নানা স্বাদের পিঠা

  জিনাত সুলতানা ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০০:০০ | প্রিন্ট সংস্করণ

ভাপা নকশি পুলি পিঠা
ভাপা নকশি পুলি পিঠা

চন্দ্রপুলি পিঠা

যা যা লাগবে

কুরিয়ে মিহি করে বাটা নারিকেল ২ কাপ, মাওয়া ১/২ কাপ, খেজুর গুড় ১/২ কাপ, বাদাম বাটা ১ টেবিল চামচ, এলাচ গুঁড়া ১ চিমটি, চালের গুঁড়া ১/২ টেবিল চামচ, ঘি ১ টেবিল চামচ।

যেভাবে করবেন

মৃদু আঁচে প্যানে নারিকেল বাটা ও গুড় দিয়ে নাড়ুন। বের হয়ে আসা পানি টেনে গেলে মাওয়া দিয়ে দিন। বাদাম বাটা দিন। নাড়তে নাড়তে প্যানের গা থেকে উঠে এলে চালের গুঁড়া ও এলাচ মিশিয়ে নামিয়ে নিন। হালকা গরম অবস্থায় এটি থেকে কিছুটা অংশ করে নিয়ে অর্ধচন্দ্রের মতো করে পুলি বানিয়ে নিন। আবারও মৃদু আঁচে চুলায় প্যান বসান। ঘি গরম করে পুলিগুলো এপিঠ ওপিঠ সোনালি করে ভেজে তুলুন।

রস বটুয়া

যা যা লাগবে

ক। ডো এর জন্য-ময়দা ২ কাপ, দুধ ২ কাপ, ডিম ১টা, ঘি ১ টেবিল চামচ, লবণ ১/২ চা চামচ।

খ। সিরার জন্য- খেজুর গুড় ১ কাপ, পানি ১ কাপ, এলাচ ৩টি। গ। ভাজার জন্য- তেল ২ কাপ।

যেভাবে করবেন

ক। সিরা তৈরি- গুড় ও পানি মিশিয়ে জ্বাল দিন। গুড় গলে গেলে এলাচ থেতো করে দিন। বলক উঠলে সিরা নামিয়ে ঢেকে রাখুন।

খ। ডো তৈরি- দুধ জ্বাল দিন। উতলে উঠলে লবণ, ঘি ও ময়দা দিয়ে নেড়ে মেশান। ২ মিনিট নেড়েচেড়ে নামিয়ে নিন। কিছুটা ঠাণ্ডা হলে ডিম মিশিয়ে ভালো করে মথে ডো তৈরি করুন।

গ। পিঠা তৈরি- ডো থেকে রুটির সাইজের কয়েকটি লেচি তৈরি করুন। পাতলা করে রুটি বানান। একটি রুটির একপাশ থেকে ১/২ ইঞ্চি করে এপাশ ওপাশ পুরোটা ভাঁজ দিন। ভাঁজ করা রুটিটিকে মাঝ বরাবর ফোল্ড করে নিন। শেষ প্রান্তের ১ ইঞ্চি আগে পাতলা চিকন ফিতার মতো রুটির একটি টুকরো পেঁচিয়ে আটকে নিন। উপরের প্রান্ত চেপে বটুয়ার মতো শেপ দিন। সব বানিয়ে ডুবো তেলে মৃদু আঁচে ভেজে নিন। পিঠাগুলো গরম সিরায় দিয়ে দিন। ৩/৪ ঘণ্টা পর পিঠা ভিজে নরম হলে পরিবেশন করুন।

ভাপা নকশি পুলি পিঠা

যা যা লাগবে

ক। পুরের জন্য-দুধ ১ লিটার, সুজি ২ টেবিল চামচ, নারিকেল কোরা ১ কাপ, চিনি ১/৪ কাপ, খেজুর গুড় ১/৪ কাপ, লবণ স্বাদমতো, এলাচ গুঁড়া ১ চিমটি। খ। ডো এর জন্য- চালের গুঁড়া ১ কাপ, পানি ১ কাপের সামান্য বেশি, লবণ স্বাদমতো।

যেভাবে করবেন

ক। পুর তৈরি- দুধ জ্বাল দিয়ে ১/২ লিটারের মতো করে নিন। এতে সুজি ও নারিকেল দিয়ে দ্রুত নাড়তে থাকুন। সুজি সিদ্ধ হয়ে গেলে চিনি দিন। হালুয়ার মতো হয়ে এলে খেজুর গুড় দিন। গুড় গলে মিশে গেলে আরেকটু টানিয়ে এলাচ গুঁড়া মিশিয়ে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে নিন।

