভাবে ততটা সহজলভ্য নয়। অঞ্জন ফুল আকারে ছোট হলেও চটকদারি বর্ণের কারণে খুব সহজেই নজর কাড়ে।

অঞ্জন ফুলের গাছ প্রায় ৩ মিটার পর্যন্ত উঁচু হতে পারে। গড়নে ঝোপালো ও চিরসবুজ। পাতা লম্বায় ৬ থেকে ১০ সেন্টিমিটার এবং প্রস্থে আড়াই থেকে ৫ সেন্টিমিটার, গাঢ় সবুজ রঙের এবং চার্ম। ফুল ফোটার মৌসুম বসন্ত থেকে গ্রীষ্ম। কাণ্ড ও ডালপালাজুড়ে ছোট ছোট নীলচে বেগুনি রঙের ফুলের থোকার রং সত্যিই মোহনীয়। প্রতিটি ফুলের গুচ্ছ ৫ মিলিমিটার চওড়া, ডালের গা থেকে বেরোয় এবং প্রায় সারা গাছ ছেয়ে ফেলে। ফলের রং প্রথমে লাল, পরে ধীরে ধীরে কালো রং ধারণ করে। আমাদের দেশে সাধারণত কলমেই চাষ হয়ে থাকে।

লেখক : প্রকৃতিবিষয়ক লেখক, সম্পাদক- তরুপল্লব

আরও খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত