রকমারি ইফতার

রেসিপি দিয়েছেন জিনাত সুলতানা আলোকচিত্রী মনির আহমেদ

  যুগান্তর ডেস্ক    ১৪ মে ২০১৯, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

হালিম।
হালিম। ছবি সংগৃহীত

সুজির পাকোড়া

যা লাগবে : সুজি ১ কাপ, টক দই ১-২ কাপ, গোল মরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, লবণ ১-২ চা চামচ, পানি ১-২ কাপ।

সবজির জন্য : পেঁয়াজ কুচি ১-৩ কাপ, ক্যাপসিকাম কিউব (বিভিন্ন রঙের) ১-২ কাপ, গাজর কিউব ১-৪ কাপ, বরবটি কিউব ১-৪ কাপ, মরিচ কুচি ২ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, চাট মসলা ১ টেবিল চামচ, আস্ত জিরা ১ চা চামচ, ঘি/অলিভ অয়েল ১ টেবিল চামচ।

ভাজার জন্য : তেল ১ কাপ।

যেভাবে করবেন : সুজি, লবণ, টক দই, পানি ও গোলমরিচের গুঁড়া একত্রে ফেটে ব্যাটার বানিয়ে ১-২ ঘণ্টা রেস্টে রেখে দিন। ঘি/অলিভঅয়েল গরম করে আস্ত জিরা ফোড়ন দিয়ে পেঁয়াজ কুচি দিন। পেঁয়াজ নরম হলে সব সবজি, লবণ ও মরিচ কুচি দিয়ে পানি শুকানো পর্যন্ত নেড়েচেড়ে নামান। সুজির ব্যাটারে অ্যাড করুন। প্রয়োজনে আরও ১-৪ কাপ পানি এ্যাড করুন। ননস্টিক প্যানে তেল গরম করে ব্যাটার পাকোড়ার শেপে দিয়ে উল্টেপাল্টে ভাজুন। গরম গরম সসের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

হালিম

যা লাগবে : হালিম মিক্স ১ প্যাকেট, হাড়সহ মাংস ৫০০ গ্রাম, পেঁয়াজ কুচি ১ কাপ, আদা বাটা ১ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, কাঁচা মরিচ ১০টা, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, আদা কুচি ২ টেবিল চামচ, শসা কুচি ১-২ কাপ, লেবু (টুকরা করা) ১টা, পানি পরিমাণমতো, তেল ২-৩ কাপ, ঘি ২ টেবিল চামচ।

যেভাবে করবেন : তেল গরম করে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে বেরেস্তা বানান। বেরেস্তা ২-৩ ভাগ উঠিয়ে বাকি বেরেস্তা এবং তেল মাংসে ঢেলে দিন। হালিমের প্যাকেটের মসলা, আদা ও রসুন বাটা দিন। পরিমাণমতো পানি দিন। মাংস সিদ্ধ করে নিন। এই অবসরে প্যাকেটের হালিম মিক্স ফুটন্ত গরম পানিতে গুলিয়ে ১৫-২০ মিনিট অপেক্ষা করুন। এটা মাংসে ঢেলে দিন। সিদ্ধ হওয়া পর্যন্ত রান্না করুন। ঘি ছড়িয়ে নামিয়ে নিন। লেবুর টুকরা, তুলে রাখা বেরেস্তা, আদা-কাঁচামরিচ-ধনেপাতা কুচি দিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।

ছোলা মাখানি

যা লাগবে : ছোলা ১০০ গ্রাম, পেঁয়াজ কুচি ১-২ কাপ, রসুন কুচি ১ চা চামচ, আদা বাটা ১-২ চা চামচ, ধনে গুঁড়া ১ চা চামচ, জিরা গুঁড়া ১-২ চা চামচ, হলুদ গুঁড়া ১-২ চা চামচ, মরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, গরম মসলা গুঁড়া ১-২ চা চামচ, তেল ১-৩ কাপ, সিদ্ধ আলু (কিউব করা) ১টা, লবণ স্বাদমতো।

মাখানোর জন্য : শসা কিউব ১-২ কাপ, গাজর কিউব ১-২ কাপ, টমেটো কিউব ১টা, পেঁয়াজ কিউব ২ টেবিল চামচ, মরিচ কুচি ১ টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, সরিষার তেল ২ টেবিল চামচ, চাট মসলা ১.৫ চা চামচ, লেবুর রস ১.৫ টেবিল চামচ।

যেভাবে করবেন : ৫-৬ ঘণ্টা ভিজিয়ে রেখে ছোলা সিদ্ধ করে নিন। তেল গরম করে পেঁয়াজ-রসুন কুচি হালকা ভেজে আদা, গরম মসলা গুঁড়া ব্যতীত অন্য সব গুঁড়া মসলা ও লবণ কষিয়ে ছোলা ও আলু কিউব দিয়ে ১০-১২ মিনিট নেড়েচেড়ে ভাজুন। ধনেপাতা কুচি দিয়ে নামান। ছোলা নরমাল টেম্পারেচারে আসার পর মাখান সব উপকরণ একত্রে নিয়ে মিশিয়ে ছোলার সঙ্গে মাখিয়ে নিলেই হয়ে যাবে মজার খাবার ছোলা মাখানি।

বুন্দিয়া

যা লাগবে : বেসন ১ কাপ, পানি পরিমাণমতো, ঘি ১ চা চামচ, ফুড কালার ইচ্ছানুযায়ী, লবণ ১ চিমটি।

সিরার জন্য : চিনি ১ কাপ, পানি ১-২ কাপ, এলাচ ৩টি, ঘি ১ চা চামচ, লেবুর রস ১ চা চামচ।