খ। পিঠা তৈরি-ডো এর পানি ফুটান। চালের গুড়া দিয়ে অল্প আঁচে ৫ মিনিট ঢেকে রাখুন। পাত্র আলগা করে পানির সঙ্গে চালের গুঁড়া মিশিয়ে আরও ৫ মিনিট ঢেকে রাখুন। এবার ভালো মতো মথে নিন। ছোট ভাগে ভাগ করে একটু মোটা করে ছোট ছোট রুটি বানান। এক একটি রুটির মধ্যে ১ চামচ পুর ভরে পুলি তৈরি করুন। সাসলিক কাঠিতে তেল মাখিয়ে প্রতিটা পিঠার গায়ে ইচ্ছামতো জ্যামিতিক নকশা আঁকুন। সব পিঠা পানি ফুটিয়ে ৮/১০ মিনিট ভাপিয়ে নিন।

দুধ সাগর পিঠা

যা যা লাগবে

ক. ডো এর জন্য-ময়দা ২ কাপ, ঘি ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, পানি পরিমাণ মতো। খ। পুরের জন্য-মাওয়া ১/২ কাপ, কাজু বাদাম ১/২ কাপ, নারিকেল কোরা ১/৪ কাপ, গলানো গুড় ১/২ কাপ, ঘি ১ টেবিল চামচ। গ। অন্যান্য-দুধ ১/২ লিটার, খেজুর গুড় ১/২ কাপ, ভাজার জন্য তেল ২ কাপ, এলাচ ৩/৪টি।

যেভাবে করবেন

ক। পুর তৈরি-মৃদু আঁচে ঘি গরম করে নিন। কাজু বাদাম দিয়ে হালকা করে ভেজে নামান। কাজু বাদামগুলো আধা ভাঙা করে নিন। ওই প্যানেই অবশিষ্ট ঘি এর মধ্যে মাওয়া দিন। সামান্য নেড়ে নারিকেল কোরা, ভাঙা কাজু বাদাম ও গুড় দিয়ে দিন। হালকাভাবে নেড়ে পানি শুকালে নামিয়ে নিন। খ. ডো তৈরি- ময়দায় ঘি ও লবণ মাখিয়ে ময়ান দিন। অল্প অল্প করে পানি দিয়ে মথে শক্ত ডো তৈরি করুন। ঢেকে ১/২ ঘণ্টা রেখে দিন। গ. পিঠা তৈরি- ময়দা আবারও মথে কয়েকটি ভাগে ভাগ করুন। এক এক ভাগ নিয়ে লম্বাটে পাতা শেপের বাটির মতো তৈরি করুন। ডুবো তেলে ভেজে উঠান। বাটিগুলোর মধ্যে পুর ভরে নিন। দুধ জ্বাল দিয়ে কিছুটা ঘন করে নিন। এলাচ দিয়ে দিন। চুলা বন্ধ করে দুধ কিছুটা ঠাণ্ডা হলে গলানো গুড় দিন। নেড়েচেড়ে গুড় মিশে গেলে পিঠাগুলো দুধের মধ্যে বসিয়ে দিন। মৃদু আঁচে আবারও বলক তুলে ঢেকে রেখে দিন। ৩/৪ ঘণ্টা পর ঠাণ্ডা করে পরিবেশন করুন।

নারিকেলি পাতা পিঠা

যা যা লাগবে

ক। ডো এর জন্য-ময়দা ১ কাপ, দুধ ১ কাপ, ডিম ১/২ টা, ঘি ১ টেবিল চামচ, নারিকেল বাটা ১/৪ কাপ, লবণ স্বাদমতো।

খ। সিরার জন্য-গুড় ১/২ কাপ, পানি ২ টেবিল চামচ, নারিকেল কোরা ১ টেবিল চামচ, ঘি ১ চা চামচ। গ। ভাজার জন্য- তেল ১.৫ কাপ।

যেভাবে করবেন

ক। সিরা তৈরি-গুড় ও পানি মৃদু জ্বালে বসান। গুড় গলে গেলে নারিকেল কোরা ও ঘি মেশান। নেড়েচেড়ে ঘন সিরা বানিয়ে চুলা বন্ধ করে দিন।

খ। পিঠা তৈরি-মৃদু জ্বালে দুধে বলক তুলুন। লবণ, ঘি ও নারিকেল বাটা দিয়ে দিন। ফুটলে ময়দা দিয়ে নেড়ে খামির তৈরি করে নিন। খামির কিছুটা ঠাণ্ডা হলে ডিম মিশিয়ে ভালো মতো মথে মসৃণ ডো তৈরি করুন। ডোটিকে কয়েকটি ভাগে ভাগ করুন। ১টি ভাগ নিয়ে লম্বাটে, পাতলা করে রুটি বানান। ২ পাশে ১ ইঞ্চি পরিমাণ করে বাদ রেখে আড়াআড়ি ১/২ ইঞ্চি পর পর ছুরি দিয়ে কাটুন। রুটিটিকে আড়আড়ি ভাঁজ দিন। মাঝ বরাবর দু’পাশ আটকে আবার মাঝ বরাবর ভাঁজ দিন। দু মাথা চেপে পাতার শেপ দিন। ১ মাথা সাবধানে মাঝের কাটা জায়গা দিয়ে ঢুকিয়ে বের করে এনে শেপ ঠিক করুন। মৃদু আঁচে ডুবোতেলে মচমচে করে ভাজুন। গরম সিরায় দিয়ে এপিঠ ওপিঠ উল্টিয়ে উঠিয়ে নিন। পিঠার গায়ের সিরা শুকালে পরিবেশন করুন।

নকশি পিঠা

যা যা লাগবে

ক। ডো এর জন্য- চালের গুঁড়া ২ কাপ, পানি ২ কাপ, লবণ ১ চা চামচ। খ। সিরার জন্য-খেজুর গুড় ১ কাপ, পানি পৌনে ১ কাপ। গ। ভাজার জন্য-তেল ২.৫ কাপ।

যেভাবে করবেন

ক। সিরা তৈরি-পানি ও গুড় একত্রে জ্বাল দিয়ে ১ তারের সিরা তৈরি করে রাখুন।

পানিতে লবণ দিয়ে ফুটিয়ে চালের গুঁড়া দিয়ে মৃদু আঁচে ঢেকে রেখে দিন ৫ মিনিট। চালের গুঁড়া নেড়ে পানিতে মিশিয়ে চুলা বন্ধ করে ঢেকে রাখুন আরও ৫ মিনিট। গরম অবস্থায় ভালো করে মথে নিন। ৬/৭টি ভাগে ভাগ করে ভিজা কাপড় দিয়ে ঢেকে রাখুন। এদিকে পিঁড়িতে তেল মাখিয়ে ১টি ভাগ দিয়ে মোটা রুটি বেলুন। খেজুর কাটা বা মোটা সূচে তেল মাখিয়ে পছন্দসই ডিজাইনের পিঠা বানান। মৃদু আঁচে তেল গরম করে পিঠা সোনালি করে ভাজুন। কিছুটা ঠাণ্ডা করে গুড়ের সিরায় এপিঠ ওপিঠ চুবিয়ে উঠিয়ে নিন। ঠাণ্ডা হয়ে পিঠার গায়ে গুড় জমলে পরিবেশনের জন্য রেডি নকশি পিঠা।

তিল নারিকেল পুরে মাছ পিঠা

যা যা লাগবে

ক. পুরের জন্য- নারিকেল কোরা ১ কাপ, সাদা তিল ১/২ কাপ, খেজুর গুড় ১ কাপ, পানি ১ টেবিল চামচ। খ. ডো এর জন্য- ময়দা ১ কাপ, ঘি ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, পানি পরিমাণ মতো। গ. ভাজার জন্য-তেল ১.৫ কাপ।

যেভাবে করবেন

ক। পুর তৈরি- মৃদ আঁচে শুকনো তাওয়ায় তিল টেলে নিন। ঠাণ্ডা করে তিল ক্রাশ করে রাখুন। মৃদু আঁচে প্যান বসান। টুকরো করা গুড় ও পানি দিন। নেড়েচেড়ে গুড় গলে গেলে নারিকেল কোরা দিন। অনবরত নেড়ে নারিকেল গুড় মেশান। ক্রাশ করা তিল দিন। ভালো করে মিশিয়ে পানি টানলে নামিয়ে রাখুন।

খ। পিঠা তৈরি- ময়দায় ঘি ও লবণ দিয়ে ময়ান দিন। পানি দিয়ে মথে রুটির ডোয়ের মতো ডো তৈরি করুন। ঢেকে ১/২ ঘণ্টা রেখে দিন। আবারও মথে কয়েকটি ভাগে ভাগ করুন। লম্বাটে শেপের রুটি বেলুন। রুটির মাঝ বরাবর লম্বা করে পুর রাখুন। দু’পাশে তেরছা করে কয়েক ভাগে কাটুন। ছবির মতো করে কাটা খণ্ডগুলো এপাশ থেকে ওপাশে আটকে মাছের শেপ দিন। লবঙ্গ আটকে চোখ বানান। কাটা চামচ দিয়ে চাপ দিয়ে বা কেটে লেজের নকশা করুন। এভাবে সব বানিয়ে মৃদু আঁচে ডুবো তেলে মচমচে করে ভেজে তুলুন।

আরও পড়ুন
pran
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
bestelectronics

mans-world

 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.