ভাজার জন্য : তেল ২ কাপ।

যেভাবে করবেন : বেসন চেলে অল্প অল্প পানি দিয়ে ফেটে ঘন ব্যাটার বানান। লবণ ও ঘি মিশান। ব্যাটারের কিছু অংশ তুলে পছন্দ মতো এক/একাধিক ফুড কালার মিশিয়ে আলাদা করে রাখুন। তেল গরম দিন। মাঝারি আঁচে বুন্দিয়া বানানোর ঝাঁঝরিতে ব্যাটার অল্প অল্প করে গরম তেলে ফেলুন। ভেজে উঠান।

সিরা তৈরি : পানি ও চিনি একত্রে জ্বাল দিন। এলাচ ফাটিয়ে দিন। ঘি ও লেবুর রস দিন। চুলার আঁচ মৃদু করে ভাজা বুন্দিয়াগুলো দিয়ে দিন। ৪-৫ মিনিট পর চুলা বন্ধ করে দিন। ঘণ্টা দুয়েক পর পরিবেশন করুন।

চিকেন মালাই বটি কাবাব

যা লাগবে : মুরগির বুকের মাংস ৫০০ গ্রাম, পেঁয়াজ বাটা ২ চা চামচ, রসুন বাটা ১-২ চা চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, জিরা গুঁড়া ১-২ চা চামচ, ধনে গুঁড়া ১-২ চা চামচ, গরম মসলা গুঁড়া ১-২ চা চামচ, গোল মরিচ গুঁড়া ১-৩ চা চামচ, কাঁচামরিচ বাটা ৩টি, ধনেপাতা বাটা ১ চা চামচ, টক দই ২ টেবিল চামচ, লেবুর রস ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, চিনি ১-২ টেবিল চামচ, তেল ৩ টেবিল চামচ, মালাই ১-২ কাপ, চিলি ফ্লেক্স ১ চা চামচ।

যেভাবে করবেন : মুরগির বুকের মাংস স্কয়ার শেপে কেটে নিন। তেল বাদে সব উপকরণ মাংসে মাখিয়ে ৩-৬ ঘণ্টার জন্য ফ্রিজে রেখে দিন। বের করে ১ টেবিল চামচ তেল দিয়ে মাখান। ছবির মতো সাসলিক কাঠিতে গেঁথে নিন। গ্রিল প্যানে বাকি ২ টেবিল চামচ তেল গরম করুন। তৈরি করা কাবাবগুলো দিন। জোর আঁচে ২ মিনিট ভাজুন। উল্টে অন্য পিঠও ২ মিনিট ভাজুন। চুলার আঁচ মাঝারি করে ঢেকে ৮-১০ মিনিট রাখুন। ঢাকনি খুলে অবশিষ্ট তেল-মসলা ব্রাশ করে উল্টে-পাল্টে হালকা পোড়া পোড়া করে নামিয়ে নিন। ইফতারিতে শসা-গাজর স্লাইস, ডিপিং সস, নান বা পরোটার সঙ্গে পরিবেশন করতে পারেন দারুণ মজার চিকেন মালাই বটি কাবাব।

চিকেন নুডলস বল

যা লাগবে : চিকেন পুরের জন্য। মুরগির কিমা ১.৫ কাপ, পেঁয়াজ কুচি ১-২ কাপ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, ধনে গুঁড়া ১ চা চামচ, জিরা গুঁড়া ১ চা চামচ, মরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, লবণ স্বাদমতো, তেল ১-৩ কাপ, গ্রেট করা চিজ ১-২ কাপ।

নুডলসের জন্য : ইন্সট্যান্ট নুডলস ২ প্যাকেট, পেঁয়াজ কুচি ১-২ কাপ, গাজর কুচি ১-২ কাপ, ক্যাপসিকাম কুচি ১-২ কাপ, কাঁচামরিচ কুচি ১ টেবিল চামচ, ধনে পাতা কুচি ২ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, বেসন ২ টেবিল চামচ।

অন্যান্য : ইন্সট্যান্ট নুডলস ১.৫ প্যাকেট, কর্ণফ্লাওয়ার ২ টেবিল চামচ, লবণ সামান্য, তেল ২ কাপ।

যেভাবে করবেন : তেল গরম করে পেঁয়াজ হালকা ভেজে আদা-রসুন বাটা দিয়ে কষান। অল্প পানি দিন। গরম মসলা গুঁড়া ও চিজ ছাড়া সব গুঁড়া মশলা ও লবণ দিয়ে কষিয়ে কিমা দিন। ৮-১০ মিনিট রান্না করুন। পানি টেনে গেলে চিজ ও গরম মসলা গুঁড়া দিয়ে নেড়ে নামিয়ে নিন।

নুডলস সিদ্ধ করে পানি ঝরিয়ে ঠাণ্ডা করে নিন। এতে ক্যাপসিকাম কুচি, গাজর কুচি, মরিচ কুচি, ধনেপাতা কুচি, নুডলসের মসলা, লবণ ও বেসন মিশিয়ে একত্রে মাখান। এখন নুডলস গোল করে ভেতরে কিছুটা করে চিকেনের পুর ভরে বলগুলো বানান। কর্ণফ্লাওয়ার গুলে নিন। ১ প্যাকেট ইন্সট্যান্ট নুডলস ছোট টুকরায় ভেঙে রাখুন। নুডলস বলগুলো গোলানো কর্ণফ্লাওয়ারে চুবিয়ে ভাঙা নুডলসে গড়িয়ে ডুবো তেলে ভাজুন। সসের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